• শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০  |   ১৭ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

যুবলীগ নেতা ও সাংবাদিক পরিচয়ে জমি দখলের পাঁয়তারা

  এম. কামাল উদ্দিন, সিনিয়র স্টাফ রিপোর্টার (রাঙামাটি)

২১ মে ২০২৩, ১৪:৪৫
যুবলীগ নেতা ও সাংবাদিক পরিচয়ে জমি দখলের পাঁয়তারা

ক্ষমতাসীন সরকার দলীয় নেতা সেজে ও সাংবাদিক পরিচয়ে রিয়াজ উদ্দিন ও তার ভাই আব্দুর রাজ্জাক পিসি’র বিরুদ্ধে অভিযোগ এনে রবিবার সকালে রাঙামাটি বনরুপাস্থ দাওয়াত কফি হাউজে এক সংবাদ সম্মেলন করে রাঙামাটি জেলার রাজস্থলী উপজেলার বাঙ্গালহালিয়া ইউনিয়নের শফিপুর গ্রামবাসী।

বাঙ্গালহালিয়া শফিপুর গ্রামের স্থায়ী বাসিন্দা মো. মিজানুর রহমান সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে বলেন, ওই এলাকার মৃত নেয়ামত আলীর ছেলে নামধারী যুবলীগ নেতা রিয়াজ উদ্দিন ও আব্দুর রাজ্জাক পিসি। রিয়াজ একজন ক্ষমতাসীন দলের নেতা, ভুয়া হলুদ সাংবাদিক পরিচয় বহন করে এবং তার ভাই আব্দুর রাজ্জাক আনসার ভিডিপি’র সদস্য পরিচয় দেয়।

তারা দুই ভাই ওই এলাকায় এতই ক্ষমতাধর যা মনে চায় তাই করে বেড়ায়! কাওকে পাত্তা দিচ্ছেনা তারা। কারও বিচার মানে না তারা। পেশি শক্তি ব্যবহার করে দুই ভাইয়ে।

তিনি অভিযোগে আরও বলেন, রিয়াজ নিজেকে বাঙ্গাহালিয়া ইউনিয়নের আওয়ামী যুবলীগ মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক দাবি করে আবার পত্রিকার মালিক ও সাংবাদিক দাবি করে। তার সাংবাদিকতা ও যুবলীগ নেতা বিক্রি করে এলাকায় কবরস্থানের জমি দখল, অসহায় নিরীহ মানুষের জমি দখল, যে রিয়াজের বিরুদ্ধে কথা বলে তার বিরুদ্ধে সে মিথ্যা মামলা দেয়, সাংবাদিকতার অপব্যবহার করে এলাকার মানুষের বিরুদ্ধে মিথ্যা সংবাদ পরিবেশন করায় তার কাজ।

অভিযোগকারী আউয়াল ও জাহিদুল ইসলাম বলেন, রিয়াজের ভাই আব্দুর রাজ্জাক পিসি চাকরির ক্ষমতা বলে ডিউটি পোষ্টে অসামাজিক কার্যকলাপসহ মদ, খাজা ও ইয়াবা সেবনের অভিযোগ করে তারা। এছাড়াও আসনার ভিডিপি সদস্যদের বেতন নিয়ে নয়ছয় করে আব্দুর রাজ্জাক পিসি।

তাড়া আরও বলেন- রিয়াজ ও রাজ্জাক মিলে এলাকার মানুষের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করে আসছে। কেউ তাদের বিরুদ্ধে কথা বললেই জানমালের হুমকি দেয় রিয়াজ ও রাজ্জাক পিসি। এলাকার মানুষ তাদেও নির্যাতন ও অত্যাচারে এখন নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে।অপকর্ম করতে করতে তাদের দুই ভাইয়ের সাহস বেড়ে গেছে। স্থানীয় ভাবে কেউকে তারা মানে না।

রাজস্থলী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, বাঙ্গাহালিয়া ইউপি চেয়ারম্যান ও চন্দ্রঘোনা থানার অফিসার বরাবওে লিখিত অভিযোগ দিয়েও কোন লাভ হয়নি। পরে স্থানীয় লোকজন রিয়াজ ও রাজ্জাকের নির্যাতন ও অত্যাচার থেকে রেহাই পেতে আদালতের আশ্রয় নিতে বাধ্য হয়।

অভিযুক্ত যুবলীগ নেতা ও সাংবাদিক রিয়াজ বলেন, যারা আমার ও আমার ভাইয়ের বিরুদ্ধে অভিযোগ দিয়েছে তারা বিএনপি পন্থী লোকজন। তারা আমার বিরুদ্ধে লেগেছে। তার কারণ একটাই তারা কবরস্থানের জমি দখল করে নিজেদের আয়ত্তে নিয়ে যেতে চায়। আমি প্রতিবাদ করলে আমার বিরুদ্ধে বিভিন্ন জায়গায় অভিযোগ করে। সংবাদ সম্মেলনে আমার বিরুদ্ধে যে সকল অভিযোগ করেছে তা সম্পূর্ণ মিথ্যা ভিত্তিহীন। আমি তার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই।

জেলা আওয়ামী যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নুর মোহাম্মদ কাজল বলেন, রাজস্থলী উপজেলার বাঙ্গালহালিয়া ইউনিয়নের মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক রিয়াজ উদ্দিন নামে কাউকে আমি চিনি না।

বাঙ্গালহালিয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আদোমং মারমা বলেন, রিয়াজ উদ্দিন আপনার চেয়েও অনেক বড় সাংবাদিক। কিসের নেতা রিয়াজ নতুন করে দলে প্রবেশ করেছে। আন্তর্জাতিক মানের বাটপার। মামলাবাজ ও দোষকৃতকারী ব্যক্তি। সে কারও কথা মানে না।

চন্দ্রঘোনা থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি শফিউল আজম বলেন, বাঙ্গালহালিয়া একটি কবরস্থানের জায়গা নিয়ে উভয় পক্ষে থানায় অভিযোগ দিয়েছে। বর্তমানে মামলাটি তদন্তাধিন রয়েছে।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড