• বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০  |   ২৩ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

জাবি ছাত্রীদের আলটিমেটামের নেপথ্যে ছাত্রলীগ সম্পাদকের ঘনিষ্ঠ বান্ধবী!

  জাবি প্রতিনিধি

০১ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৪:৫৪
জাবি

আজ বুধবার সন্ধ্যায় জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) শাখা ছাত্রলীগের শেখ হাসিনা হল ও শেখ রাসেল হলের কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে। এর আগে গত ২৯ জানুয়ারি বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পদকের সাথে দেখা করে কয়েকজন ছাত্রলীগ নেত্রী ৪৮ ঘন্টার মধ্যে এই কমিটির দেওয়ার আলটিমেটাম দেন বলে জানা যায়। অনুসন্ধানে জানা যায়, এই আলটিমেটামের নেপথ্যে সাধারণ সম্পাদক হাবিবুর রহমান লিটনের ঘনিষ্ঠ বান্ধবী চাপ দিয়েছেন।

ছাত্রী হলের কমিটিতে পদপ্রত্যাশী একাধিক প্রার্থীর সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, গত ২৩ জানুয়ারি শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক হাবিবুর রহমান লিটন প্রায় তিন শতাধিক অনুসারী দ্বারা ক্যাম্পাসে অবাঞ্ছিত হন। এর প্রেক্ষিতে ২৭ জানুয়ারি কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ কর্তৃক চার সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা হলে নিজের পদ বাঁচাতে বিভিন্ন পথ খুঁজতে থাকেন লিটন। পরে বিশ্ববিদ্যালয়ে লিটনের ঘনিষ্ঠ কয়েকজনের পরামর্শে লিটন সিদ্ধান্ত নেন, 'কেন্দ্রকে বোঝাতে হবে, দুই একটি হলের কমিটি দিলে পুরো পরিস্থিতিকে নিয়ন্ত্রণ করা যাবে'। তবে বিক্ষুব্ধ অনুসারী কর্তৃক শাখা সভাপতি আকতারুজ্জামান সোহেলকে অবাঞ্ছিত সম্পাদক লিটনের স্বাক্ষরে হল কমিটি ঘোষণা না করার আলটিমেটাম দেওয়ায় ভিন্ন পথ খুঁজতে থাকেন তারা। এজন্য সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়, 'লিটনের ঘনিষ্ঠ বান্ধবী আনিকা সুবাহকে দিয়ে হল কমিটির জন্য সভাপতি ও সম্পাদককে আলটিমেটাম দেওয়াতে হবে। পরে ২৯ জানুয়ারি সন্ধ্যা সাতটায় ৪৮ ঘন্টার আলটিমেটাম আসে। এটাকে কমিটি ঘোষণার আগে নাটক হিসেবে অভিহিত করেছেন বিক্ষুব্ধ ছাত্রলীগ নেত্রীরা।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে এক নেত্রী বলেন, আমরা দীর্ঘদিন ধরে ছাত্রলীগের রাজনীতি করে আসছি। এর মধ্যে বর্তমান শাখা ছাত্রলীগ কমিটি ঘোষণা করা হয়েছিল। তারপর থেকে সংগঠনের সকল কার্যক্রমে সক্রিয় থাকার পরেও আমরা ছাত্রলীগের কোনো পরিচয় পাইনি। এসময়ে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক কমিটি দেওয়ার কথা বলে টালবাহানা করে সময় ক্ষেপন করেছেন। কমিটি দেওয়ার পরিবর্তে তারা নিজেদের পকেট ভারী করার চিন্তায় ব্যস্ত ছিলেন। এখন সাধারণ সম্পদককে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করার পর নিজের পদ বাঁচাতে হল কমিটি দেওয়ার নাটক করেছেন।

এমনকি আনিকা আপু (লিটন ভাইয়ের গার্লফ্রেন্ড) আমার কয়েকজন বান্ধবীকে ফুসলিয়ে সভাপতি সেক্রেটারির সাথে দেখা করান। পরে শুনেছি এটা নাকি আলটিমেটাম ছিলো।

সাংবাদিকদের সাথে কথা বলার সময় সাফ জানিয়ে দেন, তারা (নেত্রীরা) মেয়াদোত্তীর্ন কমিটির অবাঞ্ছিত সাধারণ সম্পাদকের স্বাক্ষরে কোনো কমিটি আগেও চাননি এখনও চান না। বরং এর চেয়ে সারাজীবন ছাত্রলীগের পরিচয়হীন রাজনৈতিক কর্মী হিসেবে থাকতে চান।

এর আগে ২০২২ সালের ৩ জানুয়ারি বিশ্ববিদ্যালয়ের পাবলিক হেলথ অ্যান্ড ইনফরমেটিক্স বিভাগের ৪২তম ব্যাচের শিক্ষার্থী আখতারুজ্জামান সোহেলকে সভাপতি ও দর্শন বিভাগের ৪৩তম ব্যাচের শিক্ষার্থী হাবিবুর রহমান লিটনকে সাধারণ সম্পাদক করে এক বছর জন্য কমিটি দেয় কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ। ফলে ইতিমধ্যেই এই কমিটি মেয়াদোত্তীর্ণ হয়ে প্রায় ১৩ মাস মাস পার হয়েছে।

অন্যদিকে, এই কমিটির বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি, অনিয়ম, সাংবাদিক-ছাত্র নির্যাতনসহ নানা অভিযোগ উঠে।

সর্বশেষ এই কমিটির সাধারণ সম্পাদক হাবিবুর রহমান লিটনের বিরুদ্ধে কর্মীদের খোঁজখবর না রাখা, নিজ হলকেন্দ্রিক রাজনীতি সীমাবদ্ধ রাখা, কর্মীসভার পরে হল কমিটি না দেওয়া, বিশ্ববিদ্যালয়ের পার্শ্ববর্তী এলাকায় জমি দখল করা এবং নেতাকর্মীদের সঙ্গে অশোভন আচরণ করা ও ব্যস্ততার অজুহাত দেওয়ার অভিযোগ এনে ক্যাম্পাসে অবাঞ্ছিত করেন তারই অনুসারীরা।

আপনার ক্যাম্পাসের নানা ঘটনা, আয়োজন/ অসন্তোষ সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড