• রোববার, ২৯ জানুয়ারি ২০২৩, ১৫ মাঘ ১৪২৯  |   ১৬ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

জমি কিনে বিপাকে প্রকৌশলীর পরিবার

  মো. আবুবকর মিল্টন, বাউফল (পটুয়াখালী)

২৯ ডিসেম্বর ২০২২, ১৩:২৭
জমি কিনে বিপাকে প্রকৌশলীর পরিবার
জমি দখল (ছবি : প্রতীকী)

পটুয়াখালীর বাউফলে জমি ক্রয় করে বিপাকে পড়েছেন আব্দুর রব নামের এক প্রকৌশলী। স্থানীয় এক প্রভাবশালীর মিথ্যা মামলার ভয়ভীতি ও প্রাণনাশের হুমকিতে পরিবার নিয়ে শঙ্কায় রয়েছেন বলে অভিযোগ করেছেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, বাউফল পৌরশহরের ২নং ওয়ার্ডের চন্দ্রপাড়া এলাকায় পৈত্রিক সূত্রে ২২ শতাংশের মালিক আব্দুল হালিম ও আব্দুর রহিম নামের দু ভাই। প্রায় ১১ বছর আগে আব্দুর রহিম ১১ শতাংশ জমি বিশেষ প্রয়োজনে আব্দুর রব নামের এক প্রকৌশলীকে বিক্রি করে দেন।

প্রকৌশলী ২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. ইউনুছও প্রকৌশলীর শ্যালক ইউসুফ এর মাধ্যমে সীমানা পিলার দিয়ে জমি দখলে নেন। পরে একই জমির মালিক অপর ভাই আব্দুল হালিম বাকি ১১ শতাংশ শহিদুল ইসলাম নামের এক প্রভাবশালীর কাছে বিক্রি করে দেন। শহিদুল ইসলাম জমি ক্রয় করেই উক্ত জমি দখলে গিয়ে আব্দুর রবের সীমানা পিলার তুলে দখল করার পায়তারা চালান।

এতে আব্দুর রবের শ্যালক মো. ইউসুফ ঢাকায় ব্যবসা করেন, তিনি মুঠোফোনে বিষয়টি কাউন্সিলরকে অবহিত করেন, ব্যবস্থা নেয়ার জন্যে, এতেই বাধ সাধে প্রভাবশালী শহিদুল ইসলামের। শহিদুল ইসলাম তার পাণ্ডাদের দিয়ে মিথ্যা ও হয়রানি মামলার অভিযোগ করেন বাউফল থানায় শহিদুল ইসলাম। এতেই থামেননি শহিদুল ইসলাম এলাকায় আসলে তাদের সাইজ করে দেয়া হবে বলে হুমকি দেন। এ মিথ্যা মামলা ও হুমকিতে চরম উৎকণ্ঠায় পড়েছেন প্রকৌশলীর পরিবার।

এ বিষয়ে আব্দুর ও তার শ্যালক বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মো.আবু ইউসুফ জানান, তারা উভয়েই ঢাকায় চাকরি ও ব্যবসা করেন। কিন্তু শহিদুল ইসলাম তাদের জমি জবর দখল করতে না পেরে তাদের বিরুদ্ধে নানা হুমকি-ধমকি দিচ্ছেন বলে জানান।

তিনি বলেন, ব্যবসায়ীক সুবাদে আমি ঢাকা থাকি। এলাকায় যখন আসি তখন গরিব ও অসহায় মানুষের মাঝে বিভিন্ন সাহায্য সহোযোগিতা করার চেষ্টা করি। অথচ আমার বিরুদ্ধে তারা একটা মিথ্যা অপবাদ দিয়ে সম্মান হানির পায়তারা করছে।

এ বিষয়ে শহিদুল ইসলাম জানান, কোনো হুমকি-ধমকি দেয়া হয়নি। তার নামে বদনাম ছড়াচ্ছে। বরং তারা ক্রয়কৃত জমির সীমানা পিলার রাতের আধারে তুলে নিয়ে গেছে বলে অভিযোগ করেন।

বাউফল থানার অফিসার ইনচার্জ আল মামুন জানান, বিষয়টি তার জানা নেই অভিযোগ পেলেই ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড