• মঙ্গলবার, ০৯ আগস্ট ২০২২, ২৫ শ্রাবণ ১৪২৯  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

অপরিহার্য পণ্যের কারখানা চালু রাখতে চায় সরকার

  অর্থ-বাণিজ্য ডেস্ক

২৮ মার্চ ২০২০, ০৯:০২
কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন অধিদপ্তর
কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন অধিদপ্তর (ছবি : সংগৃহীত)

করোনা ভাইরাসের কারণে দেশে সব কারখানা বন্ধে মালিক পক্ষের ঘোষণার পর ভিন্ন বার্তা দিয়েছে সরকার। করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে অপরিহার্য পণ্য উৎপাদনকারী কারখানা চালু রাখতে চায় সরকার। প্রইয়োজনে স্বাস্থ্য নিরাপত্তা সঠিকভাবে মেনে মালিকরা এ সময়ে অপরিহার্য কলকারখানা চালু রাখতে পারবে।

শুক্রবার (২৭ মার্চ) সরকারের কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন অধিদপ্তরের জারি করা মহাপরিদর্শক স্বাক্ষরিত এক পত্র মালিক ও শ্রমিক সংগঠনকে পাঠানো হয়।

অপরিহার্য পণ্যগুলো হলো- পারসোনাল প্রোটেকটিভ ইকুইপমেন্ট (পিপিই), মাস্ক , হ্যান্ড গ্লাভস, হ্যান্ড ওয়াস/স্যানিটাইজার, ওষুধ ইত্যাদি। একইসঙ্গে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর এবং রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের (আইডিসিআর) জারি করা স্বাস্থ্য নিরাপত্তা নির্দেশিকা কঠোরভাবে প্রতিপালন সাপেক্ষে মালিকরা প্রয়োজনবোধে বর্ণিত কলকারখানা চালু রাখতে পারবে।

এতে বলা হয়, শিল্প কারখানা বন্ধের বিষয়ে কিছু প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় বিভিন্নমূখী বক্তব্য প্রচারিত হচ্ছে। এতে করে কারখানা মালিকরা শিল্প কারখানা চালু রাখার বিষয়ে দ্বিধাগ্রস্ত হয়ে পড়েছেন। যেসব রপ্তানিমুখী শিল্পপ্রতিষ্ঠানে আন্তর্জাতিক ক্রয় আদেশ বহাল রয়েছে এবং করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে জরুরি অপরিহার্য পণ্য পারসোনাল প্রোটেকটিভ ইকুইপমেন্ট (পিপিই), মাস্ক , হ্যান্ড গ্লাভস, হ্যান্ড ওয়াস/স্যানিটাইজার, ওষুধ ইত্যাদির উৎপাদন কার্যক্রম চলমান রয়েছে।

আরও পড়ুন: গার্মেন্টস কারখানা বন্ধে বিজিএমইএ'র চিঠি

এ সব কলকারখানা বন্ধের বিযয়ে সরকার কোনো নির্দেশনা দেয়নি। স্বাস্থ্য অধিদপ্তর এবং আইডিসিআরের জারি করা স্বাস্থ্য নিরাপত্তা নির্দেশিকা কঠোরভাবে প্রতিপালন সাপেক্ষে মালিকরা প্রয়োজনবোধে বর্ণিত কলকারখানা সচল রাখতে পারবেন।

ওডি/

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো. তাজবীর হোসাইন  

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড