• রোববার, ১৪ আগস্ট ২০২২, ৩০ শ্রাবণ ১৪২৯  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

চাঁদা না দেওয়ায় জমি দখল করে বাড়ি নির্মাণে বাধা

  নাজির আহমেদ আল-আমিন, ভৈরব (কিশোরগঞ্জ)

২৯ জুলাই ২০২২, ০১:৩৬
চাঁদা না দেওয়ায় জমি দখল করে বাড়ি নির্মাণে বাধা
বাড়ি নির্মাণের কাজ বন্ধ (ছবি : অধিকার)

কিশোরগঞ্জের ভৈরবে জমি নিয়ে দ্বন্দ্বের জেরে বসতবাড়ির স্থাপনা নির্মাণের কাজ বন্ধ ও চাঁদা দাবিসহ বিভিন্নভাবে হয়রানি করা হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে। পৌর শহরের চন্ডিবের কাজী বাড়ির ভুক্তভোগী আকলিমা বেগম ও তার পরিবারের সদস্যরা অভিযোগটি করেন। যদিও এ অভিযোগ পুরোপুরি অস্বীকার করেছেন অভিযুক্ত আল আমিন কাজী।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শহরের চন্ডিবের কাজী বাড়ির মৃত আব্দুল আজিজের ছেলে আল আমিন কাজীসহ কাজী বাড়ির লোকজনের সাথে একই বাড়ির মৃত আবুল কাশেম মিয়ার সন্তান আলী হোসেন, মিজান ও আকলিমা বেগমের সাথে দীর্ঘদিন ধরে জায়গা সম্পত্তি মিয়ে বিরোধ চলছিল। এ নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে পৃথক পৃথক মোকদ্দমার ভিত্তিতে অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আদালত কিশোরগঞ্জ, শান্তি শৃঙ্খলা বজায় রাখতে উভয় পক্ষের জন্য ১৪৪/১৪৫ ধারা নিষেধাজ্ঞা জারি করেন। যদিও আল আমিন কাজী আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে তার বাড়ি পুনর্নির্মাণ করেন এবং প্রতিপক্ষ আকলিমা বেগমকে তার নিজ জমিতে বাড়ি নির্মাণে বাধা দেন বলে অভিযোগ ভুক্তভোগীর।

এ দিকে আল আমিন কাজী বাদী হয়ে আকলিমা বেগমের বিরুদ্ধে যে মিথ্যা অভিযোগ দায়ের করেছিলেন; গত ১৮ জুলাই আদালত সেটিকে খারিজ করে দেন বলে জানান আকলিমা বেগম। যদিও হয়রানির উদ্দেশ্যে দ্বিতীয়বার আবারও মিথ্যা অভিযোগ এনে আকলিমা বেগমের বিরুদ্ধে মোকদ্দমা দায়ের করেন আল আমিন।

ভুক্তভোগী আকলিমা বেগম বলেন, আমার বাপ দাদারা আল আমিন কাজীর দাদার কাছ থেকে বাড়ির করার জন্য ২৮ শতাংশ জায়গা কিনেন। বর্তমানে আমাদের দখলে আছে ১৪ শতাংশ। কিন্তু বাকি ১২ শতাংশ জায়গা তারা আমাদের বুঝিয়ে দিচ্ছে না। ওই জায়গা নিতে হলে দুই লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেন আল আমিন কাজী। চাঁদা দাবি করায় আল আমিন কাজীর বিরুদ্ধে আদালতে চাঁদাবাজির মামলা দায়ের করেছি।

একই জায়গা ফেরত না দেওয়ায় আকলিমা বেগমের বড় ভাই অপর ভুক্তভোগী মো. আলী হোসেন বাদী হয়ে আল আমিন কাজীসহ তার সহযোগীদের বিরুদ্ধে ২নং জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত, কিশোরগঞ্জে গত ২২ মে একটি মামলা দায়ের করেছেন।

ভুক্তভোগী মো. আলী হোসেন বলেন, পৈত্রিক ওয়ারিশ সূত্রে প্রাপ্ত নালিশা ভূমির চারিদিকে বাউন্ডারি দেয়াল ও ইমারত নির্মাণসহ গাছপালা রোপণের মাধ্যমে আমরা ভোগদখল করছি। দীর্ঘদিন ধরে ওই জায়গায় বেদখলের জন্য আল আমিন কাজী আমাদের হুমকি প্রদানসহ চাঁদা দাবি করে আসছিলেন। মূলত এরই জেরে গত ২২ মে বিবাদীগণ দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে আমার জমিতে অনধিকার প্রবেশ করে চাঁদা দাবি করেন এবং বাউন্ডারি দেয়ালে ভাঙচুর চালান।

অভিযুক্ত আল আমিন কাজী বলেন, তারা আমার দাদার কাছ থেকে জায়গা কিনেছেন, সেই হিসেবে তারা আমাদের দাদার কাছ থেকে নিবেন, আমরা কেন দিব? আর আমরা মামলা করেছি আদালতে, তাই আমরা মামলাতেই শেষ করব। এ সময় তিনি চাঁদা দাবির বিষয়টি অস্বীকার করেন।

স্থানীয় কাউন্সিলর হাজী মনির হোসেন জানায়, বিষয়টি ভৈরব পৌরসভার মেয়র মহোদয়কে অবগত করেছি। আমি আল আমিন কাজীকে তার কাগজপত্র নিয়ে আসার জন্য বলেছি। কিন্তু সে আজ নয় কাল করতে করতে সময় ক্ষেপণ করছেন। তাকে দরবারে বসার জন্য বলা হলে সে বসতে রাজি হয় না। পরে সে আদালতে গিয়ে ১৪৪ ধারার জারি করান। দুই পক্ষই আদালতের দ্বারস্থ হয়ে ১৪৪ ধারা জারি করান। কিন্তু সে আকলিমার বাড়ির কাজ বন্ধ করে নিজের বাড়ির নির্মাণ কাজ ঠিকই করেছেন।

এ বিষয়ে ভৈরব থানার এএসআই আবদুল করিম জানান, দুই পক্ষেরই আদালতে মামলা রয়েছে। আদালত শান্তি শৃঙ্খলা বজায় রাখতে উভয় পক্ষের বিরুদ্ধে ১৪৪/১৪৫ ধারা জারি করেছেন। আদালতের আদেশ অনুযায়ী দুই পক্ষকে নোটিশ প্রদান করা হয়েছে।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো. তাজবীর হোসাইন  

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড