• সোমবার, ৩০ জানুয়ারি ২০২৩, ১৬ মাঘ ১৪২৯  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

৮ মাসেও মেলেনি মজুরি, প্রকৌশলীকে অবরুদ্ধ করলেন শ্রমিকরা

  সুমন খান, লালমনিরহাট

০৯ জানুয়ারি ২০২৩, ১১:০৫
৮ মাসেও মেলেনি মজুরি, প্রকৌশলীকে অবরুদ্ধ করলেন শ্রমিকরা

লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা উপজেলা স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরের (এলজিইডি) স্থানীয় প্রকৌশলী নজীর হোসেনকে প্রায় দুই ঘণ্টা অবরুদ্ধ করে রেখেছিলেন শ্রমিকরা। করোনাকালীন সময়ের বিশেষ প্রকল্প ‘প্রভাতী’র শ্রমিক মজুরি দীর্ঘ ৮ মাসেও না পাওয়ায় গতকাল রবিবার সকাল ১১টা থেকে দুপুর দেড়টা পর্যন্ত উপজেলা প্রকৌশলী নজীর হোসেনের অফিসের সামনে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন শ্রমিকরা।

এ সময় কার্যত অবরুদ্ধ হয়ে পড়ে ওই প্রকৌশলী। যদিও উপজেলা প্রকৌশলীর দাবি- তিনি ৬ মাস আগে বিল তৈরি জেলা নির্বাহী প্রকৌশলীর কাছে প্রেরণ করলেও তা এখনো অনুমোদন হয়নি।

এলজিইডি ও শ্রমিকরা জানান, করোনাকালীন সময় শ্রমিকদের জন্য ‘প্রভাতী’ নামক একটি বিশেষ প্রকল্প বাস্তবায়ন হয়। ওই প্রকল্পের আওতায় হাতীবান্ধা উপজেলার সিঙ্গিমারী, গড্ডিমারী ও বড়খাতা ইউনিয়নে ১শত ৫০ জন শ্রমিক কাজের সুযোগ পায়। তারা নিয়মিত কাজ করেন এবং ২০২১ সালের ডিসেম্বরে ওই প্রকল্পের মেয়াদ শেষ হয়। কিন্তু দীর্ঘ ৮ মাসেও মজুরি পায়নি শ্রমিকরা। আজ-কাল বলে টালবাহানা করে আসছে স্থানীয় এলজিইডি অফিস।

এ ঘটনায় রবিবার সিঙ্গিমারী ইউনিয়নের শ্রমিকরা তাদের মজুরির দাবিতে হাতীবান্ধা উপজেলা এলজিইডি’র প্রকৌশলী নজীর হোসেনের অফিসের সামনে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন। এ সময় কার্যত অবরুদ্ধ হয়ে পড়ে ওই প্রকৌশলী নজীর হোসেন।

ভুক্তভোগী মনছেন আলী বলেন, উপজেলার শিংগীমারী, গড্ডিমারী ও সিন্দুর্না ইউনিয়নে ৬টি দলে ১৫০ জন শ্রমিক মাটি কাটার কাজ করেছি। কিন্তু করোনাকালীন সময়ে কাজ হওয়া মজুরি আজো তাদের ভাগ্যে জুটেনি। তাই আমরা আজ পাওনা টাকার জন্য এলজিইডি অফিসের সামনে অবস্থান নিয়েছি।

প্রভাতি প্রকল্পের মনিটরিং অফিসার আব্দুর রাজ্জাক বলেন, এ বিষয়ে চূড়ান্ত বরাদ্দ প্রাপ্তির জন্য লালমনিরহাট নির্বাহী প্রকৌশলী দপ্তরে চাহিদা পাঠানো হয়েছে। বরাদ্দ পেলে মজুরির সমুদয় অর্থ বিতরণ করা হবে।

উপজেলা প্রকৌশলী নজীর হোসেন বলেন, ৬ মাস আগে বিল তৈরি করে জেলা নির্বাহী প্রকৌশলীর কাছে প্রেরণ করলেও তা এখনো অনুমোদন হয়নি। এখানে আমার কিছুই করার নেই।

লালমনিরহাট এলজিইডি’র নির্বাহী প্রকৌশলী মঞ্জুর কাদের ইসলাম বলেন, আগামী মঙ্গলবার কাজ পরিদর্শন করে হিসাব-নিকাশ শেষে শ্রমিকদের পাওনাদি পরিশোধ করা হবে। ৬ মাসেও বিশেষ প্রকল্পের কাজ পরিদর্শন কেন করলেন না এবং বিল দিতে এত বিলম্ব কেন এমন প্রশ্নের কোনো উত্তর কৌশলে এড়িয়ে যান নির্বাহী প্রকৌশলী মঞ্জুর কাদের ইসলাম।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড