• বৃহস্পতিবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৯  |   ২৬ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

প্রধানমন্ত্রীর পাশে ওবায়দুল কাদেরের গলা কেটে নিজের ছবি স্থাপন!

  মো. আকাশ, সিদ্ধিরগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ)

০৬ নভেম্বর ২০২২, ১৩:৩১
প্রধানমন্ত্রীর পাশে ওবায়দুল কাদেরের গলা কেটে নিজের ছবি স্থাপন!

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবির সঙ্গে এডিট করে নিজের ছবি বসানোর অভিযোগ উঠেছে এক আ. লীগ নেতার বিরুদ্ধে। যদিও তার বক্তব্য ছবিটি মোটেও এডিট নয়।

গত বুধবার (২ নভেম্বর) রাতে মোহাম্মদ মজিবুর রহমান নামে এক ফেসবুক পেজ থেকে একটি পোস্ট দেওয়ার পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম তুমুল সমালোচনার মুখে পড়ে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও নারায়ণগঞ্জ জেলা পরিষদের ১নং ওয়ার্ড সদস্য মজিবুর রহমান। তার দেয়া ওই পোস্টে 'লিখেছেন ফুলের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন'।

সমালোচনার মুখে পড়া ওই ছবিতে দেখা যায়, একটি স্টেজের উপর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পাশে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগ সভাপতি মজিবুর রহমান দাঁড়িয়ে আছেন।

যদিও আ. লীগ নেতাকর্মী ও সচেতন মহলের দাবি, সামজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নেত্রীর ছবির সঙ্গে নিজের ছবি এডিট করে মানুষকে বোকা বানাচ্ছেন মজিবুর রহমান।

তারা বলেছেন- প্রধানমন্ত্রীর পাশে দাঁড়ানো ব্যক্তি মজিবুর রহমান নয়, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। একজন সিনিয়র নেতা হওয়া সত্বেও মজিবুর রহমানের এমন কাজ অশোচনীয়।

নাম প্রকাশ্যে অনিচ্ছুক স্থানীয় এক আ. লীগ কর্মী বলেন, মজিবুর রহমান সাহেব একজন ত্যাগী আওয়ামী লীগ নেতা। দীর্ঘ ৩২ বছর ধরে তিনি একটানা থানা আওয়ামী লীগের সভাপতির দায়িত্ব পালন করে আসছেন। কিছুদিন পূর্বে তিনি জেলা পরিষদের সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন। তার দ্বারা এমন প্রতারণামূলক কাজ আমরা আশা করিনি। এটা খুব দুঃখজনক।

ছবি এডিটের বিষয় জানতে চাইলে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও নারায়ণগঞ্জ জেলা পরিষদের ১নং ওয়ার্ড সদস্য আলহাজ্ব মজিবুর রহমান জানান, এটা সম্পূর্ণ মিথ্যা কথা। এটা কোনো এডিট করা ছবি না। এটা সত্যিকারের ছবি। যারা দাবী করছে এটা এডিট করা ছবি, তাদেরকেই জিজ্ঞেস করেন এই ছবি কিভাবে এডিট হলো। সে দীর্ঘদিন ধরে আওয়ামী লীগের সঙ্গে জড়িত প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে তার ছবি থাকতেই পারে। এই ছবিটি আওয়ামী লীগের একটা অনুষ্ঠানে তোলা। যে অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছিলেন আর আমি অনুষ্ঠানের সভাপতি ছিলাম। তার রক্তে আওয়ামী লীগ আছে, তিনি এইসব এডিট করা ছবির মধ্যে নেই।

তিনি আরও বলেন, আমি এতো কষ্ট করে জেলা পরিষদের সদস্য হলাম। আমাকে নিয়ে এতো খারাপ কিছু লিখেন কেনো? ভালো কিছু তো লিখতে পারেন। আমি দীর্ঘদিন ধরে জনগণের উন্নয়নে, মানুষের কল্যাণে কাজ করছি। যদি জেলা পরিষদের ১নং ওয়ার্ডে জাহাঙ্গীর (তার প্রতিদ্বন্দী প্রার্থী) নির্বাচিত হতো তাহলে সে লুটেপুটে খেতো। আমিতো সুন্দরভাবে কাজ করে যাচ্ছি, কোনো চাঁদাবাজি করি না। তাহলে আমাকে নিয়ে ভালো কিছু লিখেন না কেন?

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড