• বৃহস্পতিবার, ০২ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৯ মাঘ ১৪২৯  |   ২৭ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

পাহাড়ি এলাকায় ফের চার কৃষককে অপহরণ

  মিজানুর রহমান মিজান, টেকনাফ (কক্সবাজার)

০৯ জানুয়ারি ২০২৩, ১২:৪৪
পাহাড়ি এলাকায় ফের চার কৃষককে অপহরণ

কক্সবাজারের টেকনাফে পাহাড়ে ভুট্টার চাষ করতে গিয়ে চারজন বাংলাদেশি কৃষক পাহাড়ি সশস্ত্র ডাকাতদলে হাতে অপহরণের শিকার হয়েছেন বলে জানিয়েছে ভুক্তভোগীদের পরিবার।

অপহৃতরা হলেন- উপজেলার হ্নীলা ইউনিয়নের ৬নং বড় লেচুয়াপ্রাং মৃত আবুল হোসেনের ছেলে আব্দুস সালাম (৪৮), একই এলাকার ছৈয়দ হোসেনের প্রকাশ গুরা মিয়ার ছেলে আব্দুর রহমান (৩২), রাজা মিয়ার ছেলে মুহিব উল্লাহ (১৫) ও ফজলুল করিমের ছেলে আব্দুল হাকিম (৪০)।

গত শনিবার (৭ জানুয়ারি) দিনগত রাত ১০টার দিক হ্নীলা লেচুয়াপ্রাং পাহাড়ি এলাকায় ভুট্টা খেতে কাজ করতে গেলে তারা অপহরণ শিকার হয়।

অপহৃত আব্দুস সালামের ছোট ভাই রফিকুল ইসলাম বলেছেন, আমার বড় ভাইসহ স্থানীয় আরও তিনজন কৃষক তারা প্রতিদিনের মতো পাহাড়ে কৃষি কাজ করতে যান। পাহাড়ে ভিতরে ভুট্টা চাষ, শাকসবজিসহ বিভিন্ন ধরনের চাষাবাদ করেন। এমনকি পাহাড়ি হাতির ভয়ে তারা রাত জেগে সেখানে পাহারা দেন।

রাতে সংবাদ পাওয়া যায় ভুট্টা চাষে কাজ যাওয়া আমার ভাইসহ অন্য তিনজন কৃষককে অপহরণ করা হয়েছে। তবে এখন পর্যন্ত কোনো খোঁজ-খবর পাওয়া যায়নি এবং কেউ কোনো যোগাযোগও করেনি।

স্থানীয় সিপিজি সদস্য মো. শফিক (৪৫) বলেন, আমরা বনবিভাগের সদস্যদের সাথে বন পাহারাদল হিসাবে কাজ করি। পাহারের ভিতর গেলে মনে এক ধরনের ভয় কাজ করে। কোন সময় তাদেরকে অপহরণ করে নিয়ে যায় তা কোনো ঠিক নেই। কারণ এর আগেও এই এলাকা থেকে অনেক লোককে পাহাড়ি সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা অপহরণ করে পাহাড়ের ভিতর আটকে রেখে মুক্তিপণ নিয়ে ছেড়ে দিয়েছিল।

তিনি জানিয়েছেন, গত রাতেও চারজন কৃষককে পাহাড়ি এলাকা থেকে অপহরণ করে নিয়ে গেছে।

হ্নীলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রাশেদ মোহাম্মদ আলী বলেন, অপহৃতদের পরিবার সকালে আমাকে জানিয়েছে লেচুয়াপ্রাং পাহাড়ি এলাকায় চারজন কৃষক ভুট্টা চাষ করতে গিয়েছিল। পরে তারা সংবাদ পেয়েছে এবং আমি স্থানীয় আইন শৃঙ্খলা বাহিনীকে অবগত করেছি এবং পাহাড়ি সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা তাদেরকে অপহরণ করেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। তবে এখনো পর্যন্ত অপহৃতদের কোনো খোঁজ পাওয়া যায়নি।

টেকনাফ মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি মো. আব্দুল হালিম জানান, চারজন কৃষক অপহরণের ঘটনা জানার পর আমিসহ থানার অন্যান্য ফোর্স ঘটনাস্থলে রয়েছি। এখনো তাদের উদ্ধারের জন্য খোঁজ-খবর নেওয়া হচ্ছে। তাদের উদ্ধারের জন্য অভিযান অব্যাহত আছে।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড