• মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল ২০২১, ৩০ চৈত্র ১৪২৭  |   ৩৩ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

বাঁশখালীতে সাঁকো থেকে পড়ে শিশুর মৃত্যু

  শিব্বির আহমদ রানা, বাঁশখালী (চট্টগ্রাম)

০৬ এপ্রিল ২০২১, ১৬:৪৪
শিশু
নিহত মাদরাসা পড়ুয়া শিশু মু. শাহাদাত মিয়া (৬) (ছবি : দৈনিক অধিকার)

চট্টগ্রামের বাঁশখালীতে বাঁশের সাঁকো দিয়ে রাস্তা পারাপার করতে গিয়ে সাঁকো থেকে পানিতে পড়ে মু. শাহাদাত মিয়া (৬) নামে মাদরাসার এক শিশু শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে।

মঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) বেলা ২টার সময় এ ঘটনা ঘটে উপজেলার পুঁইছড়ি ইউনিয়নের পূর্ব-পুঁইছড়ি ৪ নম্বর ওয়ার্ডের স্থানীয় বড় পাড়া কবরস্থান সড়কের বাঁশের সাঁকো সংলগ্ন এলাকায়।

নিহত শিশু শিক্ষার্থী আব্দুল গফুরের ছেলে। সে স্থানীয় তালিমুল কোরআন ও নুরানি মাদরাসায় শিশু শ্রেনীতে পড়ে।

স্থানীয় তালিমুল কোরআন ও নুরানি মাদরাসার প্রধান শিক্ষক মাও. মুহাম্মদ শফি বলেন, প্রতিদিনের মতো শাহাদাত মিয়া বাড়ি থেকে মাদরাসায় আসার সময় বড় পাড়া কবরস্থান সড়কের উপর দিয়ে বাঁশের সাঁকো পার হতে গিয়ে অসতর্কতাবশত ডোবায় পড়ে গেলে তার সাথে থাকা অন্যান্য শিক্ষার্থীদের চিৎকার শুনে স্থানীয়রা তাকে ডোবা থেকে উদ্ধার করে। পরে তাকে স্থানীয়রা বাঁশখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। কর্তব্যরত চিকিৎসক শিশুটিকে মৃত্যু ঘোষণা করেন।'

আরও পড়ুন : ভোলায় ক্ষতিপূরণের দাবিতে কৃষকদের মানববন্ধন

স্থানীয় মু. হাবীব জানায়, 'বড় পাড়া কবরস্থান সড়কে বর্ষার সময় পানি চলাচলের জন্য কালভার্ট বসানো হয়েছে। একসময় কালভার্ট সংলগ্ন সড়কের বড় একটা অংশ ভেঙ্গে যাওয়ায় সড়কেই চলাচলের জন্য বাঁশের সাঁকো বসানো হয়। আজ পর্যন্ত ভাঙ্গা সড়কটি মেরামতে কোন জনপ্রতিনিধি এগিয়ে আসেনি। সড়ক সংস্কার করে পুণঃ কালভার্ট স্থাপন না করলে ওই শিশু শিক্ষার্থীর মতো আরও অনেকের জীবন ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়বে বলে আশংকা প্রকাশ করেন তিনি।

ওডি/এএইচ

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড