• শনিবার, ৩১ জুলাই ২০২১, ১৬ শ্রাবণ ১৪২৮  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

বাঁশখালীতে অবৈধ দোকান উচ্ছেদ

  শিব্বির আহমদ রানা, বাঁশখালী (চট্টগ্রাম)

১৫ জুলাই ২০২১, ০৮:৫৫
ছবি : দৈনিক অধিকার

চট্টগ্রামের বাঁশখালীতে ভূমি অফিসের জায়গা জবরদখল করে গড়ে উঠা অর্ধশতাধিক দোকানপাট উচ্ছেদ করেছে উপজেলা প্রশাসন।

বুধবার (১৪ জুলাই) সকালে উপজেলার কালীপুর ইউনিয়নের গুনাগরী বাজার এলাকায় উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মুহাম্মদ মাজহারুল ইসলাম চৌধুরীর নেতৃত্বে অবৈধভাবে গড়ে উঠা দোকানপাট উচ্ছেদে এ অভিযান পরিচালিত হয়।

এ অভিযানে ইউনিয়ন ভূমি অফিসের জায়গা দখল করে গড়ে উঠা ছয়টি মুরগীর দোকান ও মুদির দোকান, চায়ের দোকান, পানের ও মাছের দোকানসহ অর্ধশতাধিক দোকান উচ্ছেদ করা হয়।

এ সময় উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মুহাম্মদ মাজহারুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, ভূমি অফিসের জায়গায় বাজার ইজারা দেওয়া হয়নি। ভূমি অফিসের জায়গা দখল করার কোন সুযোগ নেই। পূর্বের ন্যায় বাজার যতটুকু ছিল তাতে বাজার বসবে। ভূমি অফিসের সামনে প্রধান সড়ক দখল করে গড়ে উঠা ফলের দোকানগুলো নিজ নিজ দায়িত্বে সরিয়ে নেওয়ার জন্য বলেন। পরবর্তীতে ভূমি অফিসের জাগায় দখল করে দোকান নির্মাণ, গাড়ী রাখা হলে কঠোরভাবে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানান তিনি।

অভিযান পরিচালনা কালে উপস্থিত ছিলেন- বাঁশখালী চেয়ারম্যান সমিতির সভাপতি ও কালীপুর ইউপি চেয়ারম্যান এড. আ.ন.ম শাহাদত আলম ও আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা।

উল্লেখ্য, গুনাগরি ভূমি অফিসের জায়গা দখল করে অর্ধশতাধিক দোকান নির্মাণ করে বিভিন্ন ব্যবসায়ীদের কাছে টাকার বিনিময়ে দখল বিক্রি করেন কথিত ইজারাদার। অস্থায়ী গুনাগরী বাজার ২০২১-২০২২ সালের ইজারাদার কর্তৃক নতুন করে ভূমি অফিসের জায়গা দখল করে নির্মাণ করা হয় ওই দোকানগুলি।

ওডি/এমএ

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড