• সোমবার, ০৬ এপ্রিল ২০২০, ২৩ চৈত্র ১৪২৬  |   ২৬ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

ফেসবুকে সুইসাইড নোট লিখে তিতুমীর কলেজ শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা 

  জিটিসি প্রতিনিধি

১৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ২১:২৭
এসএম সাইমন
প্রয়াত এসএম সাইমন (ছবি : দৈনিক অধিকার)

ফেসবুকে সুইসাইড নোট লিখে আত্মহত্যা করেছে সরকারি তিতুমীর কলেজের এক শিক্ষার্থী। 

শনিবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) রাতে মতিঝিলের একটি বাসা থেকে ওই শিক্ষার্থীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। ফেসবুক আইডিতে ওই শিক্ষার্থীর নাম এসএম সাইমন। তিনি তিতুমীর কলেজের ২০১৪-১৫ শিক্ষাবর্ষের ফিন্যান্স অ্যান্ড ব্যাংকিং বিভাগের শিক্ষার্থী। 

এসএম সাইমন বলে পরিচিত শিক্ষার্থীর পারিবারিক নাম মজিবুর রহমান সায়মন (২৩)। তিনি দক্ষিণ কমলাপুরে সরদার কলোনির একটি মেসে থাকতেন। মৃত মজিবুর রহমান কুমিল্লা জেলার লাকসাম উপজেলার এস এম ইসহাক মিয়ার ছেলে। 

এ ব্যাপারে মতিঝিল থানার উপপরিদর্শক (এসআই) সাইফুল ইসলাম জানান, সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে যায় পুলিশ। পরে মেস থেকে সায়মনের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে সায়মন গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। তবে আত্মহত্যার কারণ এখনো জানা যায়নি।

তিনি আরও বলেন, নিহতের বন্ধুদের কাছ থেকে শুনেছি ফেসবুক প্রোফাইলে একটি স্ট্যাটাস দেওয়ার পরপরই সায়মন আত্মহত্যা করে। বিস্তারিত ঘটনা জানার চেষ্টা চলছে এবং ময়না তদন্তের পরে বিস্তারিত জানা যাবে। 

মরদেহ ময়না তদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে বলেও জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা। 

সায়মনের ফেসবুক স্ট্যাটাসটি নিম্নে তুলে ধরা হলো- 

‘যারা সুইসাইড করে তারা সবসময় ভীরু, কাপুরুষ বলে ভাইবা আসছি। যারা জীবন থেকে পালানোর সহজতম রাস্তা বাইছা নেয়। কখনো ভাবি নাই নিজেই এমন অবস্থায় এসে দাঁড়াব। কিন্তু আমাদের সমাজ, আমাদের সিস্টেম, পারিপার্শ্বিক অবস্থা আজকে আমাকে এই জায়গায় দাঁড় করাইছে। আমার মধ্যে এই অনুভূতি আজকে প্রবলভাবে কাজ করে যে আমাকে দিয়ে কিছুই হবে না। আমি শুধুমাত্রই একটা বোঝা। যার থাকার চেয়ে না থাকাই ভালো। একটা সময় নিজেকে নিয়ে প্রচুর কনফিডেন্ট ছিলাম। এখন সেই জায়গায় কাজ করে হীনমন্যতা। আমার কারও প্রতি কোনো অভিযোগ নেই। খালি কিছু মানুষকে নিয়ে আফসোস। যারা নিজেদের স্কলার ভাবে, মানবিকতার হাদিস দেখায় শুধুমাত্র নিজেদের স্বার্থ হাসিলের সময়। তারা নিজেরাও জানে না তারা আসলে স্কলার না। আমার চেয়েও বড় বোঝা।

আফসোস তাদের প্রতি যারা বর্তমান নিয়ে ব্যস্ত। ভবিষ্যৎকে ন্যূনতম বিচারেও রাখে না। আফসোস তাদের প্রতি যারা একটা মাত্র সুযোগ দিতেও আগ্রহী নয়। আশা ছিল বাবা-মাকে পুরা বাংলাদেশ দেখানোর, ছোট ভাইটাকে আমার অপ্রাপ্তিগুলো পূরণ করানোর। কিছুই হইল না। মাফ করে দিয়ো আব্বু-আম্মু। তোমাদের ছেলে যে নিজের কাছেই হেরে বসে আছে। মানুষের আত্মসম্মানবোধটাই যখন না থাকে তখন সে নিজের কাছেই মরে যায়। তাই আর অন্যদের জন্য বেঁচে থেকে কী লাভ!

আরও পড়ুন : স্থায়ীভাবে হল ছাড়ছেন আইআইইউসির শিক্ষার্থীরা

‘‘আমি, এস এম মজিবুর রহমান সায়মন, সুস্থ মস্তিষ্কে, স্বেচ্ছায় এই সিদ্ধান্ত নিচ্ছি... এর জন্য কেউ দায়ী নয়।’’

বিদায় পৃথিবী। বিদায় সুশীল সমাজ.... বিদায় সমাজব্যবস্থা...

ওডি/এমআরকে

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড