• বৃহস্পতিবার, ২০ জানুয়ারি ২০২২, ৬ মাঘ ১৪২৮  |   ২০ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

নামের ভুলে ফাঁসির রায়, পুনঃবিবেচনার দাবি

  এসএম রাসেল, মাদারীপুর

০২ ডিসেম্বর ২০২১, ২১:১২
মহাসড়ক অবরোধ
মহাসড়ক অবরোধ (ছবি : অধিকার)

মাদারীপুরে নামের ভুলের কারণে শিশু হত্যা মামলায় ফাঁসির রায়ে দণ্ডিত হয়ে মৃত্যুর প্রহর গুনছে ইমন গাছী। সে মাদারীপুরের রাজৈর উপজেলার কোদালিয়া বাজিতপুর গ্রামের মুহিত গাছীর ছেলে। এখন সে মাদারীপুর কারাগারে বন্দী।

বৃহস্পতিবার (২ ডিসেম্বর) ইমনের এই রায় পুনঃবিবেচনা ও শর্তবিহীন মুক্তির দাবিতে বাজিতপুর বাজার থেকে সাধুরব্রীজ পর্যন্ত মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ করে ইমনের পরিবার ও এলাকাবাসী।

সমাবেশে বক্তারা জানান, ২০১৫ সালের ২০ সেপ্টেম্বর রাজৈর উপজেলার খালিয়া ইউনিয়নের সেনদিয়া গ্রামের টুকু সরদারের মেয়ে আদুরী হত্যা সংঘটিত হয়। এই হত্যা মামলার রায় ঘোষিত হয় ২০২১ সালের ২৯ নভেম্বর। রায়ে ৩ জনকে ফাঁসির আদেশ ঘোষণা করেন মাদারীপুর জেলা ও দায়রা জজ কোর্টের বিচারক নিতাই চন্দ্র সাহা।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলো, পিরোজপুর জেলার ভৈরমপুর গ্রামের রফিকুল ইসলাম মোল্লার ছেলে শফিকুল ইসলাম মোল্লা, রাজৈর উপজেলার কেদালিয়া বাজিতপুর গ্রামের মুহিত গাছীর ছেলে রিমন হোসাইন ওরফে (ইমন গাছী- নাম ভুলের শিকার) এবং পশ্চিম সরমঙ্গল গ্রামের রফিক হাওলাদারের ছেলে রাজীব হাওলাদার। কিন্তু ইমন গাছীর নাম রিমন হোসাইন কোথাও নেই। তার জাতীয় পরিচয়পত্র, পাসপোর্টে নাম ইমন গাছী। তাকে ষড়যন্ত্রমূলকভাবে এ মামলার আসামি করা হয়েছে।

বক্তারা আরও জানান, পুনঃতদন্তের মাধ্যমে রায় পুনঃবিবেচনার জন্য সরকারের কাছে দাবি জানাই।

সমাবেশে বক্তব্য রাখেন জেলা যুবলীগের সদস্য ছানোয়ার হাওলাদার, আওয়ামী লীগ নেতা লুৎফর রহমান, ইমন গাছীর মা নার্গিস বেগম, স্ত্রী চম্পা বেগম, সাবেক সদস্য কালাচান মাতুব্বর প্রমুখ।

আরও পড়ুন : দুই যুগেও শান্তি আসেনি পাহাড়ে

সমাবেশ শেষে এলাকাবাসী বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে ভারত ব্রিজের কাছে ঢাকা-বরিশাল মহাসড়ক অবরোধ করে।

ওডি/এএম

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড