• সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২ আশ্বিন ১৪২৮  |   ৩০ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

ভারতে সয়াবিন রফতানিতে ক্ষতির সম্মুখীন পোল্ট্রি শিল্প

  জাহিরুল মিলন, শার্শা (যশোর)

১৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৭:০৫
যশোর, শার্শা
(ছবি : দৈনিক অধিকার)

ডেইরি ও পোলট্রি ফিডের জন্য আমদানি করা সয়াবিন বেনাপোল বন্দর দিয়ে রফতানি হচ্ছে ভারতে। বাংলাদেশ থেকে এসব সয়াবিন আমদানি করে পোল্ট্রি ফিড তৈরি করছেন ভারতীয় ব্যবসায়ীরা। ফলে ঝুঁকিতে আছে দেশের ডেইরি ও পোল্ট্রি শিল্প।

রবিবার (৫ সেপ্টেম্বর) কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের (উদ্ভিদ সঙ্গনিরোধ উইং) পরিচালক মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেনের সই করা এক আদেশে বাংলাদেশ থেকে সয়াবিন রফতানিতে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়।

নিষেধাজ্ঞায় বলা হয়, প্রাণিসম্পদ সেক্টরে ডেইরি ও পোল্ট্রি ফিডে সয়াবিন একটি অন্যতম উপদান। দেশীয় বাজারে বাৎসরিক সয়াবিনের প্রাপ্যতার ঘাটতি রয়েছে। দেশে ডেইরি ও পোল্ট্রি সেক্টরের চাহিদা মেটাতে বছরে প্রায় ১৫ লাখ মেট্রিক টন সয়াবিন প্রয়োজন। যার বেশিরভাগই আমদানি করতে হয়। সয়াবিন রফতানি করলে দেশে ডেইরি ও পোল্ট্রি শিল্পে বড় ধরনের প্রভাব পড়বে। বাড়বে পোট্রি ফিডের দাম।

নিষেধাজ্ঞা জারির পরই সব ধরনের সয়াবিন রফতানি বন্ধ করে দেয় বেনাপোল কাস্টমস কর্তৃপক্ষ। এর ফলে বন্দর এলাকায় প্রায় দুই কিলোমিটার জুড়ে সড়কের ওপর সৃষ্টি হয় যানজট।

বৃহস্পতিবার (৯ সেপ্টেম্বর) মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেনের সই করা অন্য এক আদেশে সয়াবিন রফতানির ওপর নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করা হয়। নিষেধাজ্ঞা জারির পর বিষয়টি নিয়ে বিব্রতকর অবস্থায় পড়ে বেনাপোল কাস্টমস কর্তৃপক্ষ।

এ বিষয়ে আমদানিকারক ব্যবসায়ী অব্দুল লতিফ বলেন, বিদেশ থেকে আমদানি করা সয়াবিন দেশের চাহিদা না মিটিয়ে বিদেশে রফতানি করায় ডেইরি ও পোল্ট্রি শিল্প মারাত্মক ঝুঁকির মুখে পড়েছে। বেনাপোল বন্দর দিয়ে প্রতিদিন কয়েক শ ট্রাক সয়াবিন ভারতে রফতানি হচ্ছে। দেশের ডেইরি ও পোল্ট্রি শিল্পকে বাঁচাতে এই মুহূর্তে সয়াবিন রফতানি বন্ধ করা জরুরি।

পোলিট্র ফিড আমদানিকারক খুরশিদ জাহান বলেন, সয়াবিন রফতানির ফলে দেশীয় ডেইরি ও পোল্ট্রি শিল্প ঝুঁকিতে পড়বে। দেশীয় পোল্ট্রি ফিডের মূল্য বেড়ে যাবে। আমরা সয়াবিন রফতানি বন্ধের জোর দাবি জানাচ্ছি।

আনোয়ার হোসেন বলেন, প্রথম চিঠির পর আমরা আরও একটি চিঠি ইস্যু করে ফের রফতানির অনুমতি দিয়েছি। লাইফ স্টকের ডিজি সয়াবিন রফতানির বিষয়টি নিরুৎসাহিত করার পক্ষে আমাদের অবহিত করেছেন। আমি বাধ্য হয়ে আবারও রফতানির অনুমতি দিয়েছি। ফলে দেশীয় বাজারে ডেইরি ও পোল্ট্রি ফিডের দাম কেজি প্রতি ১৫-২০ টাকা বেড়েছে, আরও বাড়তে পারে।

আরও পড়ুন : বকশীগঞ্জে পল্লী উদ্যোক্তাদের মাঝে ঋণ বিতরণ

বেনাপোল কাস্টম হাউসের ডেপুটি কমিশনার শামিমুর রহমান বলেন, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতর খামারবাড়ি থেকে সয়াবিন রফতানি বন্ধের জন্য বেনাপোল কাস্টমস হাউসকে চিঠি দেওয়া হয়েছে। একই অফিস থেকে আরও চিঠি পাঠিয়ে সয়াবিন রফতানির ওপর নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়। দেশীয় পোল্ট্রি ও ডেইরি ফিডের একটি অন্যতম উপাদান সয়াবিন। যার বেশিরভাগ বিদেশ থেকে আমদানি করা হয়।

ওডি/এফই

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড