• শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১১ ফাল্গুন ১৪৩০  |   ২০ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

এলাকা ছাড়তে বাধ্য হচ্ছে স্বতন্ত্র প্রার্থীর কর্মীরা

স্বতন্ত্র প্রার্থীর কর্মীর দরজা ভেঙ্গে ঘরে ঢুকে ছুঁড়ে ফেলা হয় ১৩ মাসের শিশুকে

  আনোয়ার পারভেজ, নাটোর

০৪ জানুয়ারি ২০২৪, ১৭:৪৬
নির্যাতন

'গভীর রাতে ঘরের দরজা ভেঙ্গে তুলে নিয়ে যখন নির্যাতন শুরু করা হয় তখন মনে হচ্ছিল আমি এই দুনিয়াতেই নেই। ততক্ষণে ওরা আমার ১৩ মাস বয়সী শিশু রাইয়ান ওরফে রাফিকেও তার মায়ের কোল থেকে কেড়ে নিয়ে ছুড়ে ফেলে বিছানার ওপর। অপরিচিত মুখোশধারীরা এ সময় প্রাণে মেরে ফেলার হুঙ্কার দিচ্ছিল আর কেউ কেউ বলছিল ঈগল প্রতীকের সাথে ঘুড়াঘুড়ির পরিনতি দেখ। অনেক আকুতি-মিনতি আর স্ত্রী ফারজানা আক্তার রিতু দুর্বৃত্তদের পা জড়িয়ে জান ভিক্ষা চাওয়ার পর এবারের মতো প্রাণে বেঁচে গেছি। তাই মনের দুঃখে গ্রাম ছেড়ে চলে যাচ্ছি। আর কোন দিন গ্রামে ফিরবো কি না বলতে পারছি না।'

নাটোরের সিংড়া শহরের উত্তর দমদমা শ্মশান ঘাট এলাকায় অটোগাড়িতে চড়ে গ্রাম ছেড়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় পথে কথাগুলো বলছিলেন চৌগ্রাম ইউনিয়নের সারদা নগর গ্রামের কম্পিউটার ও ফটোকপি ব্যবসায়ী সোহাগ হাসান ওরফে শাওন।

এলোপাতারি মারধরে তার একটি পা ভেঙ্গে গেছে। পরে নাটোর শহরের ট্রমা সেন্টারে এসে চিকিৎসা নিয়েছেন তিনি। মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১২ টায় তার ওপর ঘটে যাওয়া অমানবিক ঘটনার বর্ণনা দিচ্ছিলেন। এসময় তার অটোগাড়িতে সঙ্গী হয়ে গ্রাম ছাড়তে দেখা যায় তার স্ত্রী, সন্তান ও গর্ভধারিনী মা শরিফা বেগমকে। বিভিন্ন হামলার ঘটনায় স্বতন্ত্র প্রার্থীর প্রধান নির্বাচনী এজেন্ট কামরুল হাসান বাদী হয়ে বুধবার রাতে সিংড়া থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে স্বতন্ত্র প্রার্থী শফিকুল ইসলামের (ঈগল) প্রতীকের এজেন্ট মহিদুল ইসলাম নামের একজনকে হাতুড়ি পেটা করার অভিযোগ করা হয়েছে। উপজেলার বলিয়াবাড়ি-চানপুর এলাকায় কলম ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক সভাপতি রাব্বানীর নেতৃত্বে দশটি মোটরসাইকেল নিয়ে এসে তাকে হাতুড়িপেটা করা হয় বলে জানা গেছে। সে মির্জাপুর গ্রামের চান্দু মিয়ার ছেলে ও ৭ নম্বর ওয়ার্ডের ঈগল প্রতীকের এজেন্ট নির্বাচিত করা হয়েছিল। বর্তমানে তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

এ বিষয়ে ঈগল প্রতীকের প্রধান এজেন্ট কামরুল হাসান বলেন, প্রায় প্রতিটি ইউনিয়নেই তাদের কর্মীদের মারধর, এলাকা ছাড়ার জন্য হুমকি-ধামকি দেয়া হচ্ছে।

এদিকে সরেজমিন বেলা ১১ টায় সারদা নগর বাজারে গিয়ে নির্যাতনের শিকার যুবক শাওনের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান স্টার কম্পিউটার এন্ড ফটোষ্ট্যাট তালাবদ্ধ পাওয়া যায়। স্থানীয় কৃষক জাহাঙ্গীর আলমসহ অনেকে জানান, মঙ্গলবার রাত ১০ টায় ওই বাজারে স্বতন্ত্র ঈগল প্রতীকের প্রার্থী শফিকুল ইসলাম শফিক প্রচারণায় এসেছিলেন। আর এই প্রচারণায় প্রার্থীর সাথে ছিলেন শাওন। রাতেই শাওনের বাড়িতে ২০ থেকে ২৫ জন অপরিচিত লোকজন এসে তাকে মারধর করে গ্রাম ছাড়তে বলেছে। তার পিতা কৃষক ইদ্রীস আলী ছেলের নির্যাতনের ভয়াবহ বর্ণনা দেন এই প্রতিবেদকের কাছে।

তিনি জানান, রাতে ৪০ থেকে ৫০ জন এসে আশে পাশের সকল বাড়িতে বাহির থেকে শিকল দিয়ে তার ছেলের ওপর পাশবিক নির্যাতন চালিয়েছে। জীবন বাঁচাতে আহত অবস্থায় সে পরিবারসহ গ্রাম ছেড়েছেন। শাওনের শাশুড়ী নাসরিন শিল্পী বলেন, তার চোখের সামনে লাঠি দিয়ে তার জামাতাকে চরম মারধর করা হয়েছে। হামলাকারীদের হাতে চাইনিজ কুড়ালোসহ বিভিন্ন অস্ত্র ছিল।

এ দিকে মঙ্গলবার রাত ১০ টায় একই ইউনিয়নের (চৌগ্রাম) তেরবাড়িয়া গ্রামের ঈগল প্রতীকের কর্মী সাজ্জাদ প্রামাণিক ও তার ছেলে শামীম হোসেনকে বাড়িতে ঢুকে প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দিয়েছেন নৌকা মনোনিত প্রার্থী প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলকের কর্মী চৌগ্রাম ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি আসিফ নেওয়াজ আগুন ও ৭ নস্বর ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সভাপতি সাগর হোসেন। এসময় তাদের নেতৃত্বে ২০ থেকে ২৫ জন নৌকার কর্মী বাড়িতে তল্লাশিও চালান। রাতারাতি পালিয়ে জানে রক্ষা পান ঈগল প্রতীকের কর্মী সাজ্জাদ প্রামাণিক ও তার ছেলে শামীম হোসেন। তারা এখন পর্যন্ত এলাকা ছাড়া বলে তার পরিবার সূত্রে জানা গেছে। একই ইউনিয়নে কামার বড়িয়া গ্রামে মঙ্গলবার রাত ১২ টায় নৌকার কর্মীরা ঈগল প্রতীকের ৩ জন কর্মীকে মারধর করে গ্রাম ছাড়ার আল্টিমেটাম দিয়েছেন। এদের মধ্যে নির্যাতনের শিকার জিয়ারুল ও হাসান বুধবার সকালেই গ্রাম ছেড়ে ঢাকার উদ্দেশ্যে রওনা হয়েছেন বলে জানা গেছে। আর অপরজন হেলাল উদ্দিন নৌকার কর্মীদের সাথে যোগ দিয়ে রক্ষা পেয়েছেন।

স্বতন্ত্র (ঈগল) প্রতীকের প্রার্থী সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান শফিকুল ইসলাম শফিক বলেছেন, নির্বাচনের শেষ পর্যায়ে এসে প্রতিপক্ষ প্রার্থী জুনাইদ আহমেদ পলক বুঝতে পেরেছেন তাকে মানুষ প্রত্যাখান করেছে। তিনি পরাজয় নিশ্চিত হয়ে এখন ক্যাম্পেইন বাদ দিয়ে পুরো উপজেলায় সন্ত্রাসী দিয়ে মানুষকে নির্যাতন ও হুমকি-ধামকি দিতে শুরু করেছেন। মানুষকে আতঙ্কিত করাই তাদের লক্ষ্য।

নৌকার প্রার্থী তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেছেন, এই ধরণের কোনো হামলা, মারধর ও নির্যাতনের খবর তার জানা নেই। সিংড়ার মানুষ শান্তি প্রিয়। তাই শান্তিপূর্ণ ও উৎসবমূখর পরিবেশে এই আসনে ভোট অনুষ্ঠিত হবে।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড