• মঙ্গলবার, ১২ নভেম্বর ২০১৯, ২৮ কার্তিক ১৪২৬  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

শতাধিক পরীক্ষার্থীকে হল থেকে বের করে দিলেন অধ্যক্ষ

  সোনারগাঁও প্রতিনিধি, নারায়ণগঞ্জ

২১ অক্টোবর ২০১৯, ২১:২২
জিআর ইন্সটিটিউশন স্কুল এন্ড কলেজ
সোনারগাঁ জিআর ইন্সটিটিউশন স্কুল এন্ড কলেজ (ছবি : দৈনিক অধিকার)

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ জিআর ইন্সটিটিউশন স্কুল এন্ড কলেজ থেকে ১০৯ জন পরীক্ষার্থীকে হল থেকে বের করে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। বকেয়া বেতন পরিশোধ না করায় ওই পরীক্ষার্থীদেরকে হল থেকে বের করে দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ উঠে অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে। 

এ ঘটনা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হলে হল থেকে বের করে দেওয়া পরীক্ষার্থীর অভিভাবকরা ও স্থানীয় কাউন্সিলর প্রতিষ্ঠানে ছুটে আসেন। পরে তারা অধ্যক্ষকে বকেয়া বেতন পরিশোধ করার প্রতিশ্রুতি দিলে পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা দিতে দেন অধ্যক্ষ।

জানা গেছে, আগামী-২০ সালের এসএসসি পরীক্ষার টেস্ট পরীক্ষা গত মঙ্গলবার (১৫ অক্টোবর) থেকে শুরু হয়। এতে প্রতিষ্ঠানটিতে তিনটি বিভাগে মোট ২৭৬ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। প্রতিদিনের ন্যায় সোমবার (২১ অক্টোবর) সকাল ১০টায় বাংলা দ্বিতীয়পত্র পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হলে প্রবেশ করে পরীক্ষার্থীরা। এ সময় প্রতিষ্ঠানটির অধ্যক্ষ শিক্ষকদের নির্দেশ দেন যাদের বেতন বকেয়া আছে তাদের পরীক্ষার খাতা না দিয়ে হল থেকে বের করে দিতে। অধ্যক্ষের এ আদেশে বাধ্য হয়ে শিক্ষকরা মানবিক বিভাগের ২৯ জন, বাণিজ্য বিভাগে ৪২ জন ও বিজ্ঞান বিভাগে ১৬ জন পরীক্ষার্থীকে খাতা না দিয়ে হল থেকে বের করে দেন।  

এ খবর প্রতিষ্ঠানের অন্য ক্লাসের শিক্ষার্থীরা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে পোস্ট দিলে কয়েক মিনিটের মধ্যে ভাইরাল হয়ে যায়। ফেসবুকে পরীক্ষার্থীদের হল থেকে বের করে দেওয়ার খবর পেয়ে বিদ্যালয়ে ছুটে আসেন স্থানীয় কাউন্সিলর ও প্রতিষ্ঠানটির অভিভাবক কমিটির সদস্য দুলাল মিয়া ও পরীক্ষার্থীর অভিভাবকরা। তারা অধ্যক্ষের রুমে গিয়ে দুই-একদিনের মধ্যে পরীক্ষার্থীদের বেতন পরিশোধ করবে বলে অঙ্গীকার করলে অধ্যক্ষ তাদের পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে দেন। 

নাম না প্রকাশ করা শর্তে শিক্ষার্থীরা জানান, আমাদের কয়েক মাসের বেতন বকেয়া রয়েছে। আমরা বলেছি আসতে আসতে পরিশোধ করে দিয়ে দিব তারপর স্যার আমাদের পরীক্ষার খাতা না দিয়ে হল থেকে বের করে দেন। আমরা অনুরোধ জানালেও তিনি আমাদের কোনো কথা শুনতে রাজি হননি।

এ ব্যাপারে কাউন্সিলর দুলাল জানান, পরীক্ষার্থীদের বকেয়া বেতন পরিশোধ না করার খাতা না দিয়ে হল থেকে বের করে দিয়েছে। এ খবর শুনে আমি দ্রুত বিদ্যালয়ে গিয়ে অধ্যক্ষকে অনুরোধ করি বেতনের জন্য পরীক্ষার্থীরা পরীক্ষা দিতে না পারলে তাদের জীবনটা নষ্ট হয়ে যাবে। আমি কথা দিলাম পরীক্ষার্থীরা বেতন না পরিশোধ করলে আমি পরিশোধ করবো বলে অনুরোধ করলে তিনি তাদের পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে দেন।

এ ব্যাপারে সোনারগাঁ জিআর ইন্সটিটিউশন স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ সুলতান মিয়া জানান, আমি আজ প্রতিষ্ঠানে ছিলাম না। আমার পরিবর্তে বিদ্যালয়ের দায়িত্ব ছিল সহকারী অধ্যক্ষ এখলাস স্যার। তিনি বলতে পারবেন কি হয়েছে বিদ্যালয়ে। তবে আমি জানি শিক্ষার্থীরা অনেক দিন যাবত বেতন পরিশোধ করছে না এ অবস্থায় তারা পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেছে। সে জন্য হয়ত তাদের হল থেকে বের করে দেওয়া হয়েছে।  

ওডি/এএসএল

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড