• শনিবার, ২০ আগস্ট ২০২২, ৫ ভাদ্র ১৪২৯  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

জনবল সংকটে প্রাণিসম্পদ দফতরে স্বাস্থ্যসেবা থেকে বঞ্চিত খামারিরা

  ইয়ার হোসেন সোহান, ঝিকরগাছা (যশোর)

২২ জুলাই ২০২২, ০২:১১
জনবল সংকটে প্রাণিসম্পদ দফতরে স্বাস্থ্যসেবা থেকে বঞ্চিত খামারিরা
প্রাণিসম্পদ দফতর (ছবি : অধিকার)

যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলা প্রাণিসম্পদ দফতর ও ভেটেরিনারি হাসপাতালে দীর্ঘদিন ধরে জনবল সংকট রয়েছে। ফলে, প্রাণিসম্পদ স্বাস্থ্যসেবা থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন খামারি-উদ্যোক্তারা।

কর্তৃপক্ষের দেওয়া তথ্যানুযায়ী, ১১টি পদের মধ্যে ৬টি পদ দীর্ঘদিন ধরে শূন্য রয়েছে। শূন্যপদ গুলো যথাক্রমে- ভেটেরিনারি সার্জন (ভিএস) একজন, উপজেলা লাইভ-ষ্টক অফিসার (ইউএলএ) একজন, কৃত্রিম প্রজনন সহকারী (ভিএফএ) দুইজন, কম্পাউন্ডার একজন, এমএলএসএস একজন। এ দিকে গবাদিপশুর প্রাণঘাতী রোগের প্রতিষেধক (পিপিআর) ভ্যাকসিন না থাকায় ঝুঁকির আশংকা করছেন খামারিরা।

এ দিকে কর্তৃপক্ষের দাবি, চাহিদাপত্র পাঠালেও এখনো বরাদ্দ পাওয়া যায়নি। তবে, অন্যান্য ঔষধ ও প্রতিষেধক ভ্যাকসিনের মজুদ ও চিকিৎসা সেবা প্রদান স্বাভাবিক রয়েছে। অপর দিকে খামারিদের অভিযোগ, তারা প্রত্যাশিত চিকিৎসা সেবা ও ঔষধ পাচ্ছে না। সময় মতো ডাক্তার না থাকায় পরামর্শ ও চিকিৎসা পাওয়া যায় না।

পৌরসদর পায়রাডাঙ্গা গ্রামের পোল্ট্রি খামারি গাজী পোট্রি খামারের স্বত্বাধিকারী রফিকুল ইসলাম আক্ষেপ করে বলেন, খামারে বর্তমানে দুইহাজার ব্রয়লার ও আড়াই হাজার লেয়ার মুরগী আছে। উৎপাদিত ডিমের বাজারমূল্যের তুলনায় মুরগীরবাচ্চা, প্রতিষেধক ও খাদ্যের উচ্চমূল্যে আমরা দিশেহারা। দিনকে দিন খাদ্যের সাথে ঔষধ ও বাচ্চার দাম লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে। সেই তুলনায় ডিম-মাংসের দাম পাচ্ছি না। এরপরও খামারিদের উপর বিধিনিষেধ চাপিয়ে দেওয়ায় ক্রমবর্ধমান লোকসান, হয়রানি ও নাজেহাল অবস্থায় আছি।

পরিবেশ অধিদফতরের ছাড়পত্র, প্রাণিসম্পদের নিবন্ধন ও নবায়ন, কৃষি বিভাগের প্রত্যায়ন পত্র ও আয়কর সনদ ইত্যাদির পাশাপাশি নিরবচ্ছিন্ন বিদ্যুতের নিশ্চয়তা পাচ্ছি না। ফলে, দুঃশ্চিন্তা ও ঝুঁকির মধ্যে আছি। সুমন পোল্ট্রি ফার্মের স্বত্বাধিকারী মশিয়ার রহমান ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, খামারে এখন তিন হাজার মুরগি রয়েছে।

এ ব্যাপারে উপজেলা প্রাণিসম্পদ অফিসার ডা. জি. এম. আব্দুল কুদ্দুস বলেন, আন্তরিকতা থাকা স্বত্বেও জনবল, ঔষধ ও প্রতিষেধক প্রয়োজনের তুলনায় প্রাপ্তি অপ্রতুল হওয়ায় সেবা প্রত্যাশী খামারি ও গৃহস্থলী গবাদিপশু পালনকারী সবাইকে খুশি করা সম্ভব হয়ে ওঠে না। উপজেলা প্রাণিসম্পদ অধিদফতরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী উপজেলা গবাদি পশু গরুর সংখ্যা ৯৮ হাজার পাঁচশ বিশটি। এর মধ্যে দেশিগরু ৫৫ হাজার ৩৩০টি ও সংকর জাতের গরু ৪৩ হাজার ১শ’ ৯০টি। গাভী ৪০ হাজার ৬ ৪০টি। এর মধ্যে দেশি গাভী ২৬ হাজার ৪শ ৬০টি ও সংকর জাতের গাভী ১৪ হাজার২২০টি। সক্ষম গাভী ৩৬ হাজার ৫১০টি। এর মধ্যে দেশি ২৩ হাজার ৭২০টি ও সংকর জাতের ১২ হাজার ৭৯৮টি। ছাগলের সংখ্যা এক লাখ ৩০ হাজারটি। আর ভেড়া ১০৪টি। খামারির সংখ্যা গাভী ৬২টি, হৃষ্টপুষ্ট করণ ১২০টি, ছাগল ১৫৭টি ও ভেড়া ১টি। পোল্ট্রি খামারির সংখ্যা লেয়ার ২০টি, ব্রয়লার ৫৫, হাঁস ২২, কবুতর ১০ ও কোয়ের ৫টি।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো. তাজবীর হোসাইন  

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড