• বুধবার, ০১ এপ্রিল ২০২০, ১৮ চৈত্র ১৪২৬  |   ৩৫ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

মাদক চোরাকারবারির হামলায় ৪ পুলিশ আহত

  রাজশাহী প্রতিনিধি

০৭ অক্টোবর ২০১৯, ০৫:১৪
হামলা
পুলিশের ওপর আক্রমণ (ছবি : ফাইল ফটো)

রাজশাহীর বাঘা উপজেলার সীমান্তবর্তী একটি এলাকায় মাদক চোরাকারবারির বিরুদ্ধে অভিযানে নেমে পুলিশের চার সদস্য আক্রমণের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ সময় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ গুলি ছুঁড়তে বাধ্য হয়। রবিবার (৬ অক্টোবর) সন্ধ্যায় এ ঘটনায় স্থানীয় মাদক ব্যবসায়ী মিলন গুলিবিদ্ধ হন।

এ তথ্য নিশ্চিত করে রাজশাহী জেলা পুলিশের মুখপাত্র ইফতেখায়ের আলম জানান, গ্রেফতার এড়াতে মাদক ব্যবসায়ী মিলন স্থানীয় এক বাসিন্দাসহ পুলিশের চার সদস্যকে হাসুয়া দিয়ে কুপিয়েছে। ঘটনার পর গুলিবিদ্ধ মাদক ব্যবসায়ীসহ আহত পুলিশ সদস্য ও স্থানীয় বাসিন্দাকে চারঘাট উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্র ভর্তি করা হয়েছে। তিনি আরও জানান, গুলিবিদ্ধ মিলন এখন শঙ্কামুক্ত।

মিলনের হামলায় আহতরা হলেন- বাঘা থানার এসআই লুৎফর রহমান, এএসআই নুরনবী, এএসআই মাসুদ ইকবাল, এএসআই রেজাউল করিম ও পুলিশের সোর্স শরিফ আহাম্মেদ (৪৫)।

এলাকাবাসীর দেয়া তথ্যমতে, বাঘা উপজেলার সীমান্তবর্তী ভানুকর গ্রামের নুরুল ইসলামের ছেলে রিপন হোসেনের (৩৫) বাড়িতে একই গ্রামের মাসুম হোসেনের ছেলে মিলন হোসেন (৩২) একটি বস্তায় করে ফেনসিডিলের চালান বুঝিয়ে দেওয়ার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছিল। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বাঘা থানার ওসি তদন্ত আতিকুর রহমান সঙ্গীয় ফোর্সসহ ওই বাড়িতে অভিযান চালায়। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে বাড়ির মালিক রিপন হোসেন পালিয়ে যায়।

তবে মিলন হোসেন পালাতে না পেরে ওই বাড়ির ঘরের মধ্যে লুকিয়ে পড়ে। ঘটনার এক পর্যায় পুলিশ মিলন হোসেনকে গ্রেফতার করতে গেলে সে তার কাছে থাকা বড় একটি ধারালো হাসুয়া দিয়ে পুলিশের উপর আক্রমণ করে। পুলিশের সদস্যরা ঘরের দরজা বন্ধ করে দেয়। পরবর্তীতে চারঘাট সার্কেলের এএসপি নুরে আলমের নেতৃত্বে অতিরিক্ত পুলিশ এসে ঘরে থাকা মিলনকে আত্মসমর্পণ করতে বলে। এ সময় অভিযুক্ত মিলন পুলিশের উপর আবারও হামলা করে।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ আক্রমণকারী মিলনের পায়ে গুলি ছুঁড়ে তাকে গ্রেফতার করে। এ সময় ওই বাড়ি থেকে এক বস্তা ফেনসিডিল জব্দ করা হয়। এরপর আহত ৬ জনকে প্রথমে পার্শ্ববর্তী চারঘাট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে মিলনকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে রেফার্ড করেন কর্তব্যরত চিকিৎসক মাহাবুল আলম।

বাঘা থানা ওসি নজরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, মিলন হোসেন প্রশাসনের তালিকাভুক্ত মাদক ব্যবসায়ী। সে ফেনসিডিল চালান দেওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছিল এ সময় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তার বাড়িতে অভিযান পরিচালনা করা হয় এবং একটি বস্তায় ৮০ বোতল ফেনসিডিল উদ্ধার করা হয়।

এ ঘটনায় স্থানীয় এক ব্যক্তিসহ চার পুলিশ আহত হয়েছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে পুলিশ কয়েক রাউন্ড গুলি ছুঁড়লে মিলন গুলিবিদ্ধ হয়। আহতদের পার্শ্ববর্তী চারঘাট উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ভর্তি করা হয়েছে।

ওডি/টিএএফ

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড