• বৃহস্পতিবার, ০৬ আগস্ট ২০২০, ২২ শ্রাবণ ১৪২৭  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

‘দেশের উন্নয়নকে ব্যাহত করতে কিছু দুষ্কৃতিকারী এখনো সক্রিয়’

গাকসুর অভিষেক অনুষ্ঠানে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী

  গণবি প্রতিনিধি

১২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৩:৪৯
গণবি
শপথ বাক্য পাঠ করাচ্ছেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ. ক. ম. মোজাম্মেল হক (ছবি : দৈনিক অধিকার)

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ. ক. ম. মোজাম্মেল হক বলেছেন, বর্তমান বাংলাদেশের উন্নয়নকে ব্যাহত করতে নগণ্য কিছু দুষ্কৃতিকারী এখনো সক্রিয় রয়েছে। এদেরকে রুখতে দেশের ছাত্রসমাজকে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে হবে।

বৃহস্পতিবার (১২ সেপ্টেম্বর) বেলা ১১টায় সাভারের গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের পিএইচএ মিলনাতয়নে গণ বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (গাকসু) অভিষেক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী আরও বলেন, দেশের অর্থনৈতিক, রাজনৈতিক ও সামাজিক উন্নয়নে ছাত্রসমাজের ভূমিকা অনস্বীকার্য। ইতিহাস স্বাক্ষী, বাংলাদেশসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশের নায্য দাবির আন্দোলনে ছাত্রসমাজের নেতৃত্বে সফলতা এসেছে।

বিশেষ অতিথি বক্তব্যে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. এনামুর রহমান বলেন, আমরা তোমাদের মতো সুযোগ পাইনি। তোমাদের ভালো কাজ করার সুযোগ রয়েছে। গণ বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস সত্যিই অনেক সুন্দর এবং আকর্ষণীয়। এখানকর শিক্ষার্থীরা শুধু পড়াশোনাতেই নয় বরং খেলাধুলায়ও অনেক এগিয়ে আছে।

তিনি আরও বলেন, ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের বাইশ মাইল রাস্তার মাথায় একটি ফুট ওভারব্রিজের কার্যক্রম অতিদ্রুত বাস্তবায়ন করা হবে। এখানে হাজার হাজার শিক্ষার্থীর জীবন জরিয়ে রয়েছে।

এ সময় গাকসুর সভাপতি ও গণ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য (ভারপ্রাপ্ত) বীর মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক ডা. লায়লা পারভীন বানুর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি, ঢাকা-২০ (ধামরাই) সনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা বেনজীর আহমেদ। এছাড়াও এ অভিষেক অনুষ্ঠানের উদ্বোধক হিসেবে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়েরপ্রতিমন্ত্রী ডা. মো. এনামুর রহমান উপস্থিত ছিলেন।

অভিষেক অনুষ্ঠানের শুরুতে উপস্থিত সকলেই দাঁড়িয়ে জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশন করেন। এরপর গাকসু নেতাদেরকে শপথ পাঠ করান অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ. ক. ম. মোজাম্মেল হক।

এ সময় গাকসু নেতাদের উদ্দেশে মন্ত্রী বলেন, শপথ বাক্যের কথাগুলোকে নিজের অন্তরে গভীরভাবে ধারণ করে বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়নে তোমাদেরকে কাজ করে যেতে হবে। ভবিষ্যতে তোমরা দেশকে এগিয়ে নিতে নিজেদের স্বকীয়তা বজায় রেখে এবং দলমতের উর্ধ্বে ওঠে ভূমিকা পালন করবে বলে আমি আশা করি। অন্যথায় এ জাতি পথ হারাবে, পিছিয়ে যাবে বাংলাদেশ।

গাকসুর সাধারণ সম্পাদক মো. নজরুল ইসলাম রলিফের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন গাকসুর সহসভাপতি (ভিপি) মো. জুয়েল রানা। বক্তব্যে তিনি দীর্ঘ সময় পর হলেও শপথ গ্রহণের মাধ্যমে বিশ্ববিদ্যালয়ের সুনাম অর্জন ও শিক্ষার্থীদের সকল নায্য দাবি আদায়ে সরাসরি তাদের পাশে থেকে কাজ করার অঙ্গীকার করেন।

এছাড়া অনুষ্ঠানে উপস্থিত হওয়ার জন্য সকল অতিথিদেরকে তিনি আন্তরিক ধন্যবাদ জানান এবং অনুষ্ঠানকে সফল করতে সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন।

উল্লেখ্য, দেশের প্রথম ও একমাত্র বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে গণ বিশ্ববিদ্যালয়েই রয়েছে নির্বাচিত ছাত্র সংসদ। ২০১৮ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারি গাকসুর তৃতীয় কমিটির ৬টি পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এতে শিক্ষার্থীদের সরাসরি ভোটে দুই বছরের জন্য সহসভাপতি (ভিপি) হিসেবে মো. জুয়েল রানা ও সাধারণ সম্পাদক (জিএস) মো. নজরুল ইসলাম রলিফ নির্বাচিত হন।

নির্বাচিত অন্য সদস্যরা হলেন- কোষাধ্যক্ষ খাদিজা আক্তার সেতু, ক্রীড়া সম্পাদক মাহতাবুর রহমান সবুজ, সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক রকিবুল হাসান শিপন এবং প্রচার ও সমাজসেবা সম্পাদক অর্জুন রাজ বংশী।

ওডি/আরএআর

jachai
nite
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
jachai

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড