• সোমবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮  |   ২৩ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

তিতুমীর কলেজ ছাত্রী হোস্টেলের বৈদ্যুতিক তার চুরি

  মোহাম্মদ রায়হান, তিতুমীর কলেজ প্রতিনিধি

২২ নভেম্বর ২০২১, ২০:৫৩
সিরাজ ছাত্রী নিবাস
সিরাজ ছাত্রী নিবাস

বনানী আবাসিক এলাকায় অবস্থিত সরকারি তিতুমীর কলেজের ছাত্রী হোস্টেল সিরাজ ছাত্রী নিবাসে বৈদ্যুতিক তার চুরির ঘটনা ঘটেছে। সোমবার (২২ নভেম্বর) মধ্য রাতে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, ভোর ৬টার দিকে বৈদ্যুতিক সরঞ্জামের সুইচ অন করা স্বত্বেও বৈদ্যুতিক সংযোগ পাওয়া যায় না। কিছুক্ষণ পর হলের গেইট থেকে বেরিয়ে এসে রাস্তার ওপার থেকে এপারে হলের বৈদ্যুতিক খুঁটির সংযোগ তারের অনুপস্থিতি লক্ষ করেন তিতুমীর কলেজের সিরাজ ছাত্রী নিবাসের নৈশ প্রহরী দেলোয়ার হোসেন।

সারেজমিনে দেখা গেছে সিরাজ ছাত্রী নিবাসের প্রধান ফটকের পাশে অবস্থিত বৈদ্যুতিক খুঁটির সাথে রাস্তার বিপরীতে অবস্থিত অন্য খুঁটির সংযোগকৃত প্রায় ৫০ মিটার তার চুরি হয়েছে৷ এই সংযোগ লাইনের মাধ্যমে পুরো হলের বিদ্যুৎ সরবরাহ করা হয়। বর্তমানে বৈদ্যুতিক সংযোগের মেরামতের কাজ চলছে।

কে বা কারা এই কাজটি ঘটিয়েছে তা নিশ্চিত নন হল কর্তৃপক্ষ। তবে শিগগিরই তদন্ত কমিটি গঠন করার আশ্বাস দিয়েছেন সহকারী হোস্টেল সুপার শান্তনা কর্মকার।

তার চুরি হওয়ার পেছনে হলের প্রহরীদের কিছুটা দোষ দিলেও এলাকার নিরাপত্তা ইস্যু নিয়েই বেশী প্রশ্ন তুলছেন তিনি। বনানীর মতো আবাসিক এলাকায় কড়া নিরাপত্তার মাঝেও হল গেইটের বাহিরে প্রধান সড়কে এমন ঘটনা ঘটার কথা একেবারেই অনাকাঙ্ক্ষিত বলে মনে করেন শান্তনা।

এ দিকে, হলের নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা তিন জন কর্মচারীর মধ্যে রাতের সময়ে দায়িত্ব প্রাপ্ত কর্মচারী দেলোয়ার হোসেন বলেন, সারাদিন নিজের ডিউটির বাইরে এটা ওটা করেই যাই। শরীর ক্লান্ত থাকে। তাই রাতে মাঝে মাঝে একটু আধটু ঘুমাতে হয় আর তার ফাঁকে হেঁটে পুরো এলাকাও টহল দিতে হয়। তার চুরির ঘটনার সময় ঘুমেই ছিলাম হয়তো। তাছাড়া গেইটের ভেতরে থেকে বাহিরে কীহচ্ছে তা সার্বক্ষণিক নজরে রাখারও সুযোগ নেই।

ঘটনাস্থলের দর্শনার্থীসহ দায়িত্বপ্রাপ্ত অন্যান্য কর্মকর্তারাও নিরাপত্তা প্রহরীদের চেয়ে আবাসিক এলাকায় সংগঠিত চুরির ঘটনাকে অনাকাঙ্ক্ষিত বলেই ধরে নিচ্ছেন।

তবে, সূত্র বলছে হলের বিপরীতে থাকা কোয়ার্টারের গাছ কাটার কাজে নিয়োজিত কর্মীরা দু'তিন দিন ধরে তাদের ব্যবহৃত একটি মই রাস্তার ওপর ফেলে যায়। এতে সুযোগ সন্ধানী লোকেরা উক্ত মইকে ব্যবহার করে ঘটনাটি ঘটিয়েছে বলে ধরে নিচ্ছেন তারা।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড