• শুক্রবার, ২৮ জানুয়ারি ২০২২, ১৪ মাঘ ১৪২৮  |   ১৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

চুরির মাঝপথে খিচুড়ি রান্না, ধরা পড়ল চোর

  ভিন্ন খবর ডেস্ক

১২ জানুয়ারি ২০২২, ২০:৫২
চুরির মাঝপথে খিচুড়ি রান্না
চুরির মাঝপথে খিচুড়ি রান্না। (ছবি: সংগৃহীত)

খিচুড়ি রান্নাও যে কারও কারও জন্য চরম বিপদ ডেকে আনতে পারে, তা মনে হয় অনেকেই বিশ্বাস করবেন না। আবার কারও কাছে বিস্ময়করও মনে হতে পারে। কিন্তু এমন এক বিব্রতকর ঘটনার কথা শুনলে আপনি কিছুটা হাসতে বাধ্য হতে পারেন।

ভারতের আসাম প্রদেশের এক চোর চুরি করতে গিয়ে মাঝে বিরতি নিয়েছিলেন। আর সেই বিরতির মাঝপথে তিনি খিচুড়ি রান্না করেন। কিন্তু খিচুড়ি রান্নাই তার জন্য কাল হয়ে এসেছে; ধরা পড়েছেন পুলিশের হাতে।

চুরি করতে গিয়ে খিচুড়ি রান্নার সময় চোরের ধরা পড়ার এই ঘটনা টুইটারে বেশ হাস্যরসাত্মকভাবে তুলে ধরেছে আসাম পুলিশ। টুইটে ওই চোরকে গুয়াহাটি পুলিশ গ্রেফতার করেছে বলে জানানো হয়েছে।

মঙ্গলবার খিচুরির পাতিলের ছবিসহ টুইট বার্তায় আসাম পুলিশ বলছে, খাবার চোরের অদ্ভুত ঘটনা! স্বাস্থ্যের জন্য অনেক উপকারিতা থাকা সত্ত্বেও দেখা যাচ্ছে, চুরির চেষ্টার সময় খিচুড়ি রান্না করা আপনার জন্য ক্ষতিকর হতে পারে।

‘চোরকে গ্রেফতার করা হয়েছে এবং গুয়াহাটি পুলিশ তাকে কিছু গরম খাবার পরিবেশন করছে।’

দেশটির ইংরেজি দৈনিক দ্য হিন্দু বলছে, মালিক না থাকায় গুয়াহাটির হেঙ্গরাবাড়ি এলাকার একটি বাড়িতে হানা দিয়েছিলেন চোর। কিন্তু চুরির মাঝপথে ওই ব্যক্তি ফাঁকা বাড়িতে খিচুড়ি রান্না শুরু করেন। রান্নার শব্দ শুনে প্রতিবেশীরা ওই বাড়িতে চোরের উপস্থিতি টের পেয়ে যান। পরে তারা চোরকে ধরে ফেলেন এবং পুলিশের হাতে তুলে দেন।

আসাম পুলিশ ওই চোরকে গ্রেফতারের তথ্য টুইটারে শেয়ার করার পর অনেকেই হাস্যরস করেছেন।

যুক্তরাষ্ট্রেও ২০১৭ সালে প্রায় একই ধরনের একটি ঘটনা ঘটেছিল। ওই সময় এক চোর রেস্তোরাঁয় ঢুকে টাকা পয়সা লুটের মাঝপথে নিজের জন্য রান্না শুরু করেছিলেন। পালিয়ে যাওয়ার আগে নিজের জন্য পাঁচটি স্টেক স্যান্ডউইচ, ফ্রাই করে খেয়েছিলেন তিনি।

ওডি/জেআই

আপনার চোখে পড়া অথবা জানা অন্যরকম অথবা ভিন্ন স্বাদের খবরগুলোও আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। তাই সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড