• মঙ্গলবার, ১২ নভেম্বর ২০১৯, ২৮ কার্তিক ১৪২৬  |   ২৭ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

১৪ দিনের শিশুকে পুকুরের পানিতে ফেলে দিল ঘাতক মা

  মাদারীপুর প্রতিনিধি

১৪ অক্টোবর ২০১৯, ০২:১৭
হত্যা
নবজাতককে পুকুরে ফেলে হত্যাকারী মা (ছবি : দৈনিক অধিকার)

মাদারীপুরের কালকিনি পৌর এলাকার দক্ষিণ ঠেঙ্গামাড়া গ্রামের একটি পুকুর থেকে ১৪ দিনের জামিলা নামের এক নবজাতক কন্যা শিশুর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। তবে পুলিশের দাবি, শিশুটির মা ময়না আক্তার (২২) পানিতে ফেলে হত্যার কথা স্বীকার করেছেন। এ ঘটনায় ওই ঘাতক মাকে আটক করেছে পুলিশ।

রবিবার (১৩ অক্টোবর) বিকালে এ ঘটনাটি ঘটে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, দক্ষিণ ঠেঙ্গামাড়া গ্রামের সত্তার সরদারের ছেলে সুজন সরদার দীর্ঘদিন যাবত বিদেশ থাকেন। এ নিয়ে তাদের সংসারে স্বামী-স্ত্রীর সঙ্গে বিরোধ চলে আসছে। এর জের ধরে তার স্ত্রী ময়না আক্তার দুপুরে তার শিশু সন্তান জামিলাকে পরিবারের সকল সদস্যদের চোখ ফাঁকি দিয়ে ঘরের পাশের পুকুরে ফেলে দেন। পরে পরিবারের লোকজন ওই নবজাতকের লাশ দেখতে পান। এলাকাবাসী ঘটনাটি পুলিশকে জানায়। খবর পেয়ে কালকিনি থানা পুলিশ ওই শিশুটির মা-বাবাসহ পরিবারের অন্য সদস্যদের জিজ্ঞাসাবাদ করেন। এক পর্যায়ে মা ময়না তার শিশুটিকে পুকুরে ফেলে দিয়েছেন বলে পুলিশের কাছে স্বীকার করেন। এ ঘটনায় পুলিশ ওই ঘাতক মা ময়না আক্তারকে আটক করেন।

শিশুটির বাবা সুজন সরদার কান্নাজড়িত কণ্ঠে দৈনিক অধিকারকে বলেন, ‘আমার সংসারে কোনো অভাব নেই। আমার বউ কেন যে, এই ঘটনা ঘটাল জানি না। এখন আইনে যা হয় আমি তাতেই রাজি আছি।’

কালকিনি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মোফাজ্জেল হোসেন বলেন, নবজাতককে পুকুরের পানিতে ফেলে দেওয়ার কথা শিশুটির মা ময়না স্বীকার করেছেন। তাকে আটক করা হয়েছে। তবে কেন হত্যা করেছেন, সে বিষয়ে তিনি মুখ খুলছেন না। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। এ ব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

ওডি/টিএএফ

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড