• সোমবার, ৩০ জানুয়ারি ২০২৩, ১৬ মাঘ ১৪২৯  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

ওরশে যাওয়ার পথে বখাটেদের পাশবিকতার বলি মাদরাসাছাত্রী

  নাসিম আজাদ, স্টাফ রিপোর্টার (নরসিংদী)

১৯ জানুয়ারি ২০২৩, ১৩:৩৩
ওরশে যাওয়ার পথে বখাটেদের পাশবিকতার বলি মাদরাসাছাত্রী
ভুক্তভোগী মাদরাসাছাত্রী (ফাইল ছবি)

নরসিংদীর মনোহরদীতে ওরশে যাওয়ার পথে গণধর্ষণের শিকার হয়েছে এক মাদরাসাছাত্রী। ঘটনাটি উপজেলার একদুয়ারিয়া ইউনিয়নের সৈয়দেরগাঁও গ্রামে ঘটে।

গতকাল বুধবার (১৮ জানুয়ারি) সকালে ভুক্তভোগী ওই ছাত্রীর মা বাদী হয়ে অভিযুক্ত মেহেদী হাসানসহ চারজনকে আসামি করে মনোহরদী থানায় ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন। অভিযুক্ত মেহেদী হাসান একই ইউনিয়নের গোখলা গ্রামের আক্তার হোসেনের ছেলে।

পুলিশ ও নির্যাতিতা ছাত্রীর পরিবার জানায়, মেহেদী হাসান ওই ছাত্রীকে মাদরাসায় আসা-যাওয়ার পথে প্রায়ই উত্ত্যক্ত করত। এতে বিরক্ত হয়ে বাড়িতে মাকে জানায় সে। পরে তার মা মেহেদী হাসানের বাড়িতে গিয়ে তার বাবা-মাকে বিষয়টি জানান এবং উত্যক্ত না করতে ছেলেকে নিষেধ করতে বলেন। এ ঘটনায় মেহেদী আরও বেশি ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে।

গত সোমবার দিবাগত রাতে বাড়ির নিকটবর্তী পাঁচ পীরের মাজারে বার্ষিক ওরশ মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে ওই ছাত্রীসহ তার পরিবারের লোকজন যায়। মধ্যরাতে প্রয়োজনে বাড়িতে আসে মাদরাসা ছাত্রী। এরপর পুনরায় ওরশে যাওয়ার পথে মেহেদী হাসানসহ অজ্ঞাত আরও তিনজন তার মুখ চেপে ধরে জোরপূর্বক সৈয়দেরগাঁও বিলের মধ্যে নিয়ে যায়।

সেখানে চারজন পালাক্রমে তাকে ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়। এরপর রাত আড়াইটার দিকে কান্না করতে করতে সে তার বাবা-মাকে জানায়। পরে বুধবার সকালে ওই ছাত্রীর মা বাদী হয়ে মেহেদী হাসানসহ অজ্ঞাত আরও তিনজনকে আসামি করে মনোহরদী থানায় ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন।

মনোহরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ফরিদ উদ্দিন বলেন, অভিযোগ পেয়ে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তিনজনকে থানায় আনা হয়েছে। এদের মধ্যে মেহেদী হাসানকে চিহ্নিত করছে ভুক্তভোগী। ঘটনার সঙ্গে বাকিদের সম্পৃক্ততা পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড