• বৃহস্পতিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৪ আশ্বিন ১৪২৬  |   ৩০ °সে
  • বেটা ভার্সন

রাঙ্গামাটি জজ কোর্ট

বিচারক সঙ্কটে জট লেগেছে প্রায় ১০ হাজার মামলা

  রাঙ্গামাটি প্রতিনিধি

২৪ আগস্ট ২০১৯, ১৬:২৯
আদালত
রাঙ্গামাটি জেলা ও দায়রা জজ আদালত ভবন (ছবি : দৈনিক অধিকার)

রাঙ্গামাটি জেলা ও দায়রা জজ আদালতে বিচারকের পদটি শূন্য প্রায় দেড় মাস। বিচার কার্য পরিচালনার জন্য আদালতে বিচারক না থাকায় বঞ্চিত হচ্ছেন বিচার প্রার্থীরা। ফলে কোর্টে বিচারক সঙ্কটে প্রায় ১০ হাজার মামলা জট লেগে আছে।

শনিবার (২৪ আগস্ট) সরেজমিন ঘুরে দেখা যায়, জজের সন্ধানে এসে বিচার প্রার্থীরা জজ কোর্টে ঘুরে বেড়ান। আবার জজ না থাকায় অনেক বিচার প্রার্থীই রয়েছেন জেলে। যারা শুধু প্রহর গুনছেন কখন আসবে জজ সাহেব। 

জানা যায়, ২০০৮ সালে রাঙ্গামাটিতে জেলা ও দায়রা জজ আদালত প্রতিষ্ঠার পর থেকে বিচারক সঙ্কট ছিল নিত্য ঘটনা। বর্তমানে জেলা ও দায়রা জজের পদটি শূন্য পড়ে আছে প্রায় দেড় মাস। জজের অনুপস্থিতিতে যেসব বিচারক বিচার কার্য পরিচালনা করেন সেসব পদেও কোনো বিচারক না থাকায় আদালতের সকল বিচারিক কার্যক্রম এখন বন্ধ। ফলে বিচার প্রার্থীরা বিচার থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন। 

তিনজন বিচার প্রার্থী বলেন, জজ না থাকায় বিচার কার্যক্রমে স্থবিরতা দেখা দিয়েছে। তারা বলেন, বিচার প্রার্থীরা মারা যাচ্ছেন তবুও বিচার কাজ শেষ হচ্ছে না। বিকল্প বিচারক না থাকায় বিচার প্রার্থীরা ন্যায় বিচার থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন। 

বিচার প্রার্থী নাজমা আক্তার জানান, তার বৃদ্ধ বাবা মিথ্যা ধর্ষণ মামলার আসামি হয়ে প্রায় এক মাস ধরে জেল হাজতে রয়েছেন। জজ সাহেব না থাকায় তার বৃদ্ধ বাবাকে বের করতে পারছেন না তিনি। এভাবে অনেক নিরীহ গরিব মানুষ মিথ্যা মামলায় জেলে রয়েছেন বলেও উল্লেখ করেন তিনি। 

একটি বিশ্বস্ত সূত্রে জানা গেছে, জেলায় আদালত প্রতিষ্ঠার আগে ও পরে একাধিক চাঞ্চল্যকর ঘটনায় মামলা হলেও বিচারক সঙ্কটের কারণে সেসব মামলাগুলোর নিষ্পত্তি হয়নি। ফলে বিচার ব্যবস্থার প্রতি ক্রমাগত আস্থা হারাচ্ছেন মানুষ। আদালতের আইনজীবীরাও একথা বলছেন। তারা বলেন, যেসব জজ সাহেবদের অবসরে যাওয়ার বয়স হয়ে এসেছে এমন বিচারককে এখানে নিয়োগ দেওয়া হয়। এতে তারা বড় কোনো মামলায় হাত দেন না। এ জন্য বড় মামলাগুলো নিষ্পত্তির জন্য সরকারকে ভাবতে হবে। এ সময় যেসব বিচারকের বয়স আছে এবং দীর্ঘদিন চাকরির মেয়াদ রয়েছে সেসব বিচারককে জজ হিসেবে নিয়োগ দিতে জোর দাবি জানান আইনজীবীরা।

এ দিকে, জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক উথৈয়াইমং মারমা বলেন, বার বার দাবি জানানোর পরও জেলায় নিয়োগ দেওয়া হচ্ছে না বিচারক। ফলে প্রতি নিয়ত আদালতে মামলার জট বাড়ছে। এ জট কমানোর জন্য দ্রুত একজন দক্ষ ও মেধাবী জজসহ একাধিক বিচারক নিয়োগের দাবি করেন আইনজীবী সমিতির ওই নেতা। তিনি আরও বলেন, বর্তমানে জজ কোর্টে প্রায় ১০ হাজার মামলা জট লেগে আছে। এ ব্যাপারে জেলা আইনজীবী সমিতির পক্ষ থেকে দ্রুত জজ নিয়োগের দাবি তুলে মাননীয় আইনমন্ত্রী ও মাননীয় প্রধান বিচারপতির বরাবরে লিখিত আবেদন দেওয়া হয়েছে।

রাঙ্গামাটি জেলা ও দায়রা জজ আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) অ্যাডভোকেট রফিকুল ইসলাম আদালতে বিচারক সঙ্কট ও  মামলার জট বাড়ার কথা স্বীকার করে তা নিরসনের জন্য দ্রুত ব্যবস্থা নিতে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেন। তিনি বলেন, সাধারণ মানুষ আইনের সেবা না পেলে সরকারের বদনাম হয়। বর্তমানে আদালতে বিচারাধীন মামলার সংখ্যা প্রায় দশ হাজার ছাড়িয়ে যাচ্ছে। এ সময় দ্রুত জেলা জজ নিয়োগের পাশাপাশি অতিরিক্ত জেলা জজসহ একাধিক যুগ্ম জেলা জজ নিয়োগ দেওয়া না হলে মামলার জট কমানো কষ্টসাধ্য হয়ে পড়বে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

ওডি/আইএইচএন

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড