• শনিবার, ২০ আগস্ট ২০২২, ৫ ভাদ্র ১৪২৯  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

শিক্ষক হত্যার প্রধান আসামী জিতু স্কুল থেকে বহিষ্কার

  শাকিল শেখ, আশুলিয়া

০১ জুলাই ২০২২, ১৪:১৬
জিতু

ঢাকার আশুলিয়ায় আলোচিত শিক্ষক উৎপল কুমার সরকার হত্যার প্রধান খুনি আশরাফুল ইসলাম জিতুকে স্কুল থেকে বহিষ্কার করেছে কর্তৃপক্ষ।

শুক্রবার (১ জুলাই) বেলা ১১টার দিকে বহিষ্কারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন হাজী ইউনুস আলী স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ সাইফুল ইসলাম।

এর আগে র‌্যাব তাকে গাজীপুর থেকে গ্রেপ্তার করে থানায় হস্তান্তর করলে রিমান্ড চেয়ে তাকে আদালতে পাঠানো হয়। বর্তমানে জিতু পাঁচ দিনের রিমান্ডে রয়েছেন। একই সঙ্গে জিতুর বাবা উজ্জ্বল হাজীও পাঁচ দিনের রিমান্ডে রয়েছেন।

এ ব্যাপারে হাজী ইউনুস আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ সাইফুল ইসলাম বলেন, শিক্ষক উৎপল হত্যাকারী জিতুকে স্কুল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। আমরা ঘটনার পরই তাকে স্কুল থেকে বহিষ্কার করি। পাশাপাশি এই শিক্ষার্থীর সর্বোচ্চ শাস্তি দাবি করছি। আমাদের সঙ্গে সাভারের বেশির ভাগ স্কুল এন্ড কলেজ একাত্মতা প্রকাশ করেছে।

প্রসঙ্গত, গত শনিবার (২৫ জুন) দুপুরে আশুলিয়ার চিত্রশাইল এলাকায় হাজী ইউনুস আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজের মাঠে শিক্ষক উৎপলকে স্টাম্প দিয়ে আঘাত করেন জিতু। পরে শিক্ষককে উদ্ধার করে সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে সোমবার (২৭ জুন) চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

এ ঘটনায় রোববার আশুলিয়া থানায় নিহত শিক্ষকের ভাই বাদী হয়ে মামলা করেন। এরপর থেকেই বিক্ষোভে উত্তাল হয়ে পড়েন শিক্ষার্থী ও শিক্ষকরা। সব শেষ গত ২৮ জুন রাতে জিতুর বাবা ও ৩০ জুন জিতুকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব ও পুলিশ। জিতু ও জিতুর বাবা উজ্জ্বল হাজীর পাঁচ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। একই সঙ্গে ওই প্রতিষ্ঠানের ম্যানেজিং কমিটি বাতিল করা হয়েছে।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো. তাজবীর হোসাইন  

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড