• বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০  |   ২৪ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

টঙ্গীতে ১০ শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা, সত্যতা পায়নি পিবিআই

  এসএম মনির উদ্দিন, টঙ্গী (গাজীপুর) :

০৫ ডিসেম্বর ২০২৩, ১৮:৩১
নুরুজ্জামান রানা
শহীদ স্মৃতি উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক নুরুজ্জামান রানা

গাজীপুরের টঙ্গী বিসিক এলাকার ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শহীদ স্মৃতি উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০জন শিক্ষকের বিরুদ্ধে গাজীপুর আদালতে দায়ের করা মামলার সত্যতা পায়নি পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) গাজীপুর। সম্প্রতি আদালতে জমা দেওয়া প্রতিবেদনে এমন তথ্য নিশ্চিত করা হয়।

পিবিআই প্রতিবেদনে জানানো হয়, গত ২৭ আগষ্ট শহীদ স্মৃতি উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক নুরুজ্জামান রানা বাদী হয়ে প্রতিষ্ঠানের সহকারী প্রধান শিক্ষক শাহিনা সরকার ও ৯জন সহকারী শিক্ষকের বিরুদ্ধে গাজীপুর বিজ্ঞ চীফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন (নং ১০৭৫/২৩)। উক্ত মামলা আমলে নিয়ে আদালত গাজীপুর জেলা পিবিআইকে তদন্তের নির্দেশ দিলে, মামলা তদন্ত করেন পিবিআই এর পুলিশ পরিদর্শক দেলোয়ার হোসেন। এরপর দীর্ঘ দুই মাস তদন্ত শেষে আদালতে প্রতিবেদন দাখিল করে পিবিআই।

প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, নুরুজ্জামান রানার দায়ের করা মামলায় অভিযুক্ত ১০ শিক্ষকের বিরুদ্ধে আনিত কোন অভিযোগের সত্যতা পাওয়া যায়নি। মামলা তদন্তকালে ১৬জন সাক্ষীর সাথে ঘটনাস্থলে ও বাদীর উল্লেখিত স্থান পরিদর্শন করে পিবিআই।

এর আগে শহীদ স্মৃতি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক একেএম জিয়াউর রহমান মামুনের মৃত্যুর পর স্কুলের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক হন নুরুজ্জামান রানা। তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন সময় ছাত্রীদের যৌন হয়রানিসহ নানারকম অনিয়মের অভিযোগ উঠে। একপর্যায়ে স্কুলের শিক্ষার্থীদের অভিভাবকরা লিখিত ভাবে স্থানীয় সাংসদ ও যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল বরাবর লিখিত অভিযোগ করেন ওই বিদ্যালয়ের শিক্ষক, পরিচালনা পর্ষদ, অভিভাবক ও ছাত্র-ছাত্রীবৃন্দ। অভিযোগে তার চারিত্রিক ত্রæটি, স্বজনপ্রীতি, প্রশাসনিক অদক্ষতা, উগ্রপন্থী স্বভাব, মেধাবী শিক্ষকদের অবমূল্যায়ন ও বিদ্যালয়ের আর্থিক অস্বচ্ছতাসহ বহু অভিযোগ তুলে ধরেন।

মামলায় অভিযুক্ত শিক্ষকদের ভাষ্য, প্রতিমন্ত্রীর কাছে অভিযোগ করার পর তা বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে প্রচারিত হয়। এই ক্ষোভে নুরুজ্জামান রানা আমাদের ১০ শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন যা তদন্তে সম্পূর্ণ মিথ্যা ও ভিত্তিহীন প্রমানিত হয়েছে।

মামলার বাদি নুরুজ্জামান রানা’র দাবি, অর্থের মাধ্যমে প্ররোচিত হয়ে মামলার প্রতিবেদন করা হয়েছে। মামলাটি পুন:তদন্তের আবেদন করা হয়েছে।

মামলা তদন্ত কর্মকর্তা পিবিআই এর পুলিশ পরিদর্শক দেলোয়ার হোসেন বলেন, মামলার বিশদ তদন্ত শেষে বিজ্ঞ আদালতে প্রতিবেদন জমা দেওয়া হয়েছে।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড