• শনিবার, ১৮ জানুয়ারি ২০২০, ৫ মাঘ ১৪২৭  |   ১৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

তদন্তের নামে কক্ষ সিলগালার অভিযোগ ভিপি নুরের

  ক্যাম্পাস ডেস্ক

১৩ জানুয়ারি ২০২০, ২০:৩০
ডাকসু ভিপি
হামলার পর থেকে সিলগালা ভিপির কক্ষ (ছবি : সম্পাদিত)

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) ভবনে ভিপির কক্ষে হামলার পর থেকে এখন পর্যন্ত কক্ষে প্রবেশ করতে পারেননি নুরুল হক নুর।

নুর অভিযোগ জানিয়ে বলেন, ‘তদন্তের নামে কক্ষটি সিলগালা করে রাখা হয়েছে।’ হামলার পর নিজ কার্যালয়ে প্রবেশ করতে চেয়েও তা সম্ভব হয়নি বলেও তিনি জানান।

এর আগে ২০১৯ সালে ২২ ডিসেম্বর ডাকসু ভবনে ভিপি নুর ও তার অনুসারীদের ওপর এই হামলা চালানো হয়। মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের একাংশ ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা এ হামলায় অংশ নেন বলে অভিযোগ রয়েছে।

তবে এই হামলার সঙ্গে নিজেদের কোনো সম্পৃক্ততা নেই বলে দাবি করে আসছে ছাত্রলীগ। ঘটনার পর থেকেই ভিপির কক্ষটি সিলগালা করে দেয় বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। 

এ বিষয়ে হামলার ঘটনায় গঠিত তদন্ত কমিটির আহ্বায়ক ও কলা অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. আবু মো. দেলোয়ার হোসেনের কাছে জানতে চাইলে তিনি কোনো মন্তব্য করতে রাজি হন নি।

তিনি বলেন, ‘যার কক্ষ তার (ভিপি) সঙ্গে গতকাল কথা হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে তো আর মন্তব্য করার কিছু নেই।’

আইনজীবীরা বলছেন, উচ্চ আদালতের কোনো নির্দেশ ছাড়া বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ এতদিন কক্ষটি সিলগালা করে রাখতে পারে না।

সুপ্রিমকোর্টের একজন আইনজীবী বলেন, ‘ভিপি একজন ছাত্র প্রতিনিধি। শিক্ষার্থীদের স্বার্থেও তার স্বাভাবিক কার্যক্রম ব্যহত হচ্ছে। কর্তৃপক্ষ তদন্তের নামে এতদিন তার কক্ষটি সিলগালা করে রাখতে পারে না। যদি আদালতের কোনো নির্দেশ থাকে, তাহলে সেটি ভিন্ন বিষয়।’

প্রসঙ্গত, ভিপি নুরের ওপর হামলার পরদিন ২৩ ডিসেম্বর ঘটনা খতিয়ে দেখতে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন কলা অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. আবু মো. দেলোয়ার হোসেনকে আহ্বায়ক করে ছয় সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করে।

তবে গত ১ জানুয়ারি ছয় কার্যদিবস শেষেও কমিটি কোনো তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিতে পারে নি। আরও ১০ কার্যদিবস সময় দিতে উপাচার্যের কাছে আবেদন জানালে, সময় বাড়িয়ে দেওয়া হয়। আগামী ১৫ জানুয়ারি ওই ১০ কার্যদিবস শেষ হওয়ার কথা রয়েছে। তবে ওই সময়ের মধ্যে কমিটি প্রতিবেদন জমা দিতে পারবে কিনা, সেটিও নির্দিষ্ট করে বলতে পারছে না কর্তৃপক্ষ।

আরও পড়ুন : নোবিপ্রবির চলো পাল্টাই ফাউন্ডেশনের শীতবস্ত্র বিতরণ

এ ব্যাপারে কমিটির আহবায়ক আবু মো. দেলোয়ার হোসেন বলেন, ‘তদন্তের কাজ শেষ না হওয়ায় আমরা ১০ কার্য দিবস সময় বাড়িয়ে নিয়েছি। আজকেও ১২ জনের সাক্ষাৎকার নিয়েছি। তদন্ত চলমান। তদন্তের কাজ ১০ কার্য দিবসের মধ্যে শেষ করতে পারি, তাহলে সময় মতো প্রতিবেদন দিয়ে দেবো। আর না হয়, সময় আরও বাড়িয়ে নেবো।’

ওডি/এমএ

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: +৮৮০১৯০৭-৪৮৪৮00, +৮৮০১৯০৭৪৮৪৭০২  

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড