• সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২ আশ্বিন ১৪২৮  |   ৩১ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

নৌ দুর্ঘটনায় নিহতদের পরিবারে শোকের মাতম, মেলেনি নিখোঁজদের সন্ধান

  মো. খাদেমুল ইসলাম, দেওয়ানগঞ্জ, জামালপুর

১০ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২২:০৪
শোকের মাতম
নৌ দুর্ঘটনায় নিহতদের পরিবারে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। ছবি : দৈনিক অধিকার

জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জ উপজেলায় নৌকা থেকে পানিতে পড়ে নিহত দুইজনসহ নিখোঁজ পাঁচ জনের পরিবারে চলছে শোকের মাতম। স্বজন হারানোর শোকে তারা মুহ্যমান। দুর্ঘটনায় নিহত দুই জনের লাশ ঘটনার পর উদ্ধার করা গেলেও এখনো নিখোঁজ পাঁচ জনের সন্ধান পাওয়া যায়নি।

শুক্রবার (১০ সেপ্টেম্বর) নিহতদের লাশ স্থানীয়ভাবে দাফন করা হয়েছে বলে জানা গেছে।

নৌ দুর্ঘটনায় নিহতরা হলেন- উপজেলার খড়মা মধ্যপাড়া গ্রামের মো. জব্বার আলীর স্ত্রী ফুল বেগম (৫৫) ও পার্শ্ববর্তী উপজেলা ইসলামপুরের পাথর্শী গ্রামের মো. জহির উদ্দিনের স্ত্রী জলিমন বেগম।

এ দিকে, নিখোঁজ পাঁচজন হলেন- দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার খড়মা মধ্যপাড়া গ্রামের মৃত অহিজ উদ্দিনের ছেলে আব্দুস সাত্তার (৬০), ওমর আলীর স্ত্রী সুফি বেগম (৫০), তোতা মিয়ার ছেলে জাহিদ হোসেন (৮), মিন্টু হোসেনের স্ত্রী হেলেনা খাতুন (২৫) ও তার ছেলে ইয়াছিন (৭)। এখনো তাদের কোনো সন্ধান পাওয়া যায়নি।

এ দিকে, সরেজমিনে নিহত ও নিখোঁজদের বাড়িতে গেলে শোকের মাতম দেখা যায়। স্বজন হারিয়ে বাকরুদ্ধ অনেকেই। নিখোঁজরা জীবিত ফিরে আসুক এমন প্রত্যাশা তাদের মনে।

ওই ঘটনায় নৌকা থেকে পড়ে বেঁচে যান নিহত ফুল বেগমের স্বামী ও উপজেলার খড়মা মধ্যপাড়া গ্রামের আব্দুল জব্বার। তিনি জানান, নৌকা থেকে পড়ে যাওয়া অনেককে আমি উদ্ধার করেছি। কাকে কাকে উদ্ধার করেছি তা জানা বা দেখার কোনো পরিস্থিতি ছিল না। তবে আমার স্ত্রীকে আমি উদ্ধার করতে পারিনি।

এ ব্যাপারে দেওয়ানগঞ্জ সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. সামিউল হক জানান, দেওয়ানগঞ্জ থেকে বাঁশ পরিবহনকারী একটি নৌকা যাত্রী নিয়ে সিরাজগঞ্জের এনায়েতপুর দরবার শরীফে যাচ্ছিলেন। শুনেছি চৌহলী স্পার এলাকায় নৌকাবোঝাই বাঁশ বেঁধে রাখা রশি ছিঁড়ে গিয়ে বাঁশের ওপর থাকা কিছু লোক নদীতে পড়ে যায়। এতে সাঁতার জানা কয়েকজন তীরে ওঠতে পারলেও ৭ জন যাত্রী উঠতে পারেনি। এদের মধ্যে দুজন নারীর মৃতদেহ স্থানীয়রা উদ্ধার করেন। বাকি পাঁচজন এখনো নিখোঁজ রয়েছে। কিছুক্ষণ পূর্বে একজনের দাফন সম্পন্ন হয়েছে বলেও জানান তিনি।

আরও পড়ুন : খাগড়াছড়িতে ছেলের দায়ের কোপে জীবনপ্রদীপ নিভল বাবার

উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার বিকালে একটি বাঁশভর্তি নৌকায় করে উপজেলার খড়মা মধ্যপাড়া গ্রামের শেখেন মিজির নেতৃত্বে ৩০ থেকে ৪০ জনের একটি দল দেওয়ানগঞ্জ থেকে সিরাজগঞ্জের এনায়েতপুর দরবার শরীফে যাচ্ছিলেন। সিরাজগঞ্জ চৌহলী উপজেলার স্পার এলাকায় পৌঁছালে নৌকাটি ঘাটে ভেড়ার আগ মুহূর্তে নদী পাড়ের পাইলিংয়ের খুঁটির সাথে ধাক্কা লাগে। এতে নৌকায় বেঁধে রাখা বাঁশের রশি ছিঁড়ে কিছু বাঁশ নদীতে পড়ে যায়। সে সময় ওই বাঁশের ওপর থাকা কয়েকজন যাত্রীও নৌকা থেকে পানিতে পড়ে যায়।

ওই ঘটনার পর দুইজনকে মৃত অবস্থায় উদ্ধার করা গেলেও নিখোঁজ পাঁচ জনকে এখন পর্যন্ত উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।

ওডি/আইএইচএন

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

সহযোগী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড