• শুক্রবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৫ আশ্বিন ১৪২৬  |   ৩৩ °সে
  • বেটা ভার্সন

রামপালে দপ্তরির বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ

  বাগেরহাট প্রতিনিধি

১০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৩:০৫
বাগেরহাট
ছবি : প্রতীকী

বাগেরহাটের রামপাল উপজেলার তালবুনিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দপ্তরি কাম নৈশ প্রহরী মো. ফরিদ আকুঞ্জির বিরুদ্ধে যৌন হয়রানিসহ নানা অভিযোগ উঠেছে।

এ ঘটনায় এলাকাবাসী ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের কাছে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। একই সাথে তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নিতে জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাসহ থানা পুলিশকে অবহিত করেছেন।

এলাকাবাসীর গণ স্বাক্ষরিত অভিযোগে থেকে জানা গেছে, উপজেলার তালবুনিয়া গ্রামের সাহেব আলী আকুঞ্জির ছেলে ফরিদ আকুঞ্জি তালবুনিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দপ্তরির চাকরির আড়ালে বিদ্যালয়ের কোমল মতি শিক্ষার্থীদের বিভিন্ন সময় যৌন হয়রানি করে আসছে। সর্বশেষ, ২ আগস্ট সন্ধ্যা সাড়ে সাতটার সময় বিদ্যালয়ের ছাদে মানসিক ভারসাম্যহীন এক কিশোরকে বলৎকার করার সময় এলাকাবাসী হাতে নাতে ধরে ফেলে।

পরে সে বিবস্ত্র অবস্থায় পালিয়ে যায়। এরপরও তার বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা না নেওয়ায় এলাকাবাসী বাধ্য হয়ে লিখিত অভিযোগ দিয়েছে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আবুল কাশেম বলেন, ফরিদের বিরুদ্ধে এর আগেও স্কুলের শিক্ষার্থীদের যৌন হয়রানির অভিযোগ ছিল। তার কাছ থেকে পরিত্রাণ পাওয়ার জন্য এলাকাবাসী যে আবেদন করেছে আমরা চাই ওই আবেদনের প্রেক্ষিতে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হোক।

তালবুনিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হাসমা খানম বলেন, দপ্তরির বিরুদ্ধে যে অভিযোগ পেয়েছি। সে বিষয়টি নিরসন করতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা বরাবর লিখিত আবেদন করব। যাতে তারা বিষয়টি তদন্ত পূর্বক সঠিক ব্যবস্থা গ্রহণ করেন।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত মো. ফরিদ আকুঞ্জি বলেন, আমি অনেক বছর ধরে চাকরি করছি। আমি এ ধরনের কোনো অপরাধ করিনি।

ওডি/এমবি

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড