• বৃহস্পতিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০১৯, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৬  |   ২২ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

সংযোগ সড়কের অভাবে ৫৪ লাখ টাকার সেতু অচল

  মনিরুজ্জামান, নরসিংদী

১৬ জুলাই ২০১৯, ১০:২৪
সেতু
সংযোগ সড়ক ছাড়া পুরাতন ব্রহ্মপুত্র নদীর ওপর নির্মিত সেতু ( ছবি : দৈনিক অধিকার)

সংযোগ সড়কের অভাবে প্রায় ৫৪ লাখ টাকা ব্যয়ে পুরাতন ব্রহ্মপুত্র নদীর উপর নির্মিত সেতুটি প্রায় দুই বছর ধরে সাধারণ মানুষের চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়ে আছে। সেতুতে সংযোগ সড়ক না থাকায় ঢাল বেয়ে অনেক কষ্ট করে পায়ে হেঁটে চলাচল করছেন কয়েক হাজার মানুষ। 

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদপ্তর কর্তৃক বাস্তবায়িত ব্রহ্মপুত্র নদীর ওপর প্রায় দুই বছর আগে একটি সেতু নির্মাণ করা হয়। এ উন্নয়ন কাজের উদ্বোধন করেন নরসিংদী-১ (সদর) আসনের বর্তমান সাংসদ ও তৎকালীন পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী লেফটেন্যান্ট কর্নেল মোহাম্মদ নজরুল ইসলাম হিরু। এ সেতু নির্মাণে এলাকাবাসীর বহু দিনের প্রত্যাশা পূরণ হয়। কিন্তু সেতুটির দুপাশে সংযোগ সড়ক না থাকায় ঢাল বেয়ে অনেক কষ্ট করে পায়ে হেঁটে চলাচল করেন কয়েক হাজার মানুষ। তাই যত দ্রুত সম্ভব এ সেতুর দুপাশের সংযোগ সড়ক দ্রুত নির্মাণ করার দাবি জানান স্থানীয়রা।

সরেজমিন গিয়ে দেখা যায়, নরসিংদী সদর উপজেলার শিলমান্দী ইউনিয়ন ও মেহেরপাড়া ইউনিয়নে যাতায়াত সুবিধার জন্য ২০১৬-২০১৭ অর্থ বছরের বরাদ্দে ব্রহ্মপুত্র নদের ওপর নির্মাণ করা হয় এ সেতুটি। তার নেমপ্লেটে দেখানো হয়েছে, বানিয়াদী খালের ওপর ৬০ দশমিক শূন্য শূন্য মিটার দৈর্ঘের এ সেতু নির্মাণ করা হয়। বরাদ্দের পরিমাণ ও চূড়ান্ত ব্যয় দেখানো হয়েছে ৫৪,০৪,৬৫০.৭০ টাকা।

স্থানীয়রা জানান, এ সেতু দিয়ে শিলমান্দী ও মেহেরপাড়া ইউনিয়নে যোগাযোগের সুবিধা থাকলেও সেতু বেয়ে পায়ে হাঁটা ছাড়া কোনো উপায় নেই। এছাড়া বৃদ্ধ ও রোগীদের চলাচল করতে অনেক অসুবিধায় পড়তে হয়। পুরাতন ব্রহ্মপুত্র নদীর ওপর সেতুটি নির্মাণ হলেও দুপাশে সংযোগ সড়ক নির্মাণ না হওয়ায় এলাকাবাসী ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

এ বিষয়ে শিলমান্দী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল বাকি জানান, আগামী ছয় মাসের মধ্যে সেতুটিকে যান চলাচলের উপযোগী করা হবে। ব্রহ্মপুত্র নদীর ওপর নির্মিত সেতুর নেমপ্লেটে খালের ওপর নির্মিত সেতু লেখার কারণ কি? এ প্রশ্নের জবাবে তিনি কিছুটা বিব্রত বোধ করে বলেন, আমি এ ব্যাপারে বলতে পারব না। নরসিংদী জেলার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা জানেন নেমপ্লেটে কেন খালের নাম দেওয়া হয়েছে।

ওডি/ এফইউ

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন সজীব 

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড