• বৃহস্পতিবার, ১২ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬  |   ১৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

সাভারে গৃহবধূর মৃত্যু নিয়ে রহস্য

  সাভার প্রতিনিধি

১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২২:৫২
হাসপাতাল
সাভার এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল (ছবি : সংগৃহীত)

সাভারে কঙ্কন রানী দাস (২৯) নামে এক গৃহবধূর মৃত্যু নিয়ে রহস্যের সৃষ্টি হয়েছে। নিহতের পরিবারের সদস্যরা দাবি করছেন, নির্যাতন করে বিষ খাওয়ানো হয়েছে কঙ্কন রানীকে।

পুলিশ নিহতের মরদেহ উদ্ধার করেছে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করেছে।

শুক্রবার (১৩ সেপ্টেম্বর) দুপুরে সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ওই গৃহবধূর মৃত্যু হয়। এ দিকে, স্ত্রী মারা যাওয়ার পর থেকেই পলাতক রয়েছে স্বামী শুকান্ত।

নিহতের পরিবারের বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, বিয়ের পর থেকে কঙ্কন ও স্বামী শুকান্তর মধ্যে পারিবারিক কলহের জেরে প্রায় সময় ঝগড়া হতো। ঝগড়ার সময় মাঝে-মধ্যেই শুকান্ত তার স্ত্রী কঙ্কনকে মারধর করতেন। গত রবিবার (৮ সেপ্টেম্বর) ওই দম্পতির মধ্যে পুনরায় ঝগড়া বাধে। সেই ঝগড়ার জেরে স্বামী শুকান্ত তার স্ত্রী কঙ্কনকে এলোপাতাড়িভাবে মারধর করেন। এতে কঙ্কন রানী গুরুতর আহত হয়।

এ ঘটনার পর হঠাৎ কঙ্কন রানী বিষ খেয়েছে বলে জানান তার স্বামী শুকান্ত। পরে তাকে গুরুতর অবস্থায় উদ্ধার করে সাভার এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নেওয়া হয়। পরে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শুক্রবার দুপুরে কঙ্কন রানীর মৃত্যু হয়।

এ দিকে, নিহতের বাবা কালিপদ দাস অভিযোগ করে বলেন, আমার মেয়েকে নির্যাতন করে বিষ দিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

লাশ উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করে সাভার মডেল থানার উপপরিদর্শক (এসআই) নাজমুল হক জানান, পারিবারিক কলহের জেরে ওই গৃহবধূ বিষপানে আত্মহত্যা করে থাকতে পারে। তবে, ওই গৃহবধূর শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, ময়না তদন্তের প্রতিবেদন পেলে নিশ্চিত হওয়া যাবে এটা হত্যা না আত্মহত্যা।

ওডি/আইএইচএন

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন সজীব 

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড