• সোমবার, ৩০ মার্চ ২০২০, ১৬ চৈত্র ১৪২৬  |   ৩৩ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

ইবির অনন্য স্থাপনা ‘মৃত্যুঞ্জয়ী মুজিব’

  আজাহার ইসলাম

২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৫:১৬
ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়
মৃত্যুঞ্জয়ী মুজিব ম্যুরাল (ছবি : দৈনিক অধিকার)

‘মৃত্যুঞ্জয়ী মুজিবের পাশে যখন দাঁড়াই, তখন মুজিবের চেতনায় দেশপ্রেমে আত্মবিশ্বাসী হয়ে উঠি। আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ে এটি একটি অনন্য স্থাপনা।’ এমনটাই জানান বাংলা বিভাগের শিক্ষার্থী আর কে রাজু।

লোক প্রশাসন বিভাগের আরেক শিক্ষার্থী রিয়াদ বলেন, ‘দেশের কোনো পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধুর এরকম কোনো ম্যুরাল নেই। আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ে আছে, এজন্য আমরা গর্বিত।’

বলছিলাম দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম মুজিব ম্যুরাল ‘মৃত্যুঞ্জয়ী মুজিব’ সম্পর্কে। যা ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) অবস্থিত। ক্যাম্পাসের প্রধান ফটক থেকে সামনে তাকালেই চোখে পড়ে শির উঁচু করে দাঁড়িয়ে থাকা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্মৃতি স্মরণে নির্মিত ম্যুরালটি। 

ম্যুরালটির পরিকল্পনা করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. হারুন-উর-রশিদ আসকারী। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ও ব্যবস্থাপনা বিভাগের সাবেক শিক্ষার্থী জালাল উদ্দীন তুহিনের যৌথ অর্থায়নে এটি স্থাপন করা হয়। 

প্রধান প্রকৌশলী (ভারপ্রাপ্ত) আলিমুজ্জামান টুটুল ম্যুরালটির নকশা করেন। শৈল্পিক কারুকার্যের রূপ দেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের মৃৎশিল্প ও ভাস্কর্য বিভাগের সহকারী অধ্যাপক কনক কুমার পাঠক। ২০১৮ সালের ৭ জানুয়ারি ম্যুরালটির উদ্বোধন করেন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মহামান্য রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ।

ম্যুরালটি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকের সৌন্দর্যকে হাজার গুণে বাড়িয়ে দিয়েছে। যা দর্শনার্থীদের নজর কাড়ে। বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ফটক মহাসড়কের পাশে হওয়ায় দেখা যায় যাতায়াতকারীরাও যাওয়ার সময় ম্যুরালটির সৌন্দর্য উপভোগ করার জন্যে তাকিয়ে থাকে। অনেক সময় বিভিন্ন পিকনিক স্পটে যাওয়ার সময় মূল ফটকে গাড়ি থামিয়ে ম্যুরালটির সৌন্দর্য উপভোগ করেন পর্যটকরা।

রড ও সিমেন্ট দিয়ে তৈরি ম্যুরালটির মূল স্থাপনার দৈর্ঘ্য সিঁড়িসহ ৫০ ফুট এবং প্রস্থ ৩৮ ফুট। বেদির উচ্চতা ৫ ফুট। বেদির ওপর নির্মিত বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতির দৈর্ঘ্য ২৬ ফুট এবং প্রস্থ ১৭ ফুট। এর তিনটি সিঁড়ি রয়েছে। স্থাপনার তিন দিকে দর্শনার্থীদের চলাফেরার জন্য দুই স্তরের ১৫ ফুট চওড়া জায়গা রয়েছে। মূল বেদির উপর আড়াই ফুট উচ্চতা এবং ২০ ফুট চওড়া একটি দেয়াল স্থাপন করা হয়েছে, যেটার ওপর যে কেউ শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন করতে পারবে। 

শ্রদ্ধা নিবেদন ছাড়াও ম্যুরালটি সিঁড়িতে শিক্ষার্থীদের আড্ডা দিতে দেখা যায়। এছাড়াও ব্যাচ ডে/র‌্যাগ ডে তে ফটো সেশনও চলে।

আরও পড়ুন : স্বপ্ন থেকে সফল উদ্যোক্তা

মূল প্রতিকৃতির ডান পাশে ৪ ফুট চওড়া ও ২০ ফুট উচ্চতার একটি ওয়াল স্থাপন করা হয়েছে যাতে বঙ্গবন্ধুর স্বাক্ষর করা একটি ইংরেজি বাণী লিপিবদ্ধ আছে। তার ঠিক নিচেই রয়েছে তার বাংলা অনুবাদ। বাণীটি হলো ‘একজন মানুষ হিসেবে সমগ্র মানব জাতি নিয়ে আমি ভাবি। একজন বাঙালি হিসেবে যা কিছু বাঙালিদের সঙ্গে সম্পর্কিত তা আমাকে গভীরভাবে ভাবায়। এই নিরন্তর সম্পত্তির উৎস ভালোবাসা। অক্ষয় ভালোবাসা, যে ভালোবাসা আমার রাজনীতি এবং অস্তিত্বকে অর্থবহ করে তোলে।’

লেখক : শিক্ষার্থী, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, কুষ্টিয়া

ওডি/এমএ

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড