• বৃহস্পতিবার, ২৬ মে ২০২২, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯  |   ৩৩ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

২০২২ সালে এসেও ২০১৩ তে আটকে আছে যে দেশ!

  ভিন্ন খবর ডেস্ক

১৭ জানুয়ারি ২০২২, ১৯:০৬
ইথিওপিয়া
ইথিওপিয়া। (ছবি: সংগৃহীত)

গোটা বিশ্বে ২০২২ সাল শুরু হয়েছে। কিন্তু বিশ্বের একটি দেশে এখনও ২০১৩ সাল চলছে। দেশটি আফ্রিকার। বিশ্বের গভীরতম এবং দীর্ঘতম গুহা এখানেই। আবার বিশ্বের সবচেয়ে উষ্ণতম স্থানও এই অঞ্চলেই। প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে পূর্ণ এই দেশ। দেশটির তার ইথিওপিয়া।

কিন্তু কেন এই দেশটিতে এখন ২০১৩ সাল? কারণ ইথিওপিয়ার ক্যালেন্ডারে বিশ্বের প্রচলিত ক্যালেন্ডার থেকে ৯ বছর পিছিয়ে। তাদের নিজস্ব ক্যালেন্ডার রয়েছে। যেটি চলতি গ্রেগরিয়ান ক্যালেন্ডার থেকে সাড়ে আট বছর পিছিয়ে রয়েছে। এখানে নতুন বছর উদযাপিত হয় ১১ সেপ্টেম্বরে। ১২ মাসের বদলে প্রতি ১৩ মাস পরে এখানে বছর আসে।

আর এক আশ্চর্য ব্যাপার রয়েছে এই দেশের দিনপঞ্জিতে। গ্রিক ভাষায় 'প্যাগিউম' বা ইংরেজিতে 'ফরগটেন ডেজ' নিয়ে ইথিওপিয়ান ক্যালেন্ডারে তৈরি হয় একটি মাস। মোট কথা এদের ক্যালেন্ডার এখনও ২০১৩ সালেই আটকে থাকায় ইথিওপিয়ায় ভ্রমণে যাওয়া লোকজনের সে দেশে হোটেল বুকিং ও অন্যান্য অনেক ক্ষেত্রেই বেশ সমস্যা ঘটে।

গ্রেগরিয়ান ক্যালেন্ডারের আগে বিশ্বে চলত জুলিয়ান ক্যালেন্ডার। ফলে জুলিয়ান ক্যালেন্ডারকে সরিয়ে গ্রেগরিয়ান ক্যালেন্ডার যখন এলো, তখন অনেক দেশ এই নতুন দিনপঞ্জির বিরোধিতা করেছিল। ইথিওপিয়াও ছিল সেইরকম এক দেশ। তার মানে এই দেশটির ক্যালেন্ডার জুলিয়ান অনুসারী, বরং ইথিওপিয়ার অর্থোডক্স টিওয়াহেদো চার্চের দিনপঞ্জির সঙ্গেই এদের সরকারি ক্যালেন্ডারের কিছু কিছু মিল পাওয়া যায়।

ওডি/জেআই

আপনার চোখে পড়া অথবা জানা অন্যরকম অথবা ভিন্ন স্বাদের খবরগুলোও আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। তাই সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড