• সোমবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০, ৬ আশ্বিন ১৪২৭  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

ছাত্রলীগের সভাপতি হওয়ার ইচ্ছা পোষণ করায় হামলা : মাথায় ৩২ সেলাই

  পাবনা প্রতিনিধি

১৭ জুলাই ২০২০, ১১:২৬
পাবনা
আহত শামিম

পাবনা জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি শামিম হাসান (৩০)কে কুপিয়ে জখম করেছেন সন্ত্রাসীরা।

বৃহস্পতিবার (১৬ জুলাই) রাত ১০ টার দিকে জেলার সুজানগর পৌর সদরের বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এর আগে সোমবার(১৩ জুলাই) সুজানগর উপজেলার আহমেদপুর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানের উপর সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা ঘটে। উপজেলা ছাত্রলীগের আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করেই এই ঘটনা ঘটতে পারে বলে প্রাথমিক ভাবে ধারনা করা হচ্ছে।

ঘটনার পর পরই স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে প্রথমে সুজানগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এবং পরে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করেন।

আহত শামিম সুজানগর উপজেলার তাঁতিবন্ধ ইউনিয়নের কামারদুলিয়া গ্রামের আব্দুল হাই মৃধার ছেলে। তিনি পাবনা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

সুজানগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বদরুদ্দোজা ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ঘটনা শুনেছি। তিনি স্থানীয়দের বরাত দিয়ে জানান, হামলাকারীরা তাকে এলোপাথাড়িভাবে কুপিয়ে জখম করে ফেলে রেখে চলে যায়। পরে স্থানীয় লোকজন তকে উদ্ধার করে প্রথমে সুজানগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তার অবস্থা গুরুতর দেখে দ্রুত পাবনা জেনারেল হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন।

ওসি আরো জানান, এখন পর্যন্ত (শনিবার সকাল ৯টা) কেউ লিখিত অভিযোগ করেননি। অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

আহত ছাত্রলীগ নেতা শামিম হাসান বলেন, তিনি সুজানগর উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি হওয়ার ইচ্ছা পোষণ করার জন্যে একটি পক্ষ তার উপর ক্ষিপ্ত হয়। তাকে হত্যার উদ্দেশ্যে এই হামলা চালান হয় বলে তিনি অভিযোগ করেন। তিনি এই ঘটনার নেপথ্যে যারা রয়েছে তাদের চিহ্নিত করাসহ দোষীদের বিচার দাবি করেন।

তিনি বলেন, সুজানগরের এটি মহল চান না সুজানগরে সুষ্ঠু ধারার রাজনীতি প্রতিষ্ঠিত হোক। তারা নানা অপকর্মের সাথে জড়িত। এসব অপকর্মের প্রতিবাদ করার কারণেও তারা তার উপর ক্ষিপ্ত হন বলে জানান।

আহত ছাত্রলীগ নেতার পিতা আব্দুল হাই মৃধা জানান, আমার ছেলের অবস্থা সংকটাপন্ন। শুধুমাত্র রাজনৈতিক প্রতিহিংসায় আমার ছেলেকে হত্যার চেষ্টা করা হয়েছে। তিনি এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত ও বিচার দাবি করেন।

উল্লেখ্য, গত সোমবার রাজনৈতিক কোন্দলের জের ধরে সুজানগর উপজেলার আহমেদপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কামাল হোসেনের উপর সন্ত্রাসীরা হামলা চালায়। গুরুতর অবস্থায় তিনি বর্তমানে ঢাকার পঙ্গু হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এ বিষয়ে উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহিনুজ্জামান শাহিন বলেন, এই ঘটনাটি আমি শুনেছি, তবে যারাই কাজটি করেছেন তারা খুবই অন্যায় করেছেন। তিনি দোষীদের শাস্তি দাবি করেন।

পাবনা জেনারেল হাসপাতালের অর্থোপেডিক সার্জন ডা. মেহেদী হাসান রুমী জানান, আহত শামীম হোসেনের মাথায় ৩২টি সেলাই দেয়া হয়েছে। এখন ( শনিবার সকাল ৯টা) তার অবস্থা কিছুটা উন্নতির দিকে।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
jachai
niet
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
niet

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড