• বৃহস্পতিবার, ০৭ জুলাই ২০২২, ২৩ আষাঢ় ১৪২৯  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

বিএসসির মুনাফা বৃদ্ধি 

  অর্থ-বাণিজ্য ডেস্ক

২৬ মে ২০২২, ১৩:০২
বিএসসির মুনাফা বৃদ্ধি 
বাংলাদেশ শিপিং কর্পোরেশন লিমিটেডের (বিএসসি) কার্যালয় (ছবি : সংগৃহীত)

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত বিবিধ খাতের প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ শিপিং কর্পোরেশন লিমিটেডের (বিএসসি) মুনাফা বৃদ্ধি পেয়েছে প্রায় তিন গুণ। চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে ৩১ মার্চ সময়ের মধ্যে অর্থাৎ কোম্পানিটির তৃতীয় প্রান্তিকের অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদনে এমন চিত্র উঠে এসেছে।

বৃহস্পতিবার (২৬ মে) ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) ওয়েবসাইটে তথ্যটি প্রকাশ করা হয়।

১৯৭৭ সালে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত প্রতিষ্ঠানটি ২০২১-২২ অর্থবছরের তৃতীয় প্রান্তিকে শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) করেছে তিন টাকা ৩১ পয়সা। যেখানে আগের বছরের একই সময়ে শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) ছিল এক টাকা ১৭ পয়সা। অর্থাৎ গেল বছরের একই সময়ের তুলনায় চলতি বছরের তৃতীয় প্রান্তিকে ইপিএস বেড়েছে দুই টাকা ৮২ পয়সা।

এর আগের অর্থাৎ দ্বিতীয় প্রান্তিকে প্রতিষ্ঠানের শেয়ারপ্রতি মুনাফা হয়েছিল (ইপিএস) তিন টাকা ৯৪ পয়সা। যা আগের বছরের একই সময়ে ছিল এক টাকা আট পয়সা। অর্থাৎ দুই টাকা ৮৬ পয়সা ইপিএস বৃদ্ধি দেখানো হয়।

সব মিলিয়ে ২০২১-২২ অর্থবছরের তিন প্রান্তিক অর্থাৎ ২০২১ সালের জুলাই থেকে ২০২২ সালের মার্চ পর্যন্ত সময়ে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১১ টাকা ৫৯ পয়সা। যেখানে আগের বছরের একই সময়ে ইপিএস ছিল দুই টাকা ৮৩ পয়সা। অর্থাৎ আট দশমিক ৭৬ পয়সা ইপিএস বেড়েছে। ফলে মুনাফা বাড়ল প্রায় পাঁচ গুণ।

আরও পড়ুন : বাজেটের আগেই বাড়ল সিগারেটের দাম

জানতে চাইলে প্রতিষ্ঠানটির সচিব আশরাফ হোসেন গণমাধ্যমকে বলেন, আন্তর্জাতিকভাবে শিপিং সেক্টরে জাহাজ ভাড়া অনেক বৃদ্ধি পাওয়ায় দ্বিতীয় প্রান্তিকের মতোই তৃতীয় প্রান্তিকে নিট মুনাফা অনেকাংশে বেড়েছে। ফলে ২০২১-২২ অর্থবছরের তৃতীয় প্রান্তিকেও বিএসসির শেয়ারপ্রতি আয় গত অর্থবছরের তুলনায় বৃদ্ধি পেয়েছে।

এ দিকে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় বৃদ্ধি পেলেও কোম্পানিটির শেয়ারের দাম হ্রাস পেয়েছে। গত ২৬ এপ্রিল শেয়ারটির দাম ছিল ১২৪ টাকা ৫০ পয়সা। মূলত সেখান থেকে ১১ টাকা ৫০ পয়সা কমে বুধবার (২৫ মে) লেনদেন হয়েছিল ১১৩ টাকা।

প্রতিষ্ঠানটি শেয়ার হোল্ডারদের সর্বশেষ ২০২১ সালে ১২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছে। এর আগের বছর ২০২০ সালে শেয়ারহোল্ডারদের ১০ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ প্রদান করেছিল। কোম্পানিটির মোট শেয়ার সংখ্যা ১৫ কোটি ২৫ লাখ ৩৫ হাজার ৪০টি।

আরও পড়ুন : সারা দেশে বৃষ্টির পূর্বাভাস

এর মধ্যে সরকারের হাতে রয়েছে- কোম্পানির ৫২ দশমিক ১০ শতাংশ শেয়ার। আর প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের হাতে রয়েছে ২৪ দশমিক ৩০ শতাংশ শেয়ার। এছাড়া সাধারণ বিনিয়োগকারীদের হাতে রয়েছে ২৩ দশমিক ৬০ শতাংশ শেয়ার।

ওডি/কেএইচআর

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড