• রোববার, ০২ অক্টোবর ২০২২, ১৮ আশ্বিন ১৪২৯  |   ২৭ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

দুপক্ষের মারামারিতে যুবকের মৃত্যু, ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মামলা

  মাজেদুল ইসলাম হৃদয়, ঠাকুরগাঁও

০৫ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৬:৫৫
দুপক্ষের মারামারিতে যুবকের মৃত্যু, ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মামলা
দুপক্ষের মারামারিতে প্রাণ হারানো যুবক শাকিল আহম্মেদ (ফাইল ছবি)

ঠাকুরগাঁওয়ের বালিয়াডাঙ্গীতে ভানোর ইউনিয়নের হলদিবাড়ী মসজিদে মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.)-কে নিয়ে অসম্মান করে বক্তব্য দেওয়াকে কেন্দ্র করে কয়েক দফায় সংঘর্ষের ঘটনায় গুরুত্ব আহত শাকিল আহম্মেদ (৩০) চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয়েছে।

তার বড় ভাই সাঈদ আলমও বর্তমানে গুরুতর আহত হয়ে চিকিৎসা নিচ্ছেন স্থানীয় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে।

রবিবার (৪ সেপ্টেম্বর) ভোর সকালে দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয় শাকিল আহম্মেদের।

মৃত শাকিল আহম্মেদ ভানোর ইউনিয়ন মৎস্যজীবী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলার ভানোর ইউনিয়নের হলদিবাড়ী গ্রামের মৃত সামশুল আলমের ছেলে এবং স্থানীয় যুবলীগ নেতা সাঈদ আলমের ভাই।

জানা যায়, এ ঘটনায় শনিবার (৩ সেপ্টেম্বর) রাতে ভানোর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলামসহ ২০ জনকে আসামি করে বালিয়াডাঙ্গী থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। ভানোর ইউনিয়ন যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক সাঈদ আলম।

মামলার সূত্রে জানা যায়, গত শুক্রবার (২ সেপ্টেম্বর) হলদিবাড়ী জামে মসজিদের ইমাম মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা:)-কে অসম্মান করে কথা বললে প্রতিবাদ জানায় যুবলীগ নেতা সাঈদ আলম ও মুসল্লিরা। এ নিয়ে উভয় পক্ষের মাঝে উত্তেজনা দেখা দেয় এবং সংঘর্ষ শুরু হয়। এতে উভয় পক্ষের বেশ কয়েকজন আহত হয়। এতে ভানোর ইউপি চেয়ারম্যানসহ চারজনের নামে অভিযোগ দেন যুবলীগ নেতা সাঈদ আলম।

এমন খবর জানতে পেরে চেয়ারম্যানের লোকজন আরও ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে এবং শনিবার (৩ সেপ্টেম্বর) সকাল বেলা সাঈদ আলম ইউনিয়ন ভূমি অফিসের দক্ষিণ পাশের রাস্তা দিয়ে যাওয়ার সময় তাকে মারপিট করে। এরপরে তাকে বাঁচাতে তার ভাই শাকিল আহম্মেদসহ পরিবারের লোকজন ছুটে আসলে উভয় পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে।

এতে যুবলীগ নেতা সাঈদ আলম ও শাকিল আহম্মেদ গুরুতর আহত হয়। আহতদের বালিয়াডাঙ্গী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। শাকিলের স্বাস্থ্যের অবনতি হলে তাকে দিনাজপুর মেডিক্যালে রেফার্ড করা হয়।

পরে রবিবার (৪ আগস্ট) ভোর সকাল দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় ভানোর ইউপি চেয়ারম্যানসহ ২০ জনকে আসামি করে একটি হত্যা মামলা রুজু করা হয়েছে।

বালিয়াডাঙ্গী থানার ওসি খায়রুল আনাম জানান, ইউপি চেয়ারম্যানসহ ২০ জনকে আসামি করে থানায় একটি মামলা হয়েছে। আসামিদের গ্রেফতার করার জন্য অভিযান অব্যাহত আছে।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো. তাজবীর হোসাইন  

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড