• শনিবার, ২৩ জানুয়ারি ২০২১, ৯ মাঘ ১৪২৭  |   ১৪ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

সেশন জট এড়াতে স্নাতকের চূড়ান্ত পরীক্ষা নেবে বশেফমুবিপ্রবি

  বশেফমুবিপ্রবি প্রতিনিধি

১৪ জানুয়ারি ২০২১, ১৫:৩৭
বশেফমুবিপ্রবি
সেশন জট এড়াতে স্নাতকের চূড়ান্ত পরীক্ষা নেবে বশেফমুবিপ্রবির ফিশারিজ বিভাগ (ছবি : দৈনিক অধিকার)

মহামারি করোনা ভাইরাসের কারণে অনলাইনে পাঠদান অব্যাহত রেখেছে বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (বশেফমুবিপ্রবি)। অসমাপ্ত সেমিস্টারগুলোও শেষ পর্যায়ে। তবে পরীক্ষা না হওয়ায় হতাশ হয়ে পড়েছেন শিক্ষার্থীরা। অনেকেই মনে করছেন, পরীক্ষা বা মূল্যায়ন না হলে অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রম মুখ থুবড়ে পড়বে।

এসবের মধ্যেই ইউজিসির নির্দেশনা অনুযায়ী স্নাতকের চূড়ান্ত পরীক্ষা নিতে যাচ্ছে বশেফমুবিপ্রবির ফিশারিজ বিভাগ। এই লক্ষ্যে গত ৩ জানুয়ারি থেকেই স্নাতকের চূড়ান্ত পরীক্ষার্থীদের ব্যবহারিক ক্লাসসহ ক্লাস টেস্ট নেওয়া শুরু করেছে ফিশারিজ বিভাগ।

শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য সুরক্ষার বিষয়টি মাথায় রেখে পরীক্ষা ও ব্যবহারিক ক্লাস পূর্ণ স্বাস্থ্যবিধি মেনে সম্পন্ন করার পরিকল্পনা দৈনিক অধিকারকে জানিয়েছেন ফিশারিজ বিভাগের চেয়ারম্যান ড. আব্দুস ছাত্তার। ফিশারিজ বিভাগের প্রথম বর্ষের দুজন শিক্ষার্থীদের সাথে অন্যান্য বর্ষের শিক্ষার্থীদের প্রথম বর্ষের রিপিট পরীক্ষা নিতে পারলে অ্যাকাডেমিক লোড অনেকটা কমে যাবে বলে মনে করেন তিনি।

ড. আব্দুস ছাত্তার বলেন, ‘শিক্ষার্থীদের শিক্ষাজীবনে যে অপূরণীয় ক্ষতি হয়েছে বা হচ্ছে, তা থেকে উত্তরণের জন্য স্নাতক পর্যায়ে শেষ বর্ষে অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের ফেব্রুয়ারি নাগাদ সেমিস্টারের চূড়ান্ত পরীক্ষা নেব। যেহেতু আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ে শুধুমাত্র ফিশারিজ বিভাগে স্নাতক পর্যায়ের শেষ বর্ষের পরীক্ষার্থী রয়েছে, তাই তাদের অসমাপ্ত ব্যবহারিক ক্লাস এবং তার মূল্যায়ন স্বাস্থ্যবিধি মেনে পর্যায়ক্রমে সম্পন্ন করা হচ্ছে।’

তিনি বলেন, ‘স্বাস্থ্যবিধি মেনে সফলভাবে স্নাতক শেষ বর্ষের পরীক্ষা সম্পন্ন হলে অ্যাকাডেমিক লোড কমিয়ে সেশন জট এড়াতে অন্যান্য বর্ষে অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের অগ্রাধিকার ভিত্তিতে সেমিস্টার পরীক্ষা, অসমাপ্ত ব্যবহারিক ক্লাস ও মূল্যায়ন সম্পন্ন করা হবে।’

এ দিকে, বিশ্ববিদ্যালয়ের ফিশারিজ বিভাগের স্নাতক চূড়ান্ত পর্যায়ের শিক্ষার্থী নাদিরা জান্নাত রাখি জানান, ‘একটি বছর হতাশার মধ্যে থেকেও আশার আলো যে, আমরা এখন স্নাতক চূড়ান্ত পরীক্ষায় বসতে যাচ্ছি। ফিশারিজ বিভাগের চেয়ারম্যান মহোদয়সহ বিভাগের শিক্ষকেরা আমাদের হল বন্ধ থাকায় বাইরে মেসে থাকা-খাওয়া, সুবিধা-অসুবিধা, স্বাস্থ্য ইত্যাদি বিষয়ে আন্তরিকভাবে খোঁজ-খবর নিচ্ছেন। স্বাস্থ্যবিধি মেনে আমরা স্নাতক শেষবর্ষের মোট শিক্ষার্থীর ৩১ জনই ক্লাস-পরীক্ষায় নিয়মিত অংশগ্রহণ করছি।’

স্নাতক চূড়ান্ত পর্যায়ের অপর শিক্ষার্থী মুজিবুল ইসলাম খান বলেন, ‘আমাদের ক্লাস রিভিউর পাশাপাশি প্রবলেম সলভ ক্লাস, ক্লাস টেস্ট পরীক্ষা চলছে। ইতোমধ্যে অনলাইনে শতভাগ ক্লাস সফলভাবে শেষ হয়েছে। স্নাতক চূড়ান্ত পরীক্ষায় বসার মতো প্রায় সকল প্রস্তুতি আমাদের রয়েছে। এইসবের জন্য ফিশারিজ বিভাগের চেয়ারম্যান স্যারসহ সকল শিক্ষকমণ্ডলী ও বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের প্রতি কৃতজ্ঞতা।’

আরও পড়ুন : ফেলোশিপ পাচ্ছেন হাবিপ্রবির ১৩৯ শিক্ষার্থী

পথচলার শুরু থেকেই বশেফমুবিপ্রবিকে সেশন জটমুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় করার ঘোষণা দিয়েছিলেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. সৈয়দ সামসুদ্দিন আহমেদ। সেই লক্ষ্যে করোনাকালেও অনলাইন পাঠদান ও মূল্যায়ন সবকিছুই হচ্ছে উপাচার্যের সার্বক্ষণিক তত্ত্বাবধানে।

এ প্রসঙ্গে উপাচার্য অধ্যাপক ড. সৈয়দ সামসুদ্দিন আহমেদ বলেন, ‘ভার্চুয়াল ক্লাসে কিংবা স্বাস্থ্যবিধি মেনে স্নাতক শেষবর্ষের ব্যবহারিক ক্লাসে আমাদের শিক্ষার্থীদের উপস্থিতি বেশ আশাব্যঞ্জক এবং শিক্ষকেরাও খুবই আন্তরিকভাবে এসব কার্যক্রম করে যাচ্ছেন। সরকারি ও ইউজিসির নির্দেশনা অনুযায়ী শিক্ষার্থীদের অঙ্গীকারনামা নিয়ে স্বাস্থ্যবিধি মেনে স্নাতক পর্যায়ের শেষবর্ষের অসমাপ্ত ব্যবহারিক ক্লাসের পর চূড়ান্ত পরীক্ষা নেওয়া হবে। আর শেষবর্ষের পরীক্ষা সফলভাবে শেষ হলে আর পরিবেশ সুস্থ হলে ছয়টি বিভাগেই বিভিন্ন বর্ষেরও সেমিস্টার ফাইনাল পরীক্ষা পর্যায়ক্রমে নেওয়া হবে।’

আপনার ক্যাম্পাসের নানা ঘটনা, আয়োজন/ অসন্তোষ সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড