• শনিবার, ১১ জুলাই ২০২০, ২৭ আষাঢ় ১৪২৭  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

পবিত্র ইদ-উল-ফিতরে বশেফমুবিপ্রবি উপাচার্যের শুভেচ্ছা

  বশেফমুবিপ্রবি প্রতিনিধি

২৪ মে ২০২০, ২৩:৩৪
বশেফমুবিপ্রবি
বশেফমুবিপ্রবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. সৈয়দ সামসুদ্দিন আহমেদ (ছবি : সংগৃহীত)

পবিত্র ইদ-উল-ফিতর উপলক্ষে দেশবাসীকে শুভেচ্ছা ও মোবারকবাদ জানিয়েছেন বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (বশেফমুবিপ্রবি) উপাচার্য অধ্যাপক ড. সৈয়দ সামসুদ্দিন আহমেদ। 

রবিবার (২৪ মে) গণমাধ্যমে পাঠানো এক শুভেচ্ছা বার্তায় তিনি এই শুভেচ্ছা ও মোবারকবাদ জানান।

শুভেচ্ছা বার্তায় তিনি জানান, বিশ্বব্যাপী প্রাণঘাতী ভাইরাস কোভিড-১৯ বা করোনার ভয়াবহ সংক্রমণে মানুষ যখন দিশেহারা ঠিক সেই মুহূর্তে পবিত্র ইদ-উল-ফিতর আমাদের দ্বারে সমাগত। এমতাবস্থায় আমি অত্যন্ত ভারাক্রান্ত হৃদয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ও তাদের অভিভাবক, শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ সবার প্রতি পবিত্র ইদ-উল-ফিতরের শুভেচ্ছা জানাচ্ছি, ‘ইদ মোবারক।’

তিনি আরও বলেন, ‘অর্থনীতি বাঁচাতে জীবন-যাপনে কিছু বিধি-নিষেধ শিথিল করা হলেও চাকা ঘুরছে না গণ-পরিবহনের। এ অবস্থায় প্রিয়জনকে দূরে রেখেই এবারের ঈদ উদযাপন করতে হচ্ছে। তবে ঝুঁকি নিয়ে অনেককে বাড়ি ফিরতেও দেখা গেছে। যা বর্তমান পরিস্থিতিতে কাম্য নয়। ’

উপাচার্য বলেন, ‘বর্তমান পরিস্থিতিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকার নানামুখী পদক্ষেপ নিয়েছে। এর জন্য দেশের মানুষ তাঁর প্রতি কৃতজ্ঞ। শিক্ষার্থীদের পড়াশোনায় যুক্ত রাখতে আমরাও অনলাইনে ক্লাস পরিচালনা করছি। ’

এদিকে করোনাভাইরাসের সামাজিক সংক্রমণের মধ্যেই নতুন করে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় আম্ফানের কবলে পড়েছে উপকূলের মানুষ। তাই সব মিলিয়ে এবারের ইদ দেশবাসীর কাছে বিবর্ণ। ইদের নতুন জামা নেই, কাজ নেই, নেই মানুষের মুখে হাসি।  

তবুও মাসব্যাপী সিয়াম সাধনার পর সবার জন্য এই উৎসব আনন্দের উপলক্ষ হয়ে এসেছে। তাই এ অবস্থায় সবাইকে যে যেখানে রয়েছি সেখানে থেকেই ইদের এই আনন্দ উদযাপন করা উচিত। সম্প্রতি উপকূলের বিভিন্ন এলাকায় ঘূর্ণিঝড়ে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। করোনা পরিস্থিতিতে কাজ হারিয়েছেন অনেক মানুষ। এ অবস্থায় সামর্থ্য অনুযায়ী সকলের তাদের পাশে দাঁড়ানো উচিত বলে মনে করেন তিনি।

আরও পড়ুন : অসহায়দের সহযোগিতায় ডিনস অ্যাওয়ার্ড নিলামে তুললেন জাককানইবি শিক্ষক

এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘কেননা ইদের মর্মবাণীই হচ্ছে- মানুষের কল্যাণ, মঙ্গল এবং মানুষে মানুষে সুসম্পর্ক বজায় রাখা। তাই তো এদিন সবাই ধনী-গরিব, আশরাফ-আতরাফ নির্বিশেষে সবাই এক কাতারে শামিল হন এবং ইদের আনন্দকে ভাগাভাগি করে নেন। এটাই ইদ-উল-ফিতরের চিরন্তন আবেদন।’

সেই সঙ্গে ইদের সালাত আদায় ও ঈদ উদযাপনে স্বাস্থ্য বিধি ও সামাজিক দূরত্ব নির্দেশিকা মেনে চলার জন্য সকলকে আহ্বান জানান। তিনি করোনার এই মহামারি থেকে পরিত্রাণ এবং ঘূর্ণিঝড় আম্ফানে ক্ষতিগ্রস্তদের দ্রুত ক্ষয়-ক্ষতি কাটিয়ে উঠার তৌফিক কামনা করে মহান আল্লাহ রাব্বুল আলামীনের নিকট বিশেষ সাহায্য কামনা করেন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড