• বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯, ১ কার্তিক ১৪২৬  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

ফুটবল খেলা নিয়ে গোলাগুলি, নারী ও শিশুসহ আহত ১৫

  পাবনা প্রতিনিধি

১১ অক্টোবর ২০১৯, ২০:০২
হাসপাতাল
পাবনা জেনারেল হাসপাতাল (ছবি : দৈনিক অধিকার)

ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের সংঘর্ষে পাবনার সদর উপজেলায় ১০ জন গুলিবিদ্ধসহ কমপক্ষে ১৫ জন আহত হয়েছেন। গুলিবিদ্ধদের মধ্যে তিনজন নারী ও একটি শিশু রয়েছে।

শুক্রবার (১১ অক্টোবর) বেলা ১২টার দিকে উপজেলার চরঘোষপুরে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। 

এ ঘটনার পর থেকে ওই এলাকায় চাপা উত্তেজনা বিরাজ করছে। পাশাপাশি পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে সেখানে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, স্থানীয় কাটু (৪৫) ও কাইয়ুম (৫০) গ্রুপের লোকজন শুক্রবার সদর উপজেলার চরঘোষপুর মধ্যপাড়ায় একটি মাঠে ফুটবল খেলছিল। এক পর্যায়ে খেলা নিয়ে দুই গ্রুপের ছেলেদের মধ্যে কথা কাটাকাটি ও হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এরই জেরে ওই দুই গ্রুপের মধ্যে দেশীয় ধারালো অস্ত্র ও আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ে ব্যাপক সংঘর্ষ হয়। প্রায় ঘণ্টাব্যাপী চলা এ সংঘর্ষে গোলাগুলিতে ১০ জনসহ কমপক্ষে ১৫ জন আহত হয়। পরে স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে।

ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে পাবনা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নাসিম আহম্মেদ জানান, ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হওয়া বেশ কয়েকজনকে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। 

এখন পর্যন্ত এ ব্যাপারে কোনো পক্ষই থানায় মামলা করেনি উল্লেখ তিনি বলেন, ঘটনাস্থল থেকে মুকুল (৩২) ও হাবিব (৪২) নামে দুইজনকে আটক করা হয়েছে। আটককৃতরা কাইয়ুম গ্রুপের সমর্থক বলেও জানান তিনি। 

এ দিকে, সংঘর্ষের খবর পেয়ে পাবনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (হেড কোয়াটার) ফিরোজ কবির এবং সদর থানার ওসি নাসিম আহম্মেদ ইতোমধ্যেই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

ওডি/আইএইচএন

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড