• বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১, ৫ কার্তিক ১৪২৮  |   ২৬ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

মঠবাড়িয়ায় হত্যাচেষ্টা মামলা তুলে নিতে গৃহবধূকে হুমকি, থানায় জিডি

  মো. রুম্মান হাওলাদার, পিরোজপুর

০৫ অক্টোবর ২০২১, ২০:৪১
হামলা
হামলার ঘটনায় আহতরা। ছবি : অধিকার

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলায় হত্যাচেষ্টার মামলা তুলে নিতে গৃহবধূকে হুমকির অভিযোগ উঠেছে।

এ ঘটনায় জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে সোমবার (৪ অক্টোবর) থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন ভুক্তভোগী গৃহবধূ।

জানা গেছে, পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলায় জমি চাষের বকেয়া টাকা চাইতে গেলে সম্প্রতি টিলার চালক লিটন (৪০) ও তার বড় ভাই মধুসহ (৫০) তিনজনকে কুপিয়ে হত্যাচেষ্টা করে প্রতিপক্ষ ও প্রবাসী রাসেল এবং তার দলবল। এ ঘটনায় আহত মধু মিয়ার স্ত্রী রাশেদা বেগম বাদী হয়ে থানায় একটি হত্যাচেষ্টা মামলা দায়ের করেন। মামলার পর মূল অভিযুক্তরা গত ১৫ দিনেও গ্রেফতার হয়নি।

এ দিকে, আসামিরা বাদীকে মামলা তুলে নিতে নানা ধরনের চাপ প্রয়োগসহ পুনরায় হামলাসহ মিথ্যা মামলায় জড়িয়ে হয়রানি করার হুমকি দিচ্ছে বলেও অভিযোগ পাওয়া গেছে। ফলে এ মামলার বাদী ও সাক্ষীরা পুনরায় হামলার শিকার হওয়া ও মিথ্যা মামলায় আসামি হওয়ার বিষয়ে আতঙ্কিত রয়েছেন।

এ ঘটনায় সোমবার মামলার বাদী ও গৃহবধূ রাশেদা বেগম নিজেরসহ অন্য সাক্ষীদের জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেছেন।

জিডি ও ভুক্তভোগীর পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, উপজেলার লক্ষনা গ্রামের মৃত লাল মিয়ার ছেলে ও ট্রাক্টরচালক লিটন মিয়া চলতি আমন মৌসুমের শুরুতে স্থানীয় দক্ষিণ গুলিশাখালী গ্রামের কামাল হাওলাদারের ছেলে ও প্রবাসী রাসেলের ৪ একর জমি চাষ করেন। পরবর্তীকালে এই জমি চাষের ১০ হাজার টাকা দিতে রাসেল নানা তালবাহানা শুরু করেন। একপর্যায় গত ২১ সেপ্টেম্বর দুপুরে দরিদ্র লিটন মিয়া জমি চাষের বকেয়া টাকা চাইতে গেলে দুই পক্ষ বাকবিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়ে। এ সময় রাসেলসহ তার ছোট ভাই ও বাবা পূর্ব পরিকল্পিতভাবে হামলা চালালে ট্রাক্টরচালক লিটন (৪০), তার বড় ভাই মধু মিয়া (৫০) এবং স্ত্রী শান্তা (৩০) গুরুতর আহত হয়।

পরে স্থানীয়রা গুরুতর আহতাবস্থায় তাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। এরমধ্যে গুরুতর জখম লিটনের অবস্থার অবনতি হলে পরের দিন তাকে শেবাচিম হাসপাতালে প্রেরণ করা জয়। পরবর্তীকালে ওই ঘটনায় আহত মধু মিয়ার স্ত্রী মোসা. রাশেদা বেগম বাদী হয়ে রাসেলসহ তার ভাই সোহেল (২৫) ও বাবা কামাল (৫৬) ছাড়াও পাঁচজনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরও ৪ থেকে ৫ জন আসামি করে আলোচিত ওই হত্যাচেষ্টা মামলা দায়ের করেন। তবে ঘটনার গত ১৫ দিনেও পুলিশ অভিযুক্তদের গ্রেফতার করতে পারেনি বলে জানিয়েছে ভুক্তভোগী পরিবার।

আরও পড়ুন : হুইলচেয়ারই জীবনসঙ্গী, অদম্য ইচ্ছাশক্তিতেই শিক্ষকের গুরুদায়িত্বে তিনি

জিডিতে মামলার বাদী রাশেদা বেগম অভিযোগ করেন, আমার স্বামী, দেবর ও জা-কে আহত করার ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করলে আসামি রাসেল ও তার প্রভাবশালী বাবা কামাল হাওলাদারসহ অন্যরা মামলা তুলে নিতে পথে-ঘাটে প্রায়ই হুমকি দিচ্ছে। এমনকি এ মামলা তুলে না নিলে পুনরায় হামলাসহ মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করারও হুমকি দিচ্ছে। ফলে আমার গোটা পরিবার নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে।

দৈনিক অধিকারকে জিডির সত্যতা নিশ্চিত করে মঠবাড়িয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মুহা. নুরুল ইসলাম বাদল বলেন, আসামিদের গ্রেফতারে পুলিশের চেষ্টা অব্যাহত আছে। এ ছাড়া বাদী ও সাক্ষীদের হুমকির বিষয়টি তদন্ত করে পরবর্তী আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

ওডি/নিলয়

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড