• বৃহস্পতিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৪ আশ্বিন ১৪২৬  |   ৩০ °সে
  • বেটা ভার্সন

‘শিক্ষক প্রশিক্ষণের পর্যাপ্ত সুযোগ সৃষ্টি করেছে সরকার’

  শিক্ষা ডেস্ক

১২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১০:৫৯
শিক্ষা উপমন্ত্রী
শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল (ছবি : সংগৃহীত)

সরকার শিক্ষক প্রশিক্ষণের পর্যাপ্ত সুযোগ সৃষ্টি করেছে বলে মন্তব্য করেছেন শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল।

বুধবার (১১ সেপ্টেম্বর) সচিবালয়ে গ্লোবাল পার্টনারশিপ ফর এডুকেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এলিস আলব্রাইটের নেতৃত্বে চার সদস্যবিশিষ্ট একটি প্রতিনিধি দলের সঙ্গে সাক্ষাতের সময় এমন মন্তব্য করেন শিক্ষা উপমন্ত্রী। এ সময় প্রতিনিধি দলের কাছে শিক্ষাখাতে নেওয়া বর্তমান সরকারের বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডের কথা তুলে ধরেন মহিবুল হাসান চৌধুরী।

তিনি জানান, মানসম্পন্ন শিক্ষা নিশ্চিত করা বর্তমানে শিক্ষা ব্যবস্থার প্রধান চ্যালেঞ্জ। উন্নত মানের শিক্ষার জন্য দরকার দক্ষ শিক্ষক; আর এই লক্ষ্যে সরকার শিক্ষক প্রশিক্ষণের পর্যাপ্ত সুযোগ সৃষ্টি করে যাচ্ছে।

শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণ সন্তোষজনক স্তরে উন্নীত হয়েছে জানিয়ে শিক্ষা উপমন্ত্রী জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ক্ষমতায় আসার পরপরই শিক্ষা ব্যবস্থার আমূল সংষ্কারের উদ্যোগ নেন। যার ফলশ্রুতিতে শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণ সন্তোষজনক স্তরে উন্নীত হয়েছে এবং মাধ্যমিক স্তরে ছাত্রীদের সংখ্যা ছাত্রদের ছাড়িয়ে গেছে।

শিক্ষার বিভিন্ন পর্যায়ে উপবৃত্তি চালুর কথা উল্লেখ করে মহিবুল হাসান চৌধুরী জানান, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান স্বাধীনতার পরপর ৩৭ হাজার প্রাথমিক বিদ্যালয় জাতীয়করণ করেন, তারই ধারাবাহিকতায় শেখ হাসিনার সরকার শিক্ষার নানা পর্যায়ে উপবৃত্তি চালু করে।

তিনি আরও জানান, ১৮ বছর বয়স পর্যন্ত সব শিক্ষার্থীর জন্য তথ্য ও প্রযুক্তি শিক্ষা বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। এছাড়া সরকার কারিগরি শিক্ষার ওপর বিশেষ জোর দিচ্ছে যাতে বিদেশে দক্ষ জনশক্তি প্রেরণ করে দেশের অর্থনীতি সমৃদ্ধ করা যায়। আগামী ২০২১ সাল থেকে সাধারণ ধারার শিক্ষায়ও বৃত্তিমূলক ট্রেড আবশ্যিক করা হবে বলেও জানান মহিবুল হাসান চৌধুরী।

ওডি/আরএআর

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড