• মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর ২০১৯, ৬ কার্তিক ১৪২৬  |   ২৬ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মসজিদের টাকা আত্মসাতের অভিযোগ

  নরসিংদী প্রতিনিধি

১৮ জুন ২০১৯, ১৫:৩৪
আত্মসাৎ
উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর দেওয়া অভিযোগপত্রের অনুলিপি ( ছবি : দৈনিক অধিকার)

নরসিংদীর কাঁঠালিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হারুন মোল্লার বিরুদ্ধে ১০টি মসজিদের জন্য বরাদ্দকৃত চার লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে।

ফজুর কান্দি জামে মসজিদের সভাপতি বাবুল সরকার অভিযোগ করে বলেন, ২০১৮-২০১৯ অর্থবছরে নরসিংদী সদর উপজেলার কাঁঠালিয়া ইউনিয়ন পরিষদের আওতাধীন ১০টি মসজিদের জন্য বিশেষ টিআর প্রকল্পের বরাদ্দের চার লাখ টাকার কোনো কাজ না করে এবং মসজিদ কমিটিকে না জানিয়ে টাকা উত্তোলন করেন কাঁঠালিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হারুন মোল্লা। পরে সেই বরাদ্দের টাকা চেয়ারম্যান ইউপি সদস্য মোহাম্মদ আলী, মো. আবুল হোসেন, মো. আব্দুল হামিদ, আব্দুল হাই এবং ইউপি সদস্য সচিবের যোগসাজশে আত্মসাৎ করেন।

প্রকল্পের আওতায় বরাদ্দকৃত মসজিদগুলো হলো- মৈশাদি ওহাবের বাড়ি জামে মসজিদ, খড়িয়া বাজার জামে মসজিদ, কাঁঠালিয়া ভূইয়া বাড়ি জামে মসজিদ, শ্যামরাকান্দি বাদলের বাড়ি নতুন মসজিদ, দস্তরদী বালুর বাড়ি জামে মসজিদ, ফজুর কান্দি বাবুলের এলাকা জামে মসজিদ, আব্দুল্লাহ কান্দি ঈদগা পাড়া জামে মসজিদ, দড়িকান্দি জামে মসজিদ, ডৌকাদী দেওয়ান পাড়া জামে মসজিদ ও নোয়াকান্দি হাফিজ মেম্বারের বাড়ি জামে মসজিদ। এই ১০টি মসজিদের প্রতিটির বিপরীতে ৪০ হাজার টাকা করে বরাদ্দ দেওয়া হয়।

অভিযোগকারী বাবুল আরও জানান, এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর অভিযোগপত্র দেওয়া হয়েছে। যার অনুলিপি নরসিংদী প্রেসক্লাব ও মাধবদী প্রেসক্লাবের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক বরাবর দেওয়া হয়েছে।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত চেয়ারম্যান হারুন মোল্লাকে একাধিকবার ফোন দিলেও তার মুঠোফোন বন্ধ পাওয়া গেছে।

 

ওডি/এসএএফইউ
 

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মো: তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড