• বৃহস্পতিবার, ৩০ জুন ২০২২, ১৬ আষাঢ় ১৪২৯  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

বাদীর বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে পাল্টা মামলা

  সোহেল রানা, সিরাজগঞ্জ

২২ মে ২০২২, ১৯:১৪
বাদীর বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে পাল্টা মামলা
সিরাজগঞ্জের সলঙ্গায় ১০ লাখ চাঁদা দাবি করে না পেয়ে ভেকু মেশিন দিয়ে নির্মাণাধীন বহুতল ভবনের ভাঙা অংশ (ছবি: অধিকার)

সিরাজগঞ্জের সলঙ্গা থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে নির্মাণাধীন বহুতল ভবন ভাঙচুর ও চাঁদাবাজির অভিযোগে দ্রুত বিচার আইনে মামলার করার পর এবার ওই মামলার বাদী ও সাক্ষীর বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করা হয়েছে।

রবিবার (২২ মে) সকালে আগের মামলার আসামি সলঙ্গা থানা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক রিয়াদুল ইসলাম ফরিদ সরকার বাদী হয়ে জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট (আমলী) আদালতে মামলাটি দায়ের করেন বলে বাদী পক্ষের আইনজীবী এ্যাড: আব্দুল আজিজ জানান।

তিনি বলেন, আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে সিরাজগঞ্জ ডিবি পুলিশকে তদন্তপূর্বক প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন।

মামলায় নির্মাণাধীন বহুতল ভবন ভাঙচুর ও চাঁদাবাজি মামলার বাদী স্কুল শিক্ষিকা জাকিয়া সুলতানা এবং তার বাবা ঘুড়কা ইউপির চেয়ারম্যান ও সলঙ্গা থানা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি জিল্লুর রহমান সরকারকে আসামি করা হয়েছে।

মামলার বাদীর অভিযোগ, শিক্ষিকা জাকিয়া সুলতানা সলঙ্গা বাজারের ধান হাটায় জনসাধারণের চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে অবৈধভাবে স্থাপনা নির্মাণ করছিল। এলাকার জনগণ তার নির্মাণাধীন অবৈধ স্থাপনা ভেঙ্গে দিয়েছে। এ ঘটনায় জাকিয়া সুলতানা গত সোমবার নিজে বাদী হয়ে সলঙ্গা থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি রায়হান গফুর, সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমান লাভু ও যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক রিয়াদুল ইসলাম ফরিদসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন।

পরবর্তীতে জাকিয়া সুলতানা উল্লেখিতদের নামে মিথ্যা, বানোয়াট ও মানহানিকর ভিডিও তৈরি তার ফেইসবুকে পোস্ট করে প্রচার করেন। ওই ভিডিওটি তার বাবা ঘুড়কা ইউপি চেয়ারম্যান জিল্লুর রহমান সরকারও তার ফেসবুকে শেয়ার করেন। এতে মামলার বাদীসহ সলঙ্গা থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের মানহানি হয়েছে। যে কারণে বাদী ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করেছেন।

আগের মামলায় অভিযোগ করা হয়েছিল, সাড়ে ৩ শতক জায়গায় বহুতল ভবন নির্মাণ করার সময় সলঙ্গা থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি রায়হান গফুর, সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমান লাভু ও সলঙ্গা থানা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক রিয়াদুল ইসলাম ফরিদ সরকার বাদী জাকিয়া সুলতানার কাছে ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেছিল।

চাঁদা দিতে অস্বীকার করায় শনিবার (১৪ মে) সন্ধ্যায় মামলার এজাহারভুক্ত আসামিরাসহ অজ্ঞাতনামা ১০/১৫ জন ঘটনাস্থলে পৌঁছে ভেকু মেশিন দিয়ে বাদীর নির্মাণাধীন ভবনের সামনের অংশ ভেঙ্গে ফেলেছেন। এতে বাদীর ৫০ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে। যে কারণে তিনি গত সোমবার দ্রুত বিচার আইনে আদালতে মামলা করেন।

এ ব্যাপারে সলঙ্গা থানা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ও ঘুড়কা ইউনিয়ন পরিষেদর চেয়ারম্যান আলহাজ্ব জিল্লুর রহমান সরকার বলেন, আমার মেয়ে সলঙ্গা বাজারে সাড়ে ৩ শতক জায়গায় বহুতল ভবন নির্মাণ করার সময় সলঙ্গা থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি রায়হান গফুর, সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমান লাভু ও সলঙ্গা থানা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক রিয়াদুল ইসলাম ফরিদ সরকার বাদী জাকিয়া সুলতানার কাছে ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেছিল।

আরও পড়ুন: লিজ ছাড়াই আমবাগান দখল করল ছাত্রলীগ

চাঁদা দিতে অস্বীকার করায় শনিবার (১৪ মে) সন্ধ্যায় মামলার এজাহারভুক্ত আসামিরাসহ অজ্ঞাতনামা ১০/১৫ জন ঘটনাস্থলে পৌছে ভেকু মেশিন দিয়ে বাদীর নির্মানাধীন ভবনের সামনের অংশ ভেঙ্গে ফেলেছেন। এর প্রতিবাদ করার জন্যই তারা আমার ও আমার মেয়ের নামে আক্রোশমূলক ভাবে মামলাটি করেছে।

ওডি/এমকেএইচ

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- inbox.odhika[email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড