• বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯  |   ২৫ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

আশ্রয়ণ প্রকল্পের কাজে বাঁধা দেওয়ায় থানায় মামলা

  সুমন খান, লালমনিরহাট

২০ নভেম্বর ২০২২, ১৫:২৬
আশ্রয়ণ প্রকল্পের কাজে বাঁধা দেওয়ায় থানায় মামলা
আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর (ফাইল ছবি)

লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা উপজেলার নওদাবাস ইউনিয়নের পূর্ব নওদাবাস এলাকার ৬নং ওয়ার্ডে ২ একর ৪০ শতক সরকারি খাঁস জমিতে প্রধানমন্ত্রীর আশ্রয়ণ প্রকল্পের কাজ করতে গেলে স্থানীয় কিছু অসাধু বসবাস কারি ব্যক্তি কাজে বাঁধা প্রদান করেন।

জানা গেছে, প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে অসহায় মানুষের মাঝে জমি এবং ঘড় দেয়ার জন্য উপজেলার নওদাবাস ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডে প্রায় ২ একর ৪১ শতক জমিতে যার বাজার মূল্যে তিন কোটি টাকা যার এস এ ও বি আর এস রেকর্ড সরকারের নামে।

গত ১৮ নভেম্বর স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তি ও চেয়ারম্যানের উপস্থিতিতে আশ্রয়ণ প্রকল্পের আওতায় আনা ঘরের কাজ শুরু করেন দায়িত্ব প্রাপ্ত কর্মকর্তা উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাজির হোসেন। এ সময় কয়েকটি ঘরের ভিত্তি খনন কাজ ও করা হয়, কিন্তু পরের দিন সকালে ঐ এলাকার কিছু সরকার বিরোধী দখলদার ব্যক্তি ঐ কাজের বিরোধিতা করে উক্ত খনন কৃত কাজ মাটি দিয়ে বন্ধ করে দেন।

খবর পেয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাজির হোসেন সেখানে উপস্থিত হয়ে কাজ করতে চাইলে স্থানীয় কিছু অসাধ উপায়ে বসবাস কারি ব্যক্তি কাজে বাঁধা দেন এবং নির্বাহী কর্মকর্তা নাজির হোসেনের ও সাথে থাকা কর্মচারীদের উপর হামলা করার চেষ্টা করেন বলে অভিযোগ করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাজির হোসেন।

এ বিষয়ে স্থানীয় বাসিন্দা আমেনা বেগম ও আব্দুস সাত্তার বলেন, আমরা দীর্ঘদিন ধরে এই এলাকায় বসবাস করে আসছি এবং এই জমির উপর একটি মামলা আদালতে চলছে মামলার রায় না হওয়া পর্যন্ত আমরা কোনো কাজ করতে দিব না। কাজ করতে বাধা দিলে ইউএনও স্যার ও তার লোকজন এসময় আমাদের লোকজনের উপর হামলা করলে কয়েকজন আহত হয়ে হাতীবান্ধা মেডিক্যালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

আব্দুস সাত্তার বলেন, আমাকে কে ধাক্কা দিয়েছে আমি দেখিনি তবে ইউএনও স্যার আমার শরীরে হাত দেয়নি।

এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাজির হোসেন বলেন সরকারি কাজে বাঁধা দেয়ার অভিযোগে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থাগ্রহণ করা হয়েছে। সেখানে আমি উপস্থিত থাকা অবস্থায় কারো সাথে আমার কোনো ধরনের সমস্যা হয়নি।

হাতীবান্ধা থানা অফিসার ইনচার্জ শাহা আলম বলেন, সরকারি কাজে বাধা দেয়ায় ১১ জনকে আসামি করে আরও অনেকের নামে মামলা হয়েছে। আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড