• শনিবার, ৩১ অক্টোবর ২০২০, ১৬ কার্তিক ১৪২৭  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার চুরি হওয়া শিশু নোয়াখালীতে উদ্ধার

  নোয়াখালী প্রতিনিধি

০৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০০:১২
আটক
শিশু চুরির ঘটনায় আটকরা (ছবি : দৈনিক অধিকার)

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার আখাউড়া উপজেলা থেকে চুরি হওয়ার দুই দিন পর ১৯ মাস বয়সী শিশু মো. সিফাত মোল্লাকে নোয়াখালী থেকে উদ্ধার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার (৮ সেপ্টেম্বর) রাত সাড়ে ৮টার দিকে নোয়াখালীর সুবর্ণচর উপজেলার চর ওয়াপদা ইউনিয়নের চর কাজী মোখলেছ এলাকায় অভিযান চালিয়ে শিশুটিকে উদ্ধার করে পুলিশ। একই সময় শিশু চুরির ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে দুই জনকে আটক করা হয়।

আটকরা হলো- সুবর্ণচর উপজেলার চর ওয়াপদা ইউনিয়নের ৫ নম্বর ওয়ার্ডের চর কাজী মোখলেছ গ্রামের নুরনবীর ছেলে আনোয়ার (২৫) ও একই এলাকার আবদুস শহীদের ছেলে ফারুক (৩৫)।

অপরদিকে উদ্ধার হওয়া শিশু সিফাত মোল্লা ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার আখাউড়া উপজেলার দেবপুর গ্রামের মোল্লাবাড়ির শিপন মোল্লার ছেলে।

এর আগে গত রবিবার (৬ সেপ্টম্বর) দুপুরের দিকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার আখাউড়া উপজেলার দেবপুর গ্রামের একটি ভাড়া বাসা থেকে শিশু চুরির এই ঘটনা ঘটে। মঙ্গলবার রাত ১০টার দিকে সুবর্ণচর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. ইব্রাহীম খলিল শিশুটিকে তার মা লাকী বেগম ও বাবা শিপন মোল্লার হাতে তুলে দেন।

ভুক্তভোগী শিশুর পরিবার বলছে, অভিযুক্ত ফারুক ও তার স্ত্রী ব্রাক্ষণবাড়িয়া জেলার আখাউড়া উপজেলায় তাদের পাশের একটি ভাড়া বাসায় বসবাস করত। গত (৬ সেপ্টম্বর) দুপুরের খাওয়ার শেষে পরিবারের সদস্যরা ঘুমিয়ে পড়লে ফারুক ও তার স্ত্রী শিশু সিফাতকে চুরি করে পালিয়ে যায়। শেষে শিশুকে হত্যার ভয় দেখিয়ে তারা বিকাশের মাধ্যমে তাদের কাছ থেকে দুই দফায় ছয় হাজার টাকা হাতিয়ে নেয়। পরে পুলিশ অভিযোগ পেয়ে মোবাইল ট্রাকিংয়ের মাধ্যমে শিশুটিকে উদ্ধার করে এবং ওই দু’জনকে আটক করে।

আরও পড়ুন : টিএসসি থেকে নিখোঁজ সেই জিনিয়া নারায়ণগঞ্জ থেকে উদ্ধার

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে চরজব্বার থানার পরিদর্শক (তদন্ত) ইব্রাহীম খলিল দৈনিক অধিকারকে বলেন, এ ঘটনায় চুরি হওয়া শিশুর বাবা বাদী হয়ে গত ৭ সেপ্টেম্বর আখাউড়া থানায় একটি অপহরণ মামলা করেছেন। এই মামলার সূত্র ধরে শিশুটি উদ্ধারে অভিযানে নামে পুলিশ। পরে সুবর্ণচর উপজেলার চর ওয়াপদা ইউনিয়ন থেকে শিশুটিকে উদ্ধার করে রাত ১০টার দিকে তার মা-বাবার হাতে তুলে দেওয়া হয়। পাশাপাশি আটককৃতরা পুলিশি জিজ্ঞাসাবাদে ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে। বিষয়টিতে পরবর্তী আইনি প্রক্রিয়া চলছে বলেও জানিয়েছেন পুলিশের এই কর্মকর্তা।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: +8801703790747, +8801721978664, 02-9110584 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড