• রোববার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ৫ আশ্বিন ১৪২৭  |   ৩২ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

চবি ছাত্রলীগের অন্তর্কোন্দল, অবরোধের মধ্যে অবরোধ

  চবি প্রতিনিধি

২৭ জানুয়ারি ২০২০, ২০:০১
ছাত্রলীগ
চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়। (ছবি : সংগৃহীত)

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় (চবি) শাখা ছাত্রলীগের উপপক্ষ রেড সিগনালের (আরএস) দুই কর্মীকে মারধরের ঘটনায় অনির্দিষ্টকালের অবরোধের ডাক দিয়েছে ছাত্রলীগের সাবেক উপ-বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক রকিবুল হাসান দিনারের অনুসারীরা।

সোমবার (২৭ জানুয়ারি) বিকাল ৫টায় দুই দফা দাবিতে এই অবরোধের ঘোষণা দেন আরএস গ্রুপের নেতা রকিবুল হাসান দিনার।

এ দিকে ২২ জানুয়ারি সিএফসি ও বিজয় পক্ষের সংঘর্ষের জেরে সভাপতি রেজাউল হক রুবেলের বহিষ্কারের দাবিতে অনির্দিষ্টকালের জন্য অবরোধ ডাকে বিজয় গ্রুপ। পরে প্রশাসনের আশ্বাসে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত অবরোধ শিথিল করা হয়েছিল। সেই অবরোধ চলাকালীন আবার অবরোধ ডাকল রেড সিগনাল। এ নিয়ে এখন শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি এবং সেক্রেটারি দুজনের বহিষ্কার ও পদত্যাগ চেয়ে অবরোধ চলছে।

জানা যায়, পূর্ব ঘটনার জেরে সোমবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান অনুষদের ক্যাফেটেরিয়ায় আরএস গ্রুপের দুই কর্মী ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজ বিভাগের মোহাম্মদ আরমান ও এমরান আশিককে মারধর করে। মারধরকারীরা সবাই শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন টিপুর অনুসারী সিক্সটি নাইনের নেতাকর্মী।

এ ঘটনায় দুপুর আড়াইটায় বিশ্ববিদ্যালয় থেকে শহরগামী শহরগামী ফতেয়াবাদ স্টেশনে পৌঁছালে হোস পাইপ কেটে দেয় আরএস গ্রুপের অনুসারীরা। ফলে বিকাল সাড়ে ৪টা পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয় রুটে ট্রেন চলাচল বন্ধ ছিল। বিকাল ৫টায় হামলাকারীদের শাস্তি ও ঘটনার দায়ভার গ্রহণ করে ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন টিপুর পদত্যাগের দাবিতে অনির্দিষ্টকালের অবরোধের ডাক দিয়েছে আরএস পক্ষের নেতা রকিবুল হাসান দিনার।

এ বিষয়ে রকিবুল হাসান দিনার বলেন, দুই দফা দাবিতে আজ থেকে অনির্দিষ্টকালের অবরোধ ঘোষণা করা হয়েছে। ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন টিপুর পদত্যাগ, ছাত্রলীগ কর্মী ও এলাকাবাসীর ওপর হামলাকারীদের শাস্তির দাবিতে অবরোধ চলবে।

এ দিকে শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন টিপু বলেন, এখন ট্রেন্ড হয়ে গেছে কিছু হলেই অবরোধ। অবরোধ তো মামার বাড়ির মোয়া না। কেউই ঝামেলা করার সময় আমার অনুমতি নেয় না। নিজেরা নিজেরা ঝামেলা করে। এখন দোষ কার? সেক্রেটারির, এরকম? প্রথম থেকে শেষ পর্যন্ত যারা গন্ডগোল করছে কেন্দ্রের সঙ্গে কথা বলে এদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেব।

আরও পডুন : এসএসসি পরীক্ষার্থীদের মাইক জুজু

ষোলশহর স্টেশনের সহকারী মাস্টার তন্ময় মজুমদার বলেন, ট্রেনের হোস পাইপ কেটে দেওয়ায় দুপুরের ট্রেনটি ফতেয়াবাদ স্টেশন থেকে বিকালে ছেড়ে যায়। তবে রাতের ট্রেন চলবে কি না সে বিষয়ে এখনো বলা যাচ্ছে না।

সার্বিক বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর অধ্যাপক এস এম মনিরুল হাসান বলেন, আমরা তাদের বারবার বোঝানোর চেষ্টা করে আসছি। তবে তারা আমাদের কথা শুনছে না। নিজেদের মধ্যে মারামারি করে ট্রেনের হোস পাইপ কেটে দেওয়া এগুলো দুঃখজনক।

ওডি/জেআই

jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড