• রোববার, ১৯ মে ২০২৪, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১  |   ৩১ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

কালবৈশাখীর আতঙ্কে দিশেহারা তরমুজ চাষিরা 

  মো. আবুবকর মিল্টন, বাউফল (পটুয়াখালী)

২১ মার্চ ২০২৩, ১৭:০১
কালবৈশাখীর আতঙ্কে দিশেহারা তরমুজ চাষিরা 
তরমুজের চাষ করছেন কৃষক (ফাইল ছবি)

দেশের দক্ষিণাঞ্চলে গেল কয়েক বছর ধরেই তরমুজ চাষে বেশ আগ্রহী হয়েছেন চাষিরা। পলি মাটি ও মিষ্টি পানি থাকায় ফলন ভালো হয়ে এই অঞ্চলে সফলতা ও পাচ্ছেন তারা। প্রতি বছরের মতোই এ বছরও সম্ভাব্য লাভ জনক এই ফল চাষে পাল্লা দিয়ে বেড়েছ কৃষকের সংখ্যাও।

ভোলা ও পটুয়াখালী জেলা, রাঙ্গাবালী, গলাচিপা, দশমিনা ও বাউফল উপজেলায়, উপযোগী ও অনাবাদী, কয়েক'শ হেক্টর জমিতে গড়ে উঠেছে তরমুজের আবাদ।

যদিও পহেলা চৈত্র থেকেই, দক্ষিণা বাতাসে আবহাওয়ার পরিবর্তন ও কালবৈশাখী ঝড়ের আশঙ্কায় আতঙ্কে চাষিরা, বাউফল উপজেলার কালাইয়া, শৌলা, বগা ও চন্দ্রদ্বীপ ইউনিয়নের তরমুজ চাষিরাসহ দুশ্চিন্তায় সময় কাটাচ্ছেন বিভিন্ন অঞ্চল থেকে আসা মানুষগুলো।

এ দিকে গত কয়েক দিন ধরে দেশের বিভিন্ন জায়গায়, শিলা ও হালকা মাঝারি বৃষ্টি হলেও বাউফলে হালকা বৃষ্টি হয়েছে। এতে বড় ধরণের কোনো ক্ষতি হয়নি বলে জানিয়েছেন বাউফলে কৃষকরা।

এ বিষয়ে চরফ্যাশনে নুরাবাদ থেকে আসা কৃষক নুর হোসেন ও জ্বলিল মাঝী বলেন, আমাদের কিছু গাছে ফল ১০-১২ কেজি, কিছু গাছে মাত্র ফল আসতে শুরু করেছে এখন যদি কালবৈশাখী ঝড় ও শিলা বৃষ্টি হয়ে, জমিতে পানি জমাট বাঁধে তাহলে তরমুজ নষ্ট হবে এবং গাছগুলো মরে যাবে।

এ দিকে বিভাগীয় আবহাওয়া অফিস সূত্রে জানা গেছে, বরিশাল বিভাগের বিভিন্ন জেলায় +24...+26 °C ৪ থেকে ৫ মিলিমিটার বেগে হতে পারে শিলা বৃষ্টি।

এ ব্যাপারে উপজেলা, কৃষি কর্মকর্তা কামরুল ইসলাম বলেন, বড় ধরনের কোনো দুর্যোগ হলেতো আমাদের কিছু করার থাকবে না। আর ছোটখাটো ঝড় বৃষ্টি হলে পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা রেখে ক্ষেত তৈরি করা হয়েছে। প্রতিটি ক্ষেতের মাঝে পানি নিষ্কাশনের জন্য ড্রেনেজ ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। তবে শিলা বৃষ্টি হলে ফসলের ক্ষতি হওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড