• বুধবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৯, ১ কার্তিক ১৪২৬  |   ২৬ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

শিক্ষক বাবার ছেলে মনিরেরও বিচার চায় অসুস্থ মা

  সুবল রায়, দিনাজপুর

১০ অক্টোবর ২০১৯, ১৬:৫৩
মনিরুজ্জামান মনিরের বাড়ি
ফাহাদ হত্যা মামলার আসামি মনিরুজ্জামান মনিরের বাড়ি ( ছবি : দৈনিক অধিকার )

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র আবরার ফাহাদ হত্যা মামলায় গ্রেফতার মনিরুজ্জামান মনির বাড়ির লোকজন আতঙ্কে আত্মগোপনে রয়েছে। তাদের বাড়িতে কাউকে পাওয়া না গেলেও অসুস্থ অবস্থায় পাওয়া যায় মনিরের মা এলিজা খাতুনকে। 

প্রতিবেশীরা বলছে, আবরার ফাহাদ হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় যেই জড়িত থাকুক তদন্ত করে আসল অপরাধীদের ধরে আইনের আওতায় এনে বিচার করতে হবে।

সরেজমিনে গিয়ে জানা যায়, দিনাজপুরের বীরগঞ্জ উপজেলার ভগীরপাড়া গ্রামে মাহাতাব আলী ও এলিজা খাতুন দম্পতির ছেলে মনিরুজ্জামান মনির। বাবা মাহাতাব আলী মোহনপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক। মনির এলাকার পূর্ব জোত রুঘু সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পড়া শেষ করে দিনাজপুর জেলা স্কুল থেকে পাস করে। পরে সৈয়দপুর ক্যান্ট পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজে পড়াশোনা শেষ করে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বুয়েট) ভর্তি হয়। 

আবরার ফাহাদ হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে গ্রেফতার মনির জড়িত নয় বলে সাফ জানিয়ে দেন তার মা এলিজা খাতুন। সুষ্ঠু তদন্ত করে আসল অপরাধীকে ধরে বিচারের আওতায় আনার কথাও জানান তিনি। 

মনিরের মা জানান, আমার ছেলেও যদি এই হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে সম্পৃক্ত থাকে তাহলে আমিও তার বিচার চাই। আর যেন কোনো মায়ের কোল এভাবে খালি না হয়। সরকারের কাছে দাবি জানিয়ে তিনি আরও বলেন, এ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতার করে অবিলম্বে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করা হোক।  

ভগীরপাড়া ফরিৎপুর দ্বি-মুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. শামসুল হক জানান, মেধাবী ছেলে মনির আজকে কুচক্রী মহলের ইশারায় হারিয়ে যাচ্ছে। সে যেন অপশক্তির কাছে হারিয়ে না যায় তা খেয়াল রাখতে হবে। সরকার সঠিক তদন্ত করে ব্যবস্থা নেবেন বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি। 

মোহনপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. মোজিদুল ইসলাম জানান, মনিরের বাবা আওয়ামী লীগের ইউনিয়ন কমিটির সভাপতি পদে দীর্ঘদিন ধরে দায়িত্ব পালন করে আসছেন। মনির সে রাজনীতির সঙ্গে জড়িত কি-না তা আমার বোধগম্য নয়। তবে সে যদি অপরাধ করে থাকে তাহলে অবশ্যই ভালোভাবে তদন্ত করে বিচারের আওতায় আনতে হবে। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত মনির বাড়িতে তার বাবাকে খুঁজে পাওয়া যায়নি।

উল্লেখ্য, গত ৬ অক্টোবর রাতে বুয়েটের শেরে বাংলা হলে মেধাবী ছাত্র আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়। নিহত ফাহাদ কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার রায়ডাঙ্গা গ্রামের বরকত উল্লাহ ছেলে। ওই ঘটনায় পর সন্তানকে হত্যার ঘটনায় ১৯ জনকে আসামি করে সোমবার (৭ অক্টোবর) চকবাজার থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন ফাহাদের বাবা বরকত উল্লাহ। এ মামলায় মনিরুজ্জামান মনিরকে গ্রেফতার করা হয়। 

ওডি/এসএএফ 

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড