• বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ২ বৈশাখ ১৪২৮  |   ৩২ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

গ্রামবাসী যখন স্বেচ্ছাসেবক

  রফিক, গাইবান্ধা

০৩ এপ্রিল ২০২১, ১৪:৫৯
মেরামত
স্বেচ্ছাশ্রমে মেরামত করে নিলেন চলাচলের অযোগ্য গ্রামের রাস্তাটি (ছবি : দৈনিক অধিকার)

কারো হাতে কোদাল, কেউ বাঁশ কাটছে, কেউ টুকরিতে মাটি ভর্তি করছে, আবার কেউ মাটি ভর্তি টুকরি মাথায় নিয়ে যাচ্ছে। এভাবেই নিজের অর্থ আর স্বেচ্ছাশ্রমে মেরামত করে নিলেন চলাচলের অযোগ্য গ্রামের রাস্তাটি।

স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের দারে দারে ঘুরেও কোন প্রতিকার না পেয়ে ঐক্যবদ্ধ হয়ে রাস্তা মেরামত করছেন গাইবান্ধার পলাশবাড়ি উপজেলার মনোহরপুর ইউনিয়নের ১ নং ওয়ার্ডের পশ্চিম কুমারগাড়ী গ্রামবাসী। গ্রামে প্রবেশের একমাত্র রাস্তাটি বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে দীর্ঘদিন চলাচলের অযোগ্য ছিল।

সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত "আমার গ্রাম আমার উন্নয়ন" নামে একটি সেচ্ছাসেবী সামাজিক সংগঠনের উদ্যোগে সমাজসেবক ওমর রাজ্জাক মন্ডল মিলনের অর্থায়নে ১৫/১৬ জন যুবক এ কাজ করেন। মেরামত কাজের নেতৃত্ব দেন সমাজ সেবক মিলন মন্ডল।

তিনি বলেন, গ্রামের রাস্তাটি চলাচলের জন্য অযোগ্য হয়েছিল। গ্রামের কোন মানুষ অসুস্থ হলে অ্যাম্বুলেন্স আসত না। ফলে রোগীর অনেক কষ্ট পোহাতে হতো। গ্রামবাসী আর সেচ্ছাসেবীদের উদ্যোগে রাস্তাটি মেরামত করা হচ্ছে। আমি এ কাজে উদ্বুদ্ধ হয়ে তাদের সহযোগিতা করছি।

সেচ্ছাসেবী সুলতান খন্দকার বলেন, রাস্তা ভালো না হলে কি যে দুর্ভোগে পড়তে হয়? তা আমরা হারে হারে টের পাচ্ছি। এই রাস্তাটি দিয়ে কয়েকটি গ্রামের মানুষ চলাচল করে। রাস্তাটির মাঝে ছোট বড় কয়েটি গর্ত ও কিছু অংশ ভেঙ্গে যায় বন্যায়।

ফলে চলাচলে নিদারুণ কষ্ট করতে হত গ্রামবাসীর। মেম্বার-চেয়ারম্যানের কাছে অনেক গিয়েছি, কোন কাজ হয়নি। পরে আমরা নিজেরাই রাস্তা মেরামতের কাজ করছি।

রাস্তা মেরামত কাজের সার্বক্ষণিক পরিচালনার দায়িত্ব পালন করেন সংগঠনের সদস্য রফিক, মাসুম বিল্লাহ, সজীব, ময়নুল, সাহাদৎ। এছাড়াও আব্দুল রউফ খন্দকার, মিরু খন্দকার, আইয়ুব খন্দকার, রাজা মিয়া, সোধু মিয়া, মাহাবুবসহ কয়েকজন এলাকাবাসী উপস্থিত থেকে কাজ সম্পন্ন করেন।

কয়েকজন গ্রামবাসী বলেন, এ রাস্তা প্রায় এক যুগ আগে মেরামত হয়েছিল। তারপর থেকে স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা শুধু কথা দেয়, কিন্তু কাজ হয় না। দীর্ঘদিন রাস্তাটি মেরামত না করায় প্রতি বর্ষায়ই ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এবারের বন্যায় রাস্তাটির অবস্থা আরও বেহাল হয়ে পড়ে। গ্রামের এই রাস্তা সরকারি ভাবে মেরামত করে পাকাকরণ দাবি জানান তিনি।

আরও পড়ুন : ফেনীতে স্মার্টকার্ড বিতরণে ৭ লক্ষাধিক টাকা ভাগবাটোয়ারা

এ বিষয়ে উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এ.কে.এম মোকছেদ চৌধুরী (বিদ্যুৎ) বলেন, নিঃসন্দেহ এটি ভালো কাজ। সমাজের সাধারণ মানুষকে এই কাজে আরও বেশি উৎসাহিত করতে হবে। সেই সাথে এই সংগঠনের মাধ্যমে আমার সর্বোপরি সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে।

ওডি/এএইচ

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118241, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড