• বুধবার, ০৩ জুন ২০২০, ২০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭  |   ২৮ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

বৃত্তের মধ্যে বাজারের ক্রেতারা

  যশোর প্রতিনিধি

২৭ মার্চ ২০২০, ১৫:২৬
যশোর
এক মিটার দূরত্বে বৃত্ত দিয়ে কেনাকাটা

করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব রোধে সকল দোকানপাট বন্ধ হলেও যশোরে খোলা রয়েছে কাঁচাবাজার, মুদি এবং ওষুধের দোকান। এ অবস্থায় বৃহস্পতিবার(২৬ মার্চ)  গোলবৃত্তের মধ্যে দূরত্ব বজায় রাখতে অভিনব পদ্ধতি অবলম্বন করে বাজার সদায় করছেন যশোর শহরের বারান্দীপাড়া বৌবাজারের ক্রেতারা। এক মিটার দূরত্বে বৃত্ত দিয়ে কেনাকাটা করতে বাধ্য করা হয়েছে ঘনবসতির এ এলাকার বাসিন্দাদের। তবে এমন উদ্যোগে সন্তুষ্ট ক্রেতা ও বিক্রেতা উভয়েই। 

যশোরের কাঁচাবাজারে মানুষের উপস্থিতি রয়েছে চোখে পড়ার মত। উদয়ন ফাউন্ডেশন নামে একটি সংগঠনের সদস্যরা বাজারের দোকানগুলোর সামনে এক মিটার দূরত্বে বৃত্ত এঁকে দিয়েছেন। ওই বৃত্তের মধ্যে থেকেই কেনাকাটা করতে বাধ্য করা হয়েছে ঘনবসতির এ এলাকার বাসিন্দাদের। আর বৃত্তের বাইরে থাকলে পণ্য দিচ্ছেন না দোকানিরাও। বৃহস্পতিবার থেকে চালু করা হয়েছে এ ব্যবস্থা। 

উদয়ন ফাউন্ডেশনের প্রধান উপদেষ্টা শামীম আহমেদ জানান, সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে বুধবার রাতে বাজারে বৃত্ত একে দেয়া হয়েছে। ঘনবসতি এলাকার এ বাজারের বাড়ির বউরা বাজার করেন। তারা খুব বেশি সচেতন নয়। যে কারণে বৃত্তের মধ্যে তাদের বাজার করতে বাধ্য করা হয়েছে। তিনি বলেন, দোকানিদের বলে দেয়া হয়েছে, বৃত্তের মধ্যে না থাকলে পণ্য বিক্রি না করার জন্য। দোকানিরা নিরাপদ থাকার স্বার্থে তাদের কথা শুনে বেচাকেনা করছেন। 

তিনি আরও বলেন, এছাড়া দোকানিদের মধ্যে বিনামূল্যে মাস্ক ও গ্লোবস বিতরণ করা হয়েছে। যাতে তারা ক্রেতার বা পণ্যের সংস্পর্শ থেকে দূরে থাকেন। তবে এমন উদ্যোগে সন্তুষ্ট ক্রেতা ও বিক্রেতা উভয়েই। 

আরও পড়ুন : প্রেমের কারণে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ

আ. ছালাম নামে এক দোকানি বলেন, এলাকার ছেলেরা খুব ভালো একটা উদ্যোগ নিয়েছে। দোকানে একাধিক লোক আসলে তাদের বৃত্তের মধ্যে দাঁড়িয়ে পর্যায়ক্রমে পণ্য নিতে অনুরোধ করছি। সকলেই তা মেনেই পণ্য ক্রয় করছেন। 

শাকিল হোসেন নামে এক ক্রেতা বলেন, সকালে বাজার করতে এসেই বৃত্ত আঁকা দেখলাম। দোকানিদের জিজ্ঞাসা করলে তারা জানিয়েছে, বৃত্তের মধ্যে দাঁড়িয়ে একে একে বাজার করতে হবে। খুব ভালো উদ্যোগ। এতে সরকার যে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার কথা বলেছে তা কার্যকর হচ্ছে। তাছাড়া বাজারে প্রচুর লোক। কে করোনা ভাইরাস বহন করছে তাতো জানা নেই। অন্তত দূরত্ব বজায় থাকলে নিরাপদ থাকা যাবে। ফলে যশোরের সকল বাজারে এমন ব্যবস্থা নেয়া হলে ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকানো সম্ভব হবে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

যশোর পৌরসভা মেয়র জহিরুল ইসলাম চাকলাদার রেন্টু বলেন, নগরবাসীকে নিরাপদ রাখতে পৌরসভার সকল বাজারে বৃত্ত একে দেয়ার উদ্যোগ নেয়া হবে। একইসাথে তিনি সারাদেশে এ ব্যবস্থা চালুর আহবান জানিয়েছেন।

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড