• সোমবার, ০৩ অক্টোবর ২০২২, ১৯ আশ্বিন ১৪২৯  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

শূন্য তিন পদই বাড়িয়েছে উত্তাপ 

গড়াই মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের পরিচালনা পরিষদ নির্বাচনে চলছে ভোটগ্রহণ

  তানভীর লিটন, কুমারখালী-খোকসা (কুষ্টিয়া)

২১ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১২:৪৫
গড়াই মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের পরিচালনা পরিষদ নির্বাচনে চলছে ভোটগ্রহণ
ভোটকেন্দ্রের বাহিরে পোস্টার টাঙানো (ছবি : অধিকার)

কঠোর নিরাপত্তার মধ্যে দিয়ে আজ বুধবার কুষ্টিয়ার কুমারখালীর গড়াই মাধ্যমিক বিদ্যালয় পরিচালনা পরিষদ নির্বাচন-২০২২ এর ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হচ্ছে। বিদ্যালয়ের চতুর্থতলা ভবনের দ্বিতীয় তলায় দুইটি শ্রেণিকক্ষে সকাল ১০টার ভোট গ্রহণ শুরু হয়। বিরতিহীন ভাবে ভোট গ্রহণ চলবে বিকালে ৪টা পর্যন্ত। 

এবার বিদ্যালয়ে ভোটার রয়েছেন ১৫২ জন। স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের দুইটি প্যানেল থেকে মোট ১০ জন অভিভাবক সদস্য পদে নির্বাচন করছেন। তার মধ্যে আটজন পুরুষ ও দুইজন মহিলা রয়েছেন। প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে বিজয় লাভ করবেন চারজন পুরুষ ও একজন মহিলা।

গতকাল মঙ্গলবার বিকালে তথ্যটি নিশ্চিত করেছিলেন গড়াই মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও বিদ্যালয় পরিচালনা পরিষদ নির্বাচনের সদস্য সচিব মো. আশরাফুজ্জামান। তিনি বলেন, পর্যাপ্ত পুলিশ-প্রশাসনের কঠোর পাহারায় সকাল ১০টায় ভোট গ্রহণ শুরু হবে। বিরতিহীন চলবে বিকেল ৪টা পর্যন্ত। ভোট ভোটের নিয়মে চলবে। বিদ্যালয়ের এবার মোট ভোটার সংখ্যা ১৫২ জন। 

অপর দিকে বিদ্যালয়ের ভোটকে কেন্দ্র করে স্থানীয় আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের নেতাকর্মীদের মাঝে চরম উত্তাপ-উত্তেজনা বিরাজ করছে। উভয়পক্ষই মোটরসাইকেল শো ডাউন, মিটিং, মিছিল করে ও অর্থপ্রদানের মাধ্যমে ভোটারদের মন জয় করার চেষ্টা করেছিলেন। ওপেন ভোট প্রদান, প্রভাব বিস্তার করা ও নিরপেক্ষ নির্বাচন নিয়েও শঙ্কায় রয়েছেন তারা।

যদিও প্রিজাইডিং কর্মকর্তা বলছেন, ভোটে কোনো অনিয়মের সুযোগ নেই। ভোটের নিয়মেই ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হচ্ছে। আইন-শৃঙ্খলা স্বাভাবিক রাখতে ওসি সাহেবকে চিঠি দেওয়া হয়েছে।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, গড়াই মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণি পদের একজন পরিছন্নতাকর্মী, একজন আয়া ও একজন অফিস সহায়ক নামের তিনটি পদ খালী রয়েছে। অবৈধভাবে তিনটি পদে লক্ষ লক্ষ টাকা নিয়োগ বাণিজ্য হতে পারে। সেই নিয়োগ বাণিজ্য লুফে নিতে ভোটে ব্যাপক উত্তাপ-উত্তেজনা সৃষ্টি হয়েছে। উভয়পক্ষই মোটরসাইকেল শো ডাউন, মিটিং, মিছিল করেছেন। প্রতিটি ভোট গোপনে ও সতর্কতার সাথে প্রায় তিন থেকে দশ হাজার টাকায় বেচা-কেনা হয়েছে। 

হাঁসদিয়া গ্রামের ভোটার সেলিম খান বলেন, চেয়ারম্যান গ্রুপ লোকের মাধ্যমে পাঁচ হাজার টাকা পাঠিয়েছিল। কিন্তু সাত্তার মেম্বর আমার এলাকার মানুষ হওয়ায় টাকা ফেরত দিয়েছি।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক ভোটার বলেন, স্কুলে পদ খালি থাকায় নিয়োগ বাণিজ্যের সুযোগ রয়েছে। প্রতিটি নিয়োগে প্রায় সাত থেকে দশ লক্ষ টাকা লেনদেন হয়। তাই ভোট জমে উঠেছে। কেউ পাঁচ হাজার কেউ দশ হাজার টাকার প্রস্তাব দিচ্ছে। কিন্তু ভোট বিক্রি করব না।

এ বিষয়ে যদুবয়রা ইউনিয়ন পরিষদের ৪নং ওয়ার্ড সদস্য আব্দুস সাত্তার বলেন, প্রতিপক্ষরা ১০/১৫ হাজার টাকা দিয়ে ভোট কিনতেছে। আমার সমর্থকদের টাকা হাতের ভিতর গুজে দিচ্ছেন, কিন্তু তারা (সমর্থকরা) নিচ্ছেন না। ভোটে চরম উত্তেজনা চলছে। আমি প্রশাসনের কাছে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের দাবি জানায়।

যদুবয়রা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান মিজান বলেন, প্রতিপক্ষরা ভোটে ক্ষমতা ও প্রভাব বিস্তারের ঘোষণা দিয়েছেন। সুষ্ঠু ভোট নিয়ে শঙ্কায় আছি। একজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগের জন্য ডিসি স্যার ও ইউএনও স্যারের কাছে গিয়েছিলাম। নিয়োগ হবে কি না জানি না।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কার্যালয়ের একাডেমিক সুপার ভাইজর ও গড়াই মাধ্যমিক বিদ্যালয় পরিচালনা পরিষদ নির্বাচনের প্রিজাইডিং কর্মকর্তা মো. আশিকুজ্জামান বলেন, ভোটে কোনো অনিয়মের সুযোগ নেই। ভোটের নিয়মেই ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। আইন-শৃঙ্খলা স্বাভাবিক রাখতে ওসি সাহেব কে চিঠি দেওয়া হয়েছে। স্কুল ভোটে ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ কোনোদিন দেখিনি।

কুমারখালী থানার ওসি কামরুজ্জামান তালুকদার বলেন, সুষ্ঠু ও সুন্দর পরিবেশে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হচ্ছে। প্রায় ২০/২৫ জন ফোর্স-অফিসার নিয়োগ রয়েছে।

ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগের ব্যাপারে জানতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বিতান কুমার মণ্ডলকে মুঠোফোনে কল দেওয়া হয়। সরকারি কাজে ব্যস্ত আছেন বলে রেখে দেন।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো. তাজবীর হোসাইন  

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড